Daily Sunshine

নিয়ামতপুরে ১৫ চেয়ারম্যান প্রার্থীর মনোনয়ন প্রত্যাহার

Share

নিয়ামতপুর প্রতিনিধি: ষষ্ঠ ধাপের ইউনিয়ন নির্বাচনে মনোনয়ন পত্র প্রত্যাহরের শেষ দিনে বৃহস্পতিবার নওগাঁর নিয়ামতপুরে ১৫ জন চেয়ারম্যান প্রার্থী তাদের প্রার্থীতা প্রত্যাহার করে নিয়েছে।
উপজেলার ৮টি ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৫৪ প্রার্থী মনোনয়ন পত্র জমা দিয়েছিল। ১৪ ডিসেম্বর প্রতীক বরাদ্ধ হলে ৩৯ জন চেয়ারম্যান প্রার্থী ভোট যুদ্ধে নামবে।
প্রত্যাহার চেয়ারম্যান প্রার্থীরা হলেন হাজিনগর ইউপির চেয়ারম্যান প্রার্থীরা হলেন আব্দুর রাজ্জাক, আমিনুল ইসলাম, শহিদুল ইসলাম, আবুল বাশার, মিনহাজুল ইসলাম। এর মধ্যে শহিদুল ইসলাম তার প্রার্থীতা প্রত্যাহার করে নিয়েছেন।
চন্দননগরে ইউপির চেয়ারম্যান প্রার্থীরা হলেন খালেকুজ্জামান তোতা, দেলোয়ার হোসেন শিমুল, বদিউজ্জামান বদি, বদিউজ্জামান, গৌতম চন্দ্র বর্মন, জাকারিয়া, আব্দুর রহমান। এরমধ্যে গৌতম চন্দ্র বর্মন ও আব্দুর রহমান তাদের প্রার্থীতা প্রত্যাহার করে নিয়েছেন।
ভাবিচা ইউপির চেয়ারম্যান প্রার্থীরা হলেন ওবাইদুল হক, শরিফুল ইসলাম, জামশেদ আলী, আব্দুল বারী, দেলোয়ার হোসেন, জসিম উদ্দিন মৃধা, মকবুল সরদার, জহিরুল ইসলাম, আব্দুর রহমান। এর মধ্যে মকবুল হোসেন ও আব্দুর রহমান তাদের প্রার্থীতা প্রত্যাহার করে নিয়েছেন।
নিয়ামতপুর সদর ইউপির চেয়ারম্যান প্রার্থীরা হলেন বজলুর রহমান, শামীম রেজা চৌধুরী, শহিদুল ইসলাম, আমিনুর রহমান, একরামুল হক, আব্দুর রহমান, হুমায়ন কবির। এদের মধ্যে কেউ প্রার্থীতা প্রত্যাহার করেনি।
রসুলপুর ইউপির চেয়ারম্যান প্রার্থীরা হলেন মোতালেব হোসেন, সাজ্জাদ হোসেন, আনোয়ারুল ইসলাম, মাহমুদ আলম, মোশারফ হোসেন, একরামুল হক, বাবুল আকতার। এরমধ্যে মোশারফ হোসেন, একরামুল হক ও বাবুল আকতার তাদের প্রার্থীতা প্রত্যাহার করে নিয়েছেন।
পাড়ইল ইউপির চেয়ারম্যান প্রার্থীরা হলেন সৈয়দ মুজিব, আব্দুল মান্নান, মঞ্জুর রহমান, মাইনুল ইসলাম মিনু, মনিরুজ্জামান শেখ পলাশ, শফিউদ্দিন আহমেদ। এরমধ্যে মনিরুজ্জামান শেখ পলাশ ও শফিউদ্দিন আহমেদ তাদের প্রার্থীতা প্রত্যাহার করে নিয়েছেন।
শ্রীমন্তপুর ইউপির চেয়ারম্যান প্রার্থীরা হলেন রফিকুল ইসলাম, আল মামুন হক, খলিলুর রহমান। এদের কেউ প্রার্থীতা প্রত্যাহার করেনি।
বাহাদুরপুর ইউপির চেয়ারম্যান প্রার্থীরা হলেন মামুনুর রশিদ, ইমরান হোসেন, রঞ্জু রহমান, আব্দুল করিম, ফজলুর রহমান, এরশাদুল হক, আবু তালেব, দ্বিনেশ কুমার মাহাতো, কাদের মন্ডল, মঞ্জুর রাশেল। এরমধ্যে কাদের মন্ডল, দ্বিনেশ কুমার মাহাতো, ফজলুর রহমান, এরশাদুল হক ও আবু তালেব তাদের প্রার্থীতা প্রত্যাহার করে নিয়েছেন।
সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছিলেন ১০৬ জন, এর মধ্যে প্রার্থীতা প্রত্যাহার করে নিয়েছেন ৩ জন। সাধারণ সদস্য পদে মনোনয়ন জমা দিয়েছিলেন ৩৪৯জন, এর মধ্যে প্রার্থীতা প্রত্যাহার করে নিয়েছেন ১৭ জন।
৩১ ডিসেম্বর ভোট গ্রহন অনুষ্ঠিত হবে এ উপজেলায়। বিষয়টি নিশ্চিত করে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় নিয়ামতপুর উপজেলা নির্বাচন অফিসার জিয়াউল হক খান বলেন, ১৩ ডিসেম্বর বৃহস্পতিবার সকাল থেকে বিকাল ৫ পর্যন্ত বিভিন্ন ইউনিয়ন থেকে ১৫ জন চেয়ারম্যান প্রার্থী তাদের মনোনয়ন পত্র পত্যাহার করে নেন।
জানা গেছে, নিয়ামতপুর উপজেলার আট ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে মোট ৫৪ জন প্রার্থী মনোনয়ন পত্র জমা দিয়েছিল। বৃহস্পতিবার ১৫ জন প্রত্যাহার করায় নির্বাচনের লড়াইয়ে রয়ে গেছে ৩৯ জন। এরমধ্যে আ’লীগের দলীয় নৌকা প্রতীকে ৮ জন। উপজেলার আট নৌকা প্রতীকের সাথে স্বতন্ত্র হিসেবে লড়বেন ৩১ জন প্রার্থী। এছাড়া সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১০৩ জন এবং সাধারণ সদস্য পদে ৩৩২ জন প্রার্থী লড়বেন।
নিয়ামতপুর উপজেলায় মোট ভোটার সংখ্যা ১ লক্ষ ৯৭ হাজার ৮৪৭ জন, এরমধ্যে পুরুষ ভোটার ৯৭ হাজার ৬০৩ জন এবং মহিলা ভোটার ১ লক্ষ ২৪৪ জন। হাজিনগর ইউনিয়নে মোট ভোটার ২২ হাজার ১৯১ জন, এর মধ্যে পুরুষ ১১ হাজার ১৫৪ জন এবং মহিলা ১১ হাজার ৩৭ জন, চন্দননগর ইউনিয়নে মোট ভোটার ২১ হাজার ২১১ জন, এরমধ্যে পুরুষ ১০ হাজার ৫৫৭ জন এবং মহিলা ১০ হাজার ৬৫৪ জন, ভাবিচা ইউনিয়নে মোট ভোটার ২৬ হাজার ৭৭৭ জন, এর মধ্যে পুরুষ ১৩ হাজার ১৩৪ জন এবং মহিলা ১৩ হাজার ৬৪৩ জন, নিয়ামতপুর সদর ইউনিয়নে মোট ভোটার ২১ হাজার ৬২০ জন, এর মধ্যে পুরুষ ১০ হাজার ৪৫৮ জন এবং মহিলা ১১ হাজার ১৬২ জন, রসুলপুর ইউনিয়নে মোট ভোটার ২৮ হাজার ৩৯৭ জন এর মধ্যে পুরুষ ১৪ হাজার ৩১৩ জন এবং মহিলা ১৪ হাজার ৮৪ জন, পাড়ইল ইউনিয়নে মোট ভোটার ২৫ হাজার ১৩ জন, এর মধ্যে পুরুষ ১২ হাজার ১৪১ জন এবং মহিলা ১২ হাজার ৮৭২ জন, শ্রীমন্তপুর ইউনিয়নে মোট ভোটার ২৪ হাজার ৮০২ জন এর মধ্যে পুরুষ ১২ হাজার ১৩২ জন এবং মহিলা ১২ হাজার ৬৭০ জন, বাহাদুরপুর ইউনিয়নে মোট ভোটার ২৭ হাজার ৮৩৬ জন, এর মধ্যে পুরুষ ১৩ হাজার ৭১৪ জন এবং মহিলা ১৪ হাজার ১২২ জন।

জানুয়ারি ১৫
০৬:৪০ ২০২২

আরও খবর

[TheChamp-FB-Comments]