Daily Sunshine

চুরি করে পালানোর চেষ্টা, ১২ মহিষসহ রাখাল আটক

Share

স্টাফ রিপোর্টার, বাঘা : রাজশাহীর বাঘায় মালিকের সঙ্গে প্রতারণা করে ১২টি মহিষ চুরি করে পালানোর সময় পুলিশের হাতে আটক হয়েছে জাহাঙ্গীর হোসেন নামে এক রাখাল। সোমবার দিবাগত রাতে বাঘার পদ্মার চরাঞ্চলের পলাশী ফতেপুর থেকে পাশের পুঠিয়া এলাকায় প্রবেশ করলে পুঠিয়া থানা পুলিশের সহায়তায় বাঘা থানা পুলিশ তাকে তাকে আটক করে। আটক জাহাঙ্গীরের পিতার নাম হাশেম খামারু বলে জানা গেছে।
পুলিশ জানায়, সোমবার মধ্যরাতে বাঘা উপজেলার পলাশী ফতেপুর এলাকার আশরাফ ঘোষের মহিষের খামার (বাথান) থেকে ১২টি মহিষ চুরি করে নিয়ে যায় তারই রাখাল জাহাঙ্গীর হোসেনসহ অপর কয়েকজন সহযোগী। যার মূল্য প্রায় ১৭ লাখ টাকা। এ খবরটি ওই রাতে মোবাইল ফোনের মাধ্যমে রাজশাহী পুলিশ সুপারকে অবগত করা হয়।
পরে পুলিশ সুপারের নির্দেশনায় বাঘা থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক মামুন হোসেনের নেতৃত্বে একটি টিম রাতভর অভিযান পরিচালনা করেন। এই অভিযানের মাধ্যমে তারা জানতে পারেন পুঠিয়া উপজেলার বারইপাড়া নাম এলাকার একটি আম বাগানে মহিষ গুলোচরানো (ঘাস খাওয়ানো) হচ্ছে। এরপর পুঠিয়া থানা পুলিশের সহায়তা নিয়ে সেখানে হানা দিয়ে ১২টি মহিষ উদ্ধার করে বাঘা থানা পুলিশ। এ সময় রাখাল জাহাঙ্গীর হোসেনকেও আটক করা হয়।
বাঘা থানার ওসি নজরুল ইসলাম জানান, চুরি হওয়া মহিষসহ রাখাল জাহাঙ্গীর হোসেনকে আটক করা হয়েছে। বাঁকি আসামীদের ধরতে অভিযান চালানো হচ্ছে।

মে ২৬
০৬:০৮ ২০২১

আরও খবর