Daily Sunshine

চলে গেলেন গর্বিত মুক্তিযোদ্ধা নজরুল ইসলাম

Share

স্টাফ রিপোর্টার, বাঘা: এ পৃথিবীর সকল মায়া-মমতা ত্যাগ করে না ফেরার দেশে চলে গেলেন বাঘার বীর মুক্তিযোদ্ধা ও সাবেক গড়গড়ি ইউপি চেয়ারম্যান সমাজ সেবক নজরুল ইসলাম। সোমবার সকাল সাড়ে ৯ টায় হার্ট এ্যাটাক করে তিনি শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন। তাকে রাষ্ট্রীয় ভাবে সম্মানীত করা হয়।
মরহুমের জানাযায় তার আত্নার মাগফিরাত কামনা করে সকলের নিকট দোয়া চেয়ে মোবাইল ফোনের মাধ্যমে বক্তব্য রাখেন স্থানীয় সাংসদ ও পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম। তিনি বলেন, কুরান নাজিলের মাসে সবাইকে ছেড়ে পরকালে চলে গেলেন জাতীর শ্রেষ্ট সন্তান নজরুল ভাই। আমার জানামতে তিনি অত্যান্ত ভালো মানুষ ছিলেন। আমরা কে কোন দল করি সেটি বড় কথা নয়, আমি তার বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা করছি এবং তার শোকসপ্ত পরিবারের প্রতি সমাবেদজা জানিয়ে সকলের নিকট আবারও দোয়া প্রত্যাশা করছি।
সোমবার বিকেল সাড়ে ৫ টায় মরহুমের জানাযার নামাজ উপজেলার সরেরহাট হাইস্কুল মাঠে অনুষ্ঠিত হয়। এর আগে তাকে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন বাঘা উপজেলা সহকারী কমিশনার ভুমি কামাল হোসেন। এ সময় তাকে রাষ্টীয় মর্যদায় ভূষিত করে গার্ডঅব অনার প্রদান করেন বাঘা থানা পুলিশ। নজরুল ইসলামের বাড়ি পাশ্ববর্তী চাঁদপুর গ্রামে। তিনি ২৭ বছর গড়গড়ি ইউপি চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করেছেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬৮ বছর। তিনি এক স্ত্রী, দুই ছেলে ও দুই মেয়েসহ অসঙ্খ গুনগ্রাহী রেখে যান। রাজনৈতিক ভাবে তিনি রাজশাহী জেলা বিএনপির অন্যতম সদস্য এবং বাঘা উপজেলা বিএনপির যুগ্ম-আহবায়ক ছিলেন।
মরহুমের জানাযায় উপস্থিত হয়ে সৃষ্টি কর্তার নিকট দোয়া চাওয়াসহ তার পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞ্যাপন করে বক্তব্য রাখেন, অবসরপ্রাপ্ত লে. কর্নেল রমজান আলী, বাঘা উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও রাজশাহী জেলা আ’লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক এ্যাডভোকেট লায়েব উদ্দিন লাভলু। লালপুর উপজেলা চেয়ারম্যান এসাহক আলী, রাজশাহী জেলা বিএনপির আহবায়ক আবু সাইদ চাঁদ, বাঘা পৌর সভার সাবেক মেয়র আক্কাছ আলী, উপজেলা আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক আশরাফুল ইসলাম বাবুল, চারঘাট পৌর সভার সাবেক মেয়র জাকিরুল ইসলাম বিকুল, গড়গড়ি ইউপি চেয়ারম্যান ও আ’লীগ নেতা রবিউল ইসলাম রবি, রাজশাহী জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি রোকনুজ্জামান রিন্টু, বাঘা উপজেলা বিএনপির সাবেক সভাপতি অধ্যাপক অধ্যাপক জাহাঙ্গীর হোসেন, সাবেক সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম। জেলা বিএনপির সদস্য আনোয়ার হোসেন উজ্জল ও সাবেক মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আব্দুল খালেক। এদিকে মরহুমার মৃত্যুর খবর পেয়ে তার বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা করে দোয়া এবং পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম, বিএনপির যুগ্ম-মহাসচিব মির্জা ফকরুল ইসলাম, রাজশাহী মহানগর বিএনপির সভাপতি বুলবুল হোসেন, সাবেক সিটি মেয়র ও বিএনপি নেতা মিজানুর রহমান মিনু, সাবেক আড়ানী ইউপি চেয়ারম্যান তোজাম্মেল হক, সাবেক পাকুড়িয়া ইউপি চেয়ারম্যান ফকরুল ইসলাম বাবুলসহ আরো অনেকে। সবশেষে নিজ গ্রাম চাঁদপুর কেন্দ্রীয় গোরস্থানে তাকে সমাহিত করা হয়।

এপ্রিল ২০
০৩:৪০ ২০২১

আরও খবর