মৃদু শৈতপ্রবাহে কাঁপছে রাজশাহী

স্টাফ রিপোর্টার: একদিকে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা কমছে, অন্যদিকে সর্বোচ্চ তাপমাত্রাও কমেছে। সর্বনিম্ন ও সর্বোচ্চ তাপমাত্রার মধ্যে পার্থক্য কম হওয়ায়, তার সঙ্গে মৃদ শৈতপ্রবাহ হওয়ার কারণে শীতের অনুভব বেড়েছে। বুধবার রাজশাহীত সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৯ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। গত পাঁচ দিনে ৫ ডিগ্রি বেশি তাপমাত্রা কমেছে। রাজশাহী আবহাওয়া অফিস বলছে- রাজশাহীর উপর দিয়ে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে। যা থাকতে পারে আরো কয়েকদিন ।
জানা গেছে, বুধবার (৫ জানুয়ারি) রাজশাহীতে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৯ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। সেই হিসেবে একদিনে তাপমাত্রা কমেছে এক ডিগ্রি। এছাড়া মঙ্গলবার (৪ জানুয়ারি) সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১০ দশমিক ৫ ডিগ্রি। সোমবার (৩ জানুয়ারি) সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ১১ দশমিক ৫ ডিগ্রি। সকাল ৬টায় বাতাসের আর্দ্রতা ছিল ৯৭ শতাংশ। এছাড়া সন্ধ্যা ৬টায় ছিল ৮৪ শতাংশ। এদনি সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ২২ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস।
রবিবার (২ জানুয়ারি) সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল ২২ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ১২ দশমিক ১ ডিগ্রি। তার আগের দিন শনিবার সর্বোচ্চ তাপমাত্রা একই থাকলেও সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ১৩ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস। সেই হিসেবে একদিনের ব্যবধানে ১ দশমিক ৩ ডিগ্রি তাপমাত্রা কমেছে।
রাজশাহী আবহাওয়া অফিসের সিনিয়র পর্যবেক্ষক শহিদুল ইসলাম জানান, তাপমাত্রা আরো কমতে পারে। বুধবার সকাল ৬টায় বাতাসের আদ্রতা ছিল ১০০ শতাংশ। বাতাস থাকায় বেশি শীত অনুভূত হচ্ছে।


প্রকাশিত: জানুয়ারি ৬, ২০২২ | সময়: ৪:৫৫ পূর্বাহ্ণ | সুমন শেখ