Daily Sunshine

ভারতে কৃষি আইনের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ, সংঘর্ষে নিহত ৬

Share

সানশাইন ডেস্ক: ভারতের উত্তর প্রদেশে বিতর্কিত কৃষি আইনের বিরুদ্ধে প্রতিবাদের সময় কেন্দ্রীয় এক মন্ত্রীর ছেলের গাড়ি প্রতিবাদরত দুই কৃষককে চাপা দেওয়ার পর সৃষ্ট সংঘর্ষে ছয় জন নিহত হয়েছেন। রোববার উত্তর প্রদেশের রাজধানী লখনৌর প্রায় ১৩০ কিলোমিটার উত্তরে লাখিমপুর খেরি জেলায় সহিংসতার এ ঘটনাটি ঘটে বলে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।
গাড়ি চাপা পড়া ওই দুই কৃষক মারা গেছেন বলে প্রতিবাদরত অন্যান্যরা জানিয়েছেন। ওই গাড়িটি ভারতের কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী অজয় মিশ্রর ছেলের বলে অভিযোগ তাদের। ঘটনার সময় তার ছেলে সেখানে ছিল না বলে দাবি করেছেন অজয় মিশ্র। তিনি বলেছেন, ‘দুবৃত্তরা’ গাড়িটি লক্ষ্য করে পাথর নিক্ষেপ করে এবং লাঠি ও তালোয়ার নিয়ে আক্রমণ করায় ‘আমাদের চালক’ নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেললে কৃষকরা আঘাত পান।
রয়টার্স টেলিভিশনের অংশীদার এএনআইকে তিনি বলেছেন, “আমার ছেলে যদি সেখানে থাকত তাহলে জান নিয়ে আর ফিরতে হত না।” গাড়ি চাপা পরবর্তী সংঘর্ষের ঘটনায় ভারতের ক্ষমতাসীন দল বিজেপির (ভারতীয় জনতা পার্টি) তিন সদস্য, এক গাড়িচালক ও আরও দুই কৃষক নিহত হন বলে জানিয়েছে পুলিশ। ওই সময় মন্ত্রীর ছেলের গাড়িবহরের একটি গাড়ি জ্বালিয়ে দেয় উত্তেজিত জনতা। অন্য গাড়িগুলোও ভাংচুর করে তারা।
মন্ত্রীর ওই দাবি সত্ত্বেও তদন্ত শুরু করার পর তার ছেলে আকাশ মিশ্রর বিরুদ্ধে খুনের মামলা করেছে পুলিশ। সঙ্গে আরও কয়েকজনের নামও রয়েছে বলে খবর ভারতীয় গণমাধ্যমের। ঘটনার বিষয়ে তদন্ত শুরু করা হয়েছে বলে এর আগে জানিয়েছিল উত্তর প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথের দপ্তর। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে আরও প্রতিবাদ ও রাজ্যের কিছু অংশে সড়ক অবরোধের ঘটনাও ঘটে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভারতের বিরোধীদলীয় নেতারা ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ করেন। ভারতের জাতীয় পর্যায়ের ও উত্তর প্রদেশের স্থানীয় অনেক বিরোধীদলীয় নেতার সোমবার নিহতদের পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে দেখা করার কথা রয়েছে।

অক্টোবর ০৫
০৫:৩০ ২০২১

আরও খবর

[TheChamp-FB-Comments]