সর্বশেষ সংবাদ :

২৭ অগাস্ট শুরু এশিয়া কাপ

স্পোর্টস ডেস্ক: ভেন্যু পরিবর্তন আগে থেকেই মোটামুটি ঠিক হয়েছিল, ঘোষণা দেওয়ার অনুষ্ঠানিকতাও এবার সারল এশিয়ান ক্রিকেট কাউন্সিল বা এসিসি। একই সঙ্গে প্রকাশ করেছে টুর্নামেন্ট শুরু আর শেষের সময়।
এশিয়া কাপের এবারের আসর মূলত হওয়ার কথা ছিল পাকিস্তানে। তাদের জায়গায় আগামী অগাস্ট-সেপ্টেম্বরে শ্রীলঙ্কায় হবে এশিয়া সেরার প্রতিযোগিতাটি। এসিসি শনিবার এক বিবৃতিতে জানায় আগামী ২৭ অগাস্ট শুরু হয়ে ১১ সেপ্টেম্বর শেষ হবে এশিয়ার ক্রিকেট শ্রেষ্ঠত্বের লড়াই।
পাঁচ টেস্ট খেলুড়ে দেশ শ্রীলঙ্কা, বাংলাদেশ, ভারত, পাকিস্তান ও আফগানিস্তান সরাসরি খেলবে টুর্নামেন্টে। আরেকটি দল জায়গা পাবে বাছাই পর্ব খেলে। সংযুক্ত আরব আমিরাত, কুয়েত, সিঙ্গাপুর ও হংকংকে নিয়ে আগামী ২০ অগাস্ট শুরু হবে বাছাই পর্বের লড়াই। বিশ্বকাপের সংস্করণের সঙ্গে মিল রেখে মূলত নির্ধারণ করা হয় কোন সংস্করণে হবে এশিয়া কাপ। চলতি বছর অস্ট্রেলিয়া রয়েছে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। তাই ২০২২ সালের এশিয়া কাপ হবে টি-টোয়েন্টি সংস্করণে।
১৯৮৪ সালে শারজাহতে শুরু হওয়া টুর্নামেন্টের ১৫তম আসর হতে যাচ্ছে এটি। দুই বছর পর পর এশিয়া কাপ আয়োজন করে আসছে এসিসি। কিন্তু করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে সেই ধারাবাহিকতায় ব্যঘাত ঘটেছে। প্রতিযোগিতাটির সবশেষ আসর হয়েছিল ২০১৮ সালে, ওয়ানডে সংস্করণে। সেবার শিরোপা জিতেছিল ভারত। কোভিড-১৯ এর প্রকোপে স্থগিত হয়ে যায় ২০২০ সালের আসর।
ওই বছর টুর্নামেন্টটি আয়োজন করার কথা ছিল শ্রীলঙ্কার। পরে ২০২১ সালে হওয়ার কথা থাকলেও ফের বাধা হয়ে দাঁড়ায় কোভিড-১৯। ২০২২ সালের আসরটি পাকিস্তানে হওয়ার কথা থাকলেও এখন হবে শ্রীলঙ্কায়। আগামী বছর পাকিস্তানে বসবে টুর্নামেন্টের পরের আসর। এই প্রতিযোগিতার সফলতম দল ভারত। ওয়ানডে সংস্করণের শিরোপা জিতেছে তারা ৬ বার। ২০১৬ সালে হওয়া একমাত্র টি-টোয়েন্টি সংস্করণের চ্যাম্পিয়নও তারা।


প্রকাশিত: মার্চ ২০, ২০২২ | সময়: ৪:১২ পূর্বাহ্ণ | সুমন শেখ