সর্বশেষ সংবাদ :

মান্দায় গোয়ালঘরে অগ্নিকান্ড গরুসহ তিনজন দগ্ধ

মান্দা প্রতিনিধি: নওগাঁর মান্দায় গোয়ালঘরে রহস্যজনক অগ্নিকান্ডের ঘটনায় তিনটি গরু দগ্ধ হয়েছে। গরুগুলোকে বাঁচাতে গিয়ে অগ্নিদগ্ধ হয়েছেন এক নারীসহ তিনজন। বুধবার দিবাগত রাতে উপজেলার কালিকাপুর ইউনিয়নের নলতৈড় গ্রামে অগ্নিকান্ডের এ ঘটনা ঘটে।
অগ্নিদগ্ধরা হলেন, গৃহকর্তা কায়েম উদ্দিন মন্ডল (৫০), তাঁর স্ত্রী মাতোয়ারা বিবি (৪৫) ও ছেলে রাকিবুল ইসলাম রানা (১৮)। এদের মধ্যে মাতোয়ারা বিবি ও রানাকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা নিয়েছেন গৃহকর্তা কায়েম উদ্দিন।
গৃহকর্তা কায়েম উদ্দিন মন্ডল জানান, সাবাইহাটে বিক্রির জন্য পরিবারের সকল সদস্য মিলে বুধবার সন্ধ্যা থেকে রাত ১২টা পর্যন্ত পেঁয়াজ কাটা ও পরিস্কারের কাজ করেন। এরপর তাঁরা সকলে ঘুমিয়ে পড়েন। গভীররাতে প্রতিবেশিদের চিৎকারে তাঁদের ঘুম ভেঙে যায়। বাইরে গিয়ে গোয়ালঘরে আগুন জ্বলতে দেখেন। এসময় গোয়ালঘরে থাকা গরু ও ছাগল বের করতে গিয়ে তিনিসহ স্ত্রী মাতোয়ারা ও ছোটছেলে রানা অগ্নিদগ্ধ হন।
তিনি অভিযোগ করে বলেন, জমিজমা নিয়ে প্রতিবেশি এক পরিবারের সঙ্গে দীর্ঘ ৭-৮ বছর ধরে তাঁর বিরোধ চলছে। এনিয়ে আদালতে মামলাও আছে। সম্প্রতি ওই পরিবারের এক সদস্য তাঁদের বিরুদ্ধে আবারো মিথ্যে মামলা করেন। বিরোধের জের ধরে ক্ষতিসাধন করতে গোয়ালঘরে আগুন দিয়ে গরুগুলো পুড়িয়ে মারার চেষ্টা করা হয়েছে বলেও দাবি করেন তিনি।
এবিষয়ে জানতে প্রতিপক্ষ ওই পরিবারের পুরুষ সদস্যদের কাউকে বাড়িতে পাওয়া যায়নি। তবে ওই পরিবারের এক নারী এসব অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, হয়রানী করতে তাঁদের বিরুদ্ধে অভিযোগের আঙুল তোলা হচ্ছে। নলতৈড় গ্রামের মামুনুর রশিদ বলেন, গভীর রাতে গোয়ালঘরে হঠাৎ অগ্নিকান্ডের ঘটনাটি রহস্যজনক বলে মনে হচ্ছে।
স্থানীয় ইউপি সদস্য নাজিম উদ্দিন মোল্লা বলেন, ক্ষতিগ্রস্থ কায়েম উদ্দিনের সঙ্গে প্রতিবেশি এক পরিবারের দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলছে। আগুন লাগার ধরণ দেখে এটি রহস্যজনক বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছেন লোকজন। এ প্রসঙ্গে মান্দা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহিনুর রহমান বলেন, এরই মধ্যে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করা হয়েছে। এ বিষয়ে অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।


প্রকাশিত: মার্চ ১৮, ২০২২ | সময়: ৫:০৮ পূর্বাহ্ণ | সুমন শেখ