Daily Sunshine

মাদক সেবন করিয়ে অটোচালককে হত্যা; নেপথ্যে অটো চুরি

স্টাফ রিপোর্টার : রাজশাহীতে গত ৭জানুয়ারি অটোরিকশা চালক জমিস উদ্দিন জয়’কে (২০) গলাকেটে হত্যার অভিযোগে গ্রেপ্তারকৃত ৩জনের কাছ থেকে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য বের হতে শুরু করেছে। হত্যার মাত্র ৩দিনের মাথায় আরএমপি’র আওতাধিন শাহমখদুম থানা কর্তৃপক্ষ অভিযুক্তদের গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হয়। এদিকে নিছক অটোরিকশা চুরির উদ্দেশ্যেই চালককে মাদক সেবন করানোর পর গলা কেটে হত্যা করা হয়েছিল বলে জানিয়েছে থানা কর্তৃপক্ষ।
শাহমখদুম থানার ডিসি হেমায়েতুল ইসলাম জানান, সন্দেহ করা হচ্ছে গ্রেপ্তারকৃত চক্রটি বহুদিন থেকেই আটোরিকশা চুরির সাথে জড়িত। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে এমনটাই প্রামাণ মিলেছে। তিনি আরো জানান, আসামীরা নিজেদের পাশাপাশি অটোচালকে মাদক সেবন করায় যাতে তাদের এই অমানবিক কাজটি করতে বেগ পেতে না হয়।

ঘটনার বর্ণনা দিতে গিয়ে তিনি বলেন, গত ৭জানুয়ারি রাজশাহী মহানগরী থেকে নিহত অটোচালক জয় তার অটো নিয়ে নিরুদ্দেশ হয়ে যায়। পরেরদিন নিহতের আত্মিয় শাহমখদুম থানায় হারানোর জিডি করে। থানা কর্তৃপক্ষ গত ৯ জানুয়ারি গোদাগাড়ী থানাধীন জলাহার গ্রামের কার্বের মোড়ের পাশে একটি পুকুরের ধারে জঙ্গলে গলাকাটা অবসস্থায় জয়ের গলাকাটা নিথর দেহটি উদ্ধার করে। এসময় গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে প্রথমে গোদাগাড়ী থানার মাটিকাটা গ্রামের রাজিব আলী’কে (২৫) গ্রেপ্তার করা হয়। পরে রাজিবের দেয়া তথ্যের সূত্র ধরে অপর দুই আসামী জসিম উদ্দিন (২৩) ও সুমন আলী (২৬) কে গ্রেপ্তার করা হয়। এই দুইজন রাজশাহী নগরীর তিৃপ্তি নামক একটি হোটেলে কাজ করতো।
রাজিব আলীর দেয়া তথ্য মতে, আসামী জসিম ও সুমন নিহত জয়ের অটোতে করে গোদাগাড়িতে আসে এবং রাজিবকে মাদকদ্রব্য নিয়ে আসতে বলে। রাজিব তাদেরকে মাদক সরবরাহ করলে, তারা ঘটনাস্থলে বসে মাদক সেবন করে। এসময় আসামীরা নিহত জয়কেও মাদক খাওয়ায়। একপর্যায়ে সন্ধ্যা নামায় রাজিব চলে আসলে, জমিস ও সুমন অটোচালক জয়কে জঙ্গলের কাছে নিয়ে যায়। এসময় আসামী সুমন মাদকাসক্ত অটোচালক জয়ের পাদুটো চেপে ধরে ও আপর আসামী জসিম অটোচালকের গতায় ছুরি চালায়। তবে ঘটনাক্রমে মাদক সরবরাহকারী সেই রাজিব আবার ঘটনাস্থলে ফিরে আসলে, সে সমস্ত ঘটনা দেখে ফেলে। পরে তাদের মধ্যে সমঝোতা হয়ে গেলে, আসামী তিনজন মিলে লাশটি জঙ্গলে ফেলে পালিয়ে আসে।
এসময় জসিম ও সুমনের গায়ের রক্তমাখা পোশাক জসিম তার বাড়িতে নিয়ে এসে রাখে। আর চুরিকরা অটোটি নাটোরে জসিমের দুলাভাইয়ের বাড়িতে লুকিয়ে রাখে।
তবে এতো কিছু করেও শেষ রক্ষা হয়নি আসামীদের। নিহত জয়ের অটোতে থাকা অপর এক বৃদ্ধ প্যাসেঞ্জারের সামান্য তথ্যের ভিত্তিতে শাহমখদুম থানা কর্তৃপক্ষ আসামী ৩জনকে গ্রেপ্তার করে ফেলে। নিহত অটোচালক জয়কে হত্যার আলামত সেই ছুরি, অটোরিক্সা ও ঘটনারদিন পরিহিত আসামীদের পোশাকসহ ৩জন আসামী এখন শাহামখদুম থানা পুলিশের হেফাজতে।

আরো পড়ুন: 

রাজশাহীতে নিখোঁজের তিনদিন পর অটো চালকের গলাকাটা লাশ উদ্ধার, আটক ২

আসামীর খামারে অগ্নিসংযোগ

 

জানুয়ারি ১১
১৩:০০ ২০১৯

আরও খবর

পত্রিকায় যেমন

বিশেষ সংবাদ

আঁকাআঁকি থেকেই তন্বীর ‘রংরাজত্ব’

আঁকাআঁকি থেকেই তন্বীর ‘রংরাজত্ব’

আসাদুজ্জামান নূর : ছোটবেলা থেকেই আঁকাআঁকির প্রতি নেশা ছিল জুবাইদা খাতুন তন্বীর। ক্লাসের ফাঁকে, মন খারাপ থাকলে বা বোরিং লাগলে ছবি আঁকতেন তিনি। কারও ঘরের ওয়ালমেট, পরনের বাহারি পোশাক ইত্যাদি দেখেই এঁকে ফেলতেন হুবহু। এই আঁকাআঁকির প্রতিভাকে কাজে লাগিয়েই হয়েছেন ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা। তুলির খোঁচায় পরিধেয় পোশাকে বাহারি নকশা, ছবি, ফুল

বিস্তারিত




এক নজরে

আমাদের সাথেই থাকুন

চাকরি

জোরালো হচ্ছে সরকারি চাকরিতে ‘বয়সসীমা’ বাড়ানোর দাবি

জোরালো হচ্ছে সরকারি চাকরিতে ‘বয়সসীমা’ বাড়ানোর দাবি

সানশাইন ডেস্ক : সর্বশেষ ১৯৯১ সালে সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা বাড়ানো হয়। এরপর অবসরের বয়স বাড়ানো হলেও প্রবেশের বয়স আর বাড়েনি। বেকারত্ব বেড়ে যাওয়া, সেশনজট, নিয়োগের ক্ষেত্রে দীর্ঘসূত্রতা, অন্যান্য দেশের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে চাকরিতে প্রবেশের সর্বোচ্চ বয়স বাড়ানোর দাবিতে আন্দোলন করে আসছেন শিক্ষার্থী ও চাকরিপ্রার্থীরা। তবে এ বিষয়ে উদ্যোগ নেয়নি

বিস্তারিত