Daily Sunshine

পবায় বিয়ের প্রলোভনে গৃহবধূকে ধর্ষণ ছাত্রলীগ নেতার

Share

স্টাফ রিপোর্টার: রাজশাহীর পবায় বিয়ের প্রলোভনে দুই সন্তানের জননী গৃহবধূকে একাধিকবার ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে ছাত্রলীগ নেতার বিরুদ্ধে। অভিযুক্ত ওই ছাত্রলী নেতার নাম সালাউদ্দিন। তিনি রাজশাহীর পবা উপজেলার বড়গাছি ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ড ছাত্রলীগের সভাপতি। তার বিরুদ্ধে ভুক্তভোগী ওই গৃহবধূ পবা থানায় একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেছে। তাকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা করছে পুলিশ।
ধর্ষণের শিকার ওই গৃহবধূকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টার ওসিসিতে পাঠানো হয়েছে।
এ তথ্য নিশ্চিত করে রাজশাহীর পবা থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি শেখ গোলাম মোস্তফা জানান, ভুক্তভোগী ওই গৃহবধূর দুটি সন্তান আছে। দীর্ঘধিন ধরে তার স্বামী বিদেশে থাকে। স্বামী দীর্ঘদিন বাড়িতে না থাকার কারণে ওই গৃহবধূর সাথে একই এলাকার সালাউদ্দিনের পরকিয়া প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। তারা একই গ্রামের বাসিন্দা। সেই সম্পর্কের জের ধরে তাদের মধ্যে একাধিকবার শারীরিক সম্পর্ক হয়। গৃহবধূর দাবি, বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে সালাউদ্দিন তাকে একাধিকবার ধর্ষণ করেছে।
বুধবার ওই গৃহবধূ ৯৯৯ এ কল দিয়ে পুলিশের কাছে সাহায্য চান। ৯৯৯ এ কল দিয়ে তিনি জানান, যে তাকে থানায় যেতে বাধা দেয়া হচ্ছে। এরপর পবা থানা পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থলে গিয়ে ভুক্তভোগী ওই গৃহবধূকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়। এরপর ওই গৃহবধূ থানায় সালাউদ্দিনকে আসামী করে একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন। সেই মামলার পর গৃহবধূকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য রামেক হাসপাতালের ওসিসিতে পাঠানো হয়। এখনো তিনি সেখানে আছেন। অভিযুক্তকে আটকের চেষ্টা চলছে। আইন অনুযায়ী পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

জুন ০৪
০৭:০১ ২০২১

আরও খবর