Daily Sunshine

‘খাদ্যের দামে’ কমলো মূল্যস্ফীতি

Share

সানশাইন ডেস্ক: খাদ্য পণ্যের দাম কমে আসায় গেল মে মাসে দেশের সাধারণ মুল্যস্ফীতি আরও কিছুটা কমেছে বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর (বিবিএস)। পয়েন্ট টু পয়েন্ট ভিত্তিতে মে মাসে সাধারণ মূল্যস্ফীতি কমে ৫ দশমিক ২৬ শতাংশে নেমেছে বলে মঙ্গলবার বিবিএসের তথ্য তুলে ধরেন পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান।
গত বছর মে মাসে মূল্যস্ফীতির হার ৫ দশমিক ৫৬ শতাংশ ছিল। আর পয়েন্ট টু পয়েন্ট ভিত্তিতে গত এপ্রিলে মূল্যস্ফীতি ছিল ৫ দশমিক ৯৬ শতাংশ। মঙ্গলবার জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভা শেষে সম্মেলনে এসব তথ্য সাংবাদিকদের জানান পরিকল্পনামন্ত্রী।
সাংবাদিকদের তিনি বলেন, মে মাসে খাদ্য উপখাতে মূল্যস্ফীতি হয়েছে ৪ দশমিক ৮৭ শতাংশ, আগের বছরের মে মাসে এ হার ছিল ৫ দশমিক ০৯ শতাংশ। তবে খাদ্য বহির্ভূত উপখাতের মূল্যস্ফীতি কিছুটা বেড়েছে। মে মাসে খাদ্য বহির্ভূত উপখাতে মূল্যস্ফীতি হয়েছে ৫ দশমিক ৮৬ শতাংশ, আগের বছরের মে মাসে এ হার ছিল ৫ দশমিক ৭৫ শতাংশ।
মূল্যস্ফীতি কমার ব্যাখ্যা দিয়ে বিবিএস মহাপরিচালক মো. তাজুল ইসলাম বলেন, “গত মাসে বিশেষ করে খাদ্য উপখাতের পণ্যের দাম কিছুটা কমে আসায় সার্বিক মূল্যস্ফীতি কমেছে। বিশেষ করে চালের দাম আগের বছরের একই মাসের তুলনায় কমে আসায় মূল্যস্ফীতি কমেছে। “চাল ছাড়াও দেশীয় চাষে উৎপাদিত বেশ কিছু মাছের দাম কমে আসায় খাদ্য উপখাতের মূল্যস্ফীতি কমেছে।”
অন্যদিকে খাদ্য বহির্ভূত উপখাতের বেশ কিছু নিত্যপণ্যের দাম কিছুটা বেড়ে যাওয়ায় এখাতের মূল্যস্ফীতি কিছুটা বেড়েছে। তবে সার্বিকভাবে পয়েন্ট টু পয়েন্ট ভিত্তিতে সাধারণ মূল্যস্ফীতি আগের বছরের একই মাসের তুলনায় কিছুটা কমে এসেছে।

জুন ০৯
০৬:০৯ ২০২১

আরও খবর