Daily Sunshine

ভারতে ‘করোনা দেবীর’ মন্দির

Share

সানশাইন ডেস্ক: করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে দিশেহারা ভারতের একটি অঞ্চলের কিছু মানুষ করোনা দেবীর মন্দির তৈরি করে আরাধনা করছেন। ভারতীয় গণমাধ্যম জানিয়েছে, তামিলনাড়ুর প্রত্যন্ত অঞ্চল কোয়েম্বত্তুরের একদল মানুষ এই কাজ করেছেন।
শতাধিক বছর আগে ছড়িয়ে পড়েছিল মহামারী প্লেগ। বহু মানুষের মৃত্যু হয়েছিল তাতে। এর থেকে রক্ষা পায়নি তামিলনাড়ুর কোয়েম্বত্তুর জেলাও। বছরের পর বছর ফিরে আসে এই মহামারী। অনেকটা করোনার মতোই। সেই সময় প্লেগের উদ্দেশে একটি মন্দির তৈরি করা হয়েছিল। নাম দেওয়া হয়েছিল ‘প্লেগ মারিয়াম্মান মন্দির’। তাতে মূর্তিও স্থাপন করা হয়।
তামিলনাড়ুর মধ্যে এই এলাকায় করোনার সংক্রমণ তৃতীয় স্থানে। সেখানে স্বাস্থ্য পরিকাঠামোয় সমস্যা দেখা দিয়েছে। বেড ও অক্সিজেন তীব্র ঘাটতি দেখা যায় সম্প্রতি। সার্বিক পরিস্থিতির জেরে উদ্বিগ্ন জেলাবাসী। এই অবস্থায় কোয়েম্বত্তুর শহরের বাইরে ইরুগুরের কাছে কামাচিপুরমে মন্দিরটি তৈরি হয়েছে। এক কর্মকর্তা সংবাদ সংস্থা আইএএনএস-কে বলেছেন, ‘করোনা দেবী একটি কালো পাথরের মূর্তি। যা ১.৫ ফুট দীর্ঘ। আমরা বিশ্বাস করি যে, এই ভয়ংকর রোগ থেকে মানুষকে রক্ষা করবে করোনা দেবী।’
‘করোনা দেবীকে’ উৎসর্গ করে দক্ষিণ ভারতে এটি দ্বিতীয় মন্দির। এর আগে কেরালার কোল্লাম জেলার কাদাক্কালে মন্দির গড়া হয়েছিল। এক পুরোহিত তার বাড়িতে অস্থায়ীভাবে মন্দির স্থাপন করে এই মূর্তি বসিয়েছিলেন।

মে ২৩
০৫:১৭ ২০২১

আরও খবর