Daily Sunshine

ফিলিস্তিনিদের অধিকার ‘লংঘন’, ইসরায়েলের নিন্দা সৌদি আরবের

Share

সানশাইন ডেস্ক: ইসরায়েলের বিরুদ্ধে ফিলিস্তিনিদের অধিকার ‘সুস্পষ্টভাবে লংঘন করার’ অভিযোগ তুলে তেল আবিবের কর্মকাণ্ডের তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন সৌদি আরবের পররাষ্ট্রমন্ত্রী প্রিন্স ফয়সাল বিন ফারহান আল সৌদ। তিনি আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে গাজায় সামরিক আগ্রাসন বন্ধে জরুরিভিত্তিতে ব্যবস্থা নিতেও আহ্বান জানিয়েছেন।
গাজাকে কেন্দ্র করে ইসরায়েল ও হামাসের রক্তক্ষয়ী সংঘাতের সপ্তম দিনে ৫৭ দেশের সংগঠন অর্গানাইজেশন অব ইসলামিক কোঅপারেশনের (ওআইসি) এক জরুরি ভার্চুয়াল বৈঠকের শুরুতে দেওয়া বক্তৃতায় ফয়সাল এ আহ্বান জানান বলে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স। সৌদি এ মন্ত্রী মুসলিমদের কাছে পবিত্র হিসেবে পরিচিত স্থাপনাগুলোর ‘পবিত্রতা লংঘন’ এবং পূর্ব জেরুজালেমে নিজেদের বাড়ি থেকে ফিলিস্তিনিদের ‘জোর করে উচ্ছেদের’ নিন্দা জানান।
তিনি গাজা-ইসরায়েল সীমান্তে উত্তেজনা নিরসনে দায়িত্বশীল ভূমিকা রাখার পাশাপাশি আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে সংঘাত বন্ধে দ্রুত ব্যবস্থা এবং ইসরায়েল-ফিলিস্তিন আলাদা দুটি রাষ্ট্র গঠনের যে প্রস্তাব বিদ্যমান তার ভিত্তিতে দুই পক্ষের মধ্যে শান্তি আলোচনা পুনরায় শুরু করতেও অনুরোধ করেন। রোববার ভোরের আগে গাজা শহরের কেন্দ্রবিন্দুতে ইসরায়েলি হামলার পর হামাস নিয়ন্ত্রিত শহরটিতে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ১৭৪ এ দাঁড়িয়েছে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য কর্মকর্তারা। এর মধ্যে ৪৭টি শিশুও আছে।
ইসরায়েল এখন পর্যন্ত দুই শিশুসহ তাদেরও ১০ জন মারা গেছে বলে নিশ্চিত করেছে। পূর্ব জেরুজালেম থেকে কয়েকটি ফিলিস্তিনি পরিবারকে উচ্ছেদে ইসরায়েলের আদালতে চলা একটি মামলা নিয়ে কয়েক সপ্তাহের উত্তেজনা এবং রোজার মধ্যে আল আকসা মসজিদের কাছে ইসরায়েলি পুলিশ ও ফিলিস্তিনিদের সংঘর্ষের ধারাবাহিকতায় সোমবার গাজার নিয়ন্ত্রণ ধরে রাখা সশস্ত্র গোষ্ঠী হামাস ইসরায়েলের বিভিন্ন শহর লক্ষ্য করে রকেট ছুড়লে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ শুরু হয়। হামাসের রকেটের পাল্টায় ইসরায়েলও জনবহুল গাজায় বিমান হামলা ও কামানের গোলা ছুড়তে শুরু করে।

মে ১৭
০৪:২৭ ২০২১

আরও খবর