Daily Sunshine

রাজশাহীতে আইনজীবীর সাথে প্রতারণার চেষ্টায় মামলা

Share

স্টাফ রিপোর্টার: রাজশাহীতে সিনিয়র জেল সুপারের পরিচয় দিয়ে আইনজীবীদের সঙ্গে প্রতারণার চেষ্টা করা হচ্ছে। এ নিয়ে রাজশাহী অ্যাডভোকেট বার সমিতির সাধারণ সম্পাদক পারভেজ তৌফিক জাহেদী থানায় মামলা করেছেন। রোববার (৯ মে) রাতে নগরীর রাজপাড়া থানায় মামলাটি করা হয়েছে।
আইনজীবী পারভেজ তৌফিক জাহেদী জানান, টানা ১০-১৫ দিন ধরে একটি প্রতারক চক্র রাজশাহীর আইনজীবী ও কারাগারে বন্দী থাকা আসামিদের স্বজনদের ফোন করছেন। প্রতারকরা বলছেন, আসামি কারাগারে মারামারি করেছে। শাস্তি হিসেবে দূরের কোন কারাগারে পাঠানোর উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। এটি ঠেকাতে হলে আইনজীবীরা যেন আসামির স্বজনদের এই নম্বরে যোগাযোগ করতে বলেন। এভাবে প্রতারণার চেষ্টা চালিয়ে আসছিল চক্রটি।
জাহেদী বলেন, ‘শুধু আইনজীবীদেরই নয়, নম্বর সংগ্রহ করে আমাদের মক্কেলদের আত্মীয়-স্বজনকেও ফোন করা হচ্ছে। দু’একজন প্রতারকদের কথা বিশ্বাস করে আসামিকে রাজশাহীতেই রাখতে বিকাশে টাকাও দিয়েছেন। কিন্তু আইনজীবীরা প্রতারিত হননি।’ তিনি বলেন, ‘আমাকে ফোন করে রাজশাহী কেন্দ্রীয় কারাগারের সিনিয়র জেল সুপার পরিচয় দেয়ার সময় প্রতারক তাঁর নাম গিয়াস উদ্দিন জানিয়েছে। তবে সিনিয়র জেল সুপার গিয়াস উদ্দিন সম্প্রতি বদলি হয়েছেন। এখন সিনিয়র জেল সুপার সুব্রত কুমার বালা। তাই আমি প্রতারণার চেষ্টার বিষয়টি সহজেই ধরতে পারি। এদের আইনের আওতায় আনতে থানায় মামলা করেছি।’
নগরীর রাজপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাজহারুল ইসলাম বলেন, ‘এটা বিকাশ প্রতারক চক্রের কাজ। তবে এর সঙ্গে আর কেউ জড়িত আছে কিনা সেটা তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। কারণ, আইনজীবীদের মোবাইল নম্বর পাওয়া সহজ হলেও আসামিদের স্বজনদের নম্বর পাওয়া কঠিন। এটি প্রতারকরা কীভাবে পাচ্ছে তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।চক্রের সদস্যদের আইনের আওতায় আনা হবে।’

মে ১১
০৪:৫১ ২০২১

আরও খবর