Daily Sunshine

বাঘায় গলায় ফাঁস দিয়ে স্কুল ছাত্রীর আত্মহত্যা

Share

স্টাফ রিপোর্টার, বাঘা: রাজশাহীর বাঘায় নবম শ্রেণি পড়া এক স্কুল ছাত্রীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার সকালে উপজেলার হাবাসপুর গ্রামে ছাত্রীর নিজ ঘর থেকে এ লাশ উদ্ধার করা হয়। নিহত ছাত্রীর নাম লতা খাতুন। তার পিতার নাম রবিউল ইসলাম ওরুপে পাতান।
স্থানীয় একাধিক সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার হাবাসপুর গ্রামের পাতান আলীর নবম শ্রেণি পড়া মেয়ে লতা খাতুন (১৬) মঙ্গলবার সকালে তার নিজ ঘরে তীরের সাথে গলায় উড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনা স্থল থেকে তার লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।
বাঘা থানা পুলিশের এসআই প্রজ্ঞাময় জানান, মৃত স্কুল ছাত্রীর হাতে ব্লেড দিয়ে কয়েক জায়গায় কাটা দাগ রয়েছে। প্রাথমিক ভাবে ধারনা করা হচ্ছে প্রণয় ঘটিত ব্যার্থতার কারণে সে আত্মহত্যার পথ বেছে নিয়েছে। তবে ছাত্রীর পিতা-মাতা দাবি করেছেন, লতার শ্বাসকষ্ট জনিত অসুখ রয়েছে। এ কারণে সে আত্মহত্যা করে থাকতে পারে।
নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক লতার এক বান্ধবী জানান, তার প্রবাসী এক যুবকের সাথে ফেসবুকে বন্ধুত্ব ছিল। কোন কারণে তার সাথে ঝামেলা হওয়ায় হয়তো-বা সে আত্মহত্যার পথ বেছে নিতে পারে।
বাঘা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সাজ্জাদ হোসেন জানান, ঘটনাস্থলে পুলিশ গেছে। তার লাশ পোস্টমর্টেম করার জন্য রামেক হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। সুরতাহাল রিপোর্ট এলে সবকিছু জানা যাবে।

সেপ্টেম্বর ২৯
০৭:২৮ ২০২১

আরও খবর

[TheChamp-FB-Comments]

সর্বশেষ