Daily Sunshine

মহামারির মধ্যেও থেমে নেই উন্নয়ন : শাহরিয়ার

Share

নুরুজ্জামান, বাঘা: রাজশাহীর চারঘাট-বাঘা আসনের সংসদ সদস্য ও পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম বলেছেন, এখন পৃথিবীর সবচেয়ে বড় আতঙ্কের নাম করোনা। এর ভয়াল থাবায় গ্রাস হচ্ছে সারা বিশ্ব। কিন্তু তার মধ্যেও থেমে নেই সরকারের উন্নয়ন কর্মকান্ড।
আমরা একদিকে যেমন দেশের উন্নয়ন অগ্রগতির কথা ভাবছি, অন্যদিকে ভাবছি মানুষের স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিত করার বিষয়। শনিবার বাঘার আড়ানী পৌর মার্কেট নির্মাণ কাজের উদ্বোধনসহ উপজেলার ৮টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ভিত্তি প্রস্তর এবং নতুন ভবন উদ্বোধন কালে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।
বেলা ১১ টায় উপজেলা এলজিইডির পক্ষ থেকে বাস্তবায়নকৃত আড়ানী পৌর বাজারে তৃতীয় তলা গ্রামীণ মার্কেটের নির্মাণ কাজ উদ্বোধন শেষে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম বলেন, এটি শোকের মাস। এ মাসে আমরা জাতির পিতা ও তার স্ত্রী-পুত্র সহ পরিবারের ১৭ সদস্যকে হারিয়ে ছিলাম। জাতির পিতার স্বপ্ন ছিল এ দেশকে সোনার বাংলা গড়ার। আজ শত বাধা বিপত্তি পেরিয়ে তার স্বপ্ন বাস্তবায়ন করতে নিরলস ভাবে পরিশ্রম করে যাচ্ছেন তার সুযোগ্য কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা।
এদিকে মন্ত্রী আড়ানী গ্রামীণ পৌর মার্কেট নির্মাণ কাজের উদ্বোধন শেষে পর্যায়ক্রমে উপজেলার বেড়েরবাড়ী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নতুন ভবনের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন, পাঁচপাড়া প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নতুন ভবনের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন, হরিনা উচ্চ বিদ্যালয়ের দ্বিতীয় তলা ভবনের উদ্বোধন, তেপুকুরিয়া প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নতুন ভবনের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন, ঢাকা চন্দ্রগাথী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নতুন ভবনের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন, বারখাদিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের তৃতীয় তলা ভবনের উদ্বোধন, পাকুড়িয়া প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নতুন ভবনের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন এবং সব শেষে তুলশীপুর প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নতুন ভবনের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপনের উদ্বোধন করেন।
এসব বিদ্যালয়ের ভিত্তি স্থাপন ও উদ্বোধন কালে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম বলেন, মহামারী করোনার কারণে শিক্ষার যে ক্ষতি হলো সেটি অপুরনীয়। এটি শুধু আমাদের দেশে নয়, সারা পৃথিবী ব্যাপী। কারণ কোন সরকারই চান না কোমল মতি শিশুদের জীবন অকালে ঝরে যাক। তবে আমাদের সরকার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন খুব শীঘ্রই দেশের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলে দিবেন।
তিনি বলেন, ইতোমধ্যে আমরা দেশের ১৫ ভাগ মানুষকে টিকা দিতে সক্ষম হয়েছি। প্রধান মন্ত্রীর পরিকল্পনা রয়েছে, এখন থেকে প্রতিমাসে দেড় থেকে দুই কোটি মানুষকে টিকা দেয়ার ব্যবস্থা করা হবে।
তিনি বলেন, জাতির পিতা ২৬ হাজার শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে সরকারী করে ছিলেন। আর তার সুযোগ্য কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা সারা দেশে ৪০ হাজার প্রাথমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে সরকারি করণ করেছে। আমার বিশ্বাস এ মুহুর্তে দেশে কোন বে সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় নেই। কারণ এ সরকার প্রাথমিক শিক্ষাকে যুগ উপযোগী করতে চান। সবশেষে তিনি জনগণকে বৈশ্বিক করোনা কালিন সময় স্বাস্থ্য সুরক্ষার জন্য প্রতিনিয়ত মাস্ক পরার আহবান জানান।
এ সময় তার সঙ্গে ছিলেন, বাঘা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পাপিয়া সুলতানা, রাজশাহী জেলা নির্বাহী প্রকৌশলী সানিউল আলম, বাঘা উপজেলা প্রকৌশলী রতন কুমার ফোজদার, বাঘা থানা অফিসার ইনচার্জ সাজ্জাদ হোসেন, বাঘা উপজেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক আশরাফুল ইসলাম বাবুল, যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক যথাক্রমে অধ্যক্ষ নছিম উদ্দিন ও সিরাজুল ইসলাম মন্টু, উপজেলা আ’লীগের সম্মানীত সিনিয়র সদস্য মাসুদ রানা তিলু, সাংগঠনিক সম্পাদক ওয়াহেদ সাদিক কবির, আড়ানী পৌর আ’লীগের সভাপতি শহিদুজ্জামান সাইদ, আড়ানী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম রফিক, বাজুবাঘা ইউনিয়ন আ’লীগের সভাপতি ফজলুর রহমান ফজল, উপজেলা মহিলা আ’লীগের সভানেত্রী ফাতেমা মাসুদ লতা, বাঘা উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সোহানুর রহমান সোহাগ, সাধারণ সম্পাদক নাজমুল হোসেন ও আড়ানী পৌর ছাত্রলীগের সভাপতি রিবন আহাম্মেদ বাপ্পিসহ আ’লীগের সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ
উপজেলা প্রকৌশলী অধিদপ্তর সূত্রে জানা গেছে, যেসকল উন্নয়ন প্রকল্পোর ভিত্তি স্থাপন ও উদ্বোধন করা হয়েছে তার প্রাককলন ব্যায় ধরা হয়েছে ৫ কোটি ৮৩ লক্ষ টাকা।

আগস্ট ২৯
০৬:১০ ২০২১

আরও খবর

[TheChamp-FB-Comments]