Daily Sunshine

অবশষে মোহনগঞ্জ হাটে প্রভাবশালীর ঘর উচ্ছেদ

Share

স্টাফ রিপোর্টার, বাগমারা: পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশের পর অবশেষে রাজশাহীর বাগমারা উপজেলার মোহনগঞ্জ হাটে সরকারী জায়গা দখল করে নির্মাণ করা অবৈধ দোকান ঘর উচ্ছেদ অভিযানে নামে বাগমারা উপজেলা প্রশাসন। বুধবার সকাল সাড়ে ১০ টার দিকে মোহনগঞ্জ হাটে প্রভাবশালীর নির্মাণাধীন দোকান ঘরে সেনা, পুলিশ, আনসার বাহিনীর সদস্যদের সঙ্গে নিয়ে অভিযান পরিচালনা করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার শরিফ আহম্মেদ।
অভিযানে সরকারী খাস জমিতে রাতারাতি অবৈধ ভাবে দোকান নির্মাণ করায় তা ভেঙ্গে দেয়া হয়েছে। এর আগে বিষয়টি নিয়ে বুধবার স্থানীয় বিভিন্ন পত্রিকায় সচিত্র প্রতিবেদন প্রকাশিত হলে টনক নড়ে প্রশাসনের।
স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার মোহনগঞ্জ হাটে সরকারী জায়গায় অবৈধ ভাবে জোরপূর্বক দোকান ঘর নির্মাণ করে আসছিলেন স্থানীয় রানা সরদার নামের এক প্রভাবশালী। বিষয়টি স্থানীয় লোকজন উপজেলা প্রশাসনসহ সহকারী কমিশনারকে (ভূমি) অবহিত করেন। অভিযোগের ভিত্তিতে প্রশাসনের পক্ষ থেকে সংশ্লিষ্ট ইউনিয়ন ভূমি কর্মকর্তাকে (তহসিলদার) ওই দোকান ঘর নির্মাণ কাজ বন্ধ করার জন্য পাঠানো হয়। তহসিলদার দোকান ঘরের নির্মাণ কাজ বন্ধ করতে বলেন। প্রথমে বন্ধ না করলেও পুনরায় গিয়ে বন্ধ করতে বলেন। পরে সাময়িক নির্মাণ কাজ বন্ধ রাখে প্রভাবশালী রানা সরদার।
সন্ধ্যার পর শুরু হয় লাইটের আলোয় সেই দোকান ঘরের ঢালাই কাজ। রাতের মধ্যে সম্পূর্ণ কাজ শেষ করে রানা সরদার। সরকারী নির্দেশনা অমান্য করে বন্ধ করা নির্মাণাধীন দোকান ঘরের কাজ শেষ হয়েছে বিষয়টি প্রশাসনের নজরে আসে। নড়েচড়ে বসে প্রশাসন। সকাল হতেই প্রভাবশালী ব্যক্তির নির্মাণকৃত দোকানে অভিযান পরিচালনা করেন প্রশাসন। অভিযানে ভেঙ্গে গুড়িয়ে দেয়া হয়েছে দোকান ঘরটি।
এর আগেও মোহনগঞ্জ হাটে সরকারী জায়গা দখল করে বিক্রয় করেছেন রানা সরদার। তার বাড়ি গনিপুর ইউনিয়নের মোহনহঞ্জ গ্রামে। হাটের নিকটে বাড়ি হওয়ার কারণে হাটের সরকারী অনেক জায়গা রয়েছে তার দখলে। জায়গাগুলো দিনকে দিন তিনি বিক্রি করে চলছেন।
তারই ধারাবাহিকতায় মোহনগঞ্জ পান হাটায় বর্তমানে দখল করে পাকা দোকান ঘর নির্মাণ করে আসছিলেন তিনি। সরকারী খাস জমি যেন তাদেরই। দিনে দুপুরে তার ক্যাডার বাহিনীর সদস্যদের বসিয়ে রেখে নির্মাণ করে আসছিলেন দোকান ঘর। কেউ কথা বলার সাহসও পায় না তাদের সামনে।
সরকারী জমি দখল আর ঘর নির্মাণ করে বিক্রি করাই যেন তার ব্যাবসা। সম্প্রতি মোহনগঞ্জ হাটে এরকমই একটি জায়গা দখল করে সাত লাখ টাকায় বিক্রয় করেছেন রানা সরদার। মোহনগঞ্জ হাটে তাদের পরিবারের কব্জায় রয়েছে প্রায় কোটি টাকার সরকারী সম্পত্তি।
এছাড়াও মোহনগঞ্জ হাটে কয়েকটি পরিবারের দখলে রয়েছে সরকারী অনেক জায়গা। এতে সরকারী কোটি কোটি টাকার সম্পত্তি বেদখল হয়ে পড়ে আছে।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শরিফ আহম্মেদ জানান, সরকারী জমিতে কেউ নিজের ইচ্ছে মতো অবৈধ ভাবে ঘর নির্মাণ করতে পারবে না। প্রভাবশালীরা যতো বড়ই হোক আইন সবার জন্য সমান। প্রশাসনের নিষেধ অমান্য করে রাতারাতি পাকা দোকান ঘর নির্মাণ কাজ শেষ করে। বিষয়টি জানতে পেরে অভিযান পরিচালনা করে নির্মাণকৃত দোকান ঘর ভেঙ্গে দেয়া হয়েছে।

আগস্ট ০৫
০৫:৩৪ ২০২১

আরও খবর

[TheChamp-FB-Comments]