Daily Sunshine

বাগমারায় বিএনপি নেতা অধ্যাপক মকলেছ আর নেই

Share

স্টাফ রিপোর্টার, বাগমারা: বাগমারা বিএনপিকে তিল তিল করে গড়ে তুলেছেন, করেছেন শক্তিশালি। তৃণমূল থেকে সংগঠনের নেতৃত্ব দিয়ে সভাপতির পদ অলংকৃত করেছেন। দলে তিনি সবার ভালবাসার পাত্র। ছিলেন ত্যাগি নেতা। মৃত্যুর পূর্ব পর্যন্ত ভবানীগঞ্জ সরকারি বিশ্ববিদ্যালয় কলেজে অধ্যাপনায় জড়িত থেকে সুখ্যাতি পেয়েছেন মানুষ গড়ার কারিগর। প্রিয় সেই নেতা ও সেই মানুষ গড়ার কারিগর আর নেই। মহামারি করোনা অকালে কেড়ে নিয়েছে তার প্রাণ। দীর্ঘ বাইশ দিন করোনার সাথে যুদ্ধ করে মঙ্গলবার রাত ১০ টা ১৫ মিনিটে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন প্রিয় নেতা প্রিয় শিক্ষক অধ্যাপক মকলেছুর রহমান।
মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৫৮ বছর। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী ও দুই কন্যা রেখে গেছেন। তার বাড়ি উপজেলার গনিপুর ইউনিয়নের হাটএকডালা গ্রামে। তাঁর মৃত্যুতে এলাকাবাসি একজন অভিজ্ঞ নেতাতে ও একজন জনপ্রিয় শিক্ষককে হারালো। তিনি দীর্ঘদিন বাগমারা উপজেলা বিএনপির সভাপতি ও জেলা বিএনপির সহসভাপতির দায়িত্ব পালন করেন। বিগত উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে তিনি বিএনপি মনোনীত প্রার্থী ছিলেন ধানের শীষ প্রতীকের প্রার্থী ছিলেন। ওই নির্বাচনে তিনি আওয়ামী লীগ প্রার্থী জাকিরুল ইসলাম সান্টুর কাছে সামান্য ভোটের ব্যবধানে পরাজিত হন।
নমুনা পরীক্ষায় করোনা পজিটিভ হলে গত মে মাসের ১৭ তারিখ তাঁকে রামেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে চিকিৎসাকালীন তাঁর শারিরীক অবস্থার অবনিত হলে তাকে আইসিইউতে স্থানাস্তর করা হয়।
এখানেই চিকিৎসাধীন অবস্থায় করোনার সঙ্গে ২২ দিন পাঞ্জা লড়ে পরাজয় বরণ করেন তিনি। পারিবারিক জীবনেও তিনি ছিলেন প্রতিষ্ঠিত। তাঁর স্ত্রী ইসমত আরা বীনা বর্তমানে বাগমারা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক, বড় মেয়ে মুসফিকা জিনহা সাইকি বরেন্দ্র মেডিকেল কলেজে এমবিবিএস শেষ বর্ষে অধ্যায়নরত ও ছেটে মেয়ে মিথিলা ফারজানা এইচ এসসি উত্তীর্ণ হয়ে এখন বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি প্রস্তুতি।
বুধবার বেলা ১২ টায় নিজ গ্রামে জানাযা শেষে পারিবারিক গোরস্থানে তাকে দাফন করা হয়। মরহুমের জানাযায় উপস্থিত ছিলেন জেলা বিএনপির আহবায়ক আবু সাইদ চাঁদ, জেলা বিএনপির সাবেক সভাপতি তোফাজ্জল হোসেন তপুসহ বিএনপির শীর্ষ নেতৃবৃন্দ ও বাগমারা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ গোলাম সরোয়ার আবুলসহ স্থানীয় আওয়ামী লীগের বিভিন্ন স্তরের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।
তাঁর মৃত্যুতে বিভিন্ন ব্যক্তি ও সংগঠনের পক্ষে শোক প্রকাশ করা হয়েছে। গভীর শোক ও শোক সন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফকরুল ইসলাম ইসলাম আলমগীর, বাগমারার সংসদ সদস্য ইঞ্জিনিয়ার এনামুল হক।
এছাড়া ভবানীগঞ্জ সরকারি বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ পরিবার, বাগমারা কলেজ ও হাইস্কুল শিক্ষক সমিতি ও বাগমারা প্রেসক্লাবের পক্ষ থেকে গভীর শোক ও সমবেদনা জানানো হয়েছে।

জুন ১০
০৫:৩১ ২০২১

আরও খবর