Daily Sunshine

বাগমারায় স্বাস্থবিধি মানাতে মাঠে উপজেলা প্রশাসন

Share

স্টাফ রিপোর্টার, বাগমারা: করোনা ভাইরাসের সংক্রামণ প্রতিরোধ স্বাস্থবিধি মানাতে মাছে কাজ করছে উপজেলা প্রশাসন। এরই ধারাবাহিকতায় বৃহস্পতিবার বেলা এগারোটায় ভবানীগঞ্জ বাজারে পথচারীদের মাঝে মাস্ক বিতরণ, ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা ও বাজার মনিটরিং করেছেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার শরিফ আহম্মেদ। বেলা এগারোটা থেকে প্রায় দুই ঘণ্টাব্যাপী ইউএনও শরিফ আহম্মেদ বাজারের বিভিন্ন অলিগলি ঘরে দেখেন এবং মাস্কবিহীন লোকজনের মাঝে মাস্ক বিতরণ করেন।
এ সময় তিনি মোটর সাইকেলে তিনজন যাত্রী বহন ও মাস্ক পরিধান না করা এবং স্বাস্থবিধি না মানায় বেশকিছু ব্যক্তি ও দোকানমালিককে জরিমানা আদায় করেন। পরে ইউএনও শরিফ আহম্মেদ বাজারের পট্রী ঘুরে পন্যমূল্য স্থিতিশীল রয়েছে কিনা তা মনিটরিং করেন এবং যে সমস্ত দোকানে পন্যের মূল্য টাঙ্গানো হয়নি তাদেরকে পন্যমূল্য টাঙ্গানোর নির্দেশনা প্রদান করেন।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন কৃষি কর্মকর্তা রাজিবুর রহমান, প্রানী সম্পদ কর্মকর্তা মাহাবুর রহমান, খাদ্য কর্মকর্তা মোহাম্মাদ আলী, মৎস কর্মকর্তা রবিউল করিম, সমাজ সেবা কর্মকর্তা আব্দুল মুমিন ও ভবানীগঞ্জ সরকারি বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল মজিদ ও ছাত্রলীগে নেতা নাহিদ হোসেন।

এপ্রিল ০৯
০৪:৫৭ ২০২১

আরও খবর

Subcribe Youtube Channel

বিশেষ সংবাদ

কী বন্ধ, কী খোলা জেনে নিন

কী বন্ধ, কী খোলা জেনে নিন

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বৃদ্ধির প্রেক্ষাপটে ১৪ এপ্রিল থেকে ২১ এপ্রিল পর্যন্ত দেশের সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকছে, বন্ধ থাকছে যানবাহনও। বিধি-নিষেধ থাকছে সার্বিক কার্যাবলী ও চলাচলেও। সোমবার মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে। বন্ধ থাকছে: সকল সরকারি, আধা-সরকারি, স্বায়ত্তশাসিত ও বেসরকারি অফিস/আর্থিক প্রতিষ্ঠান। সকল প্রকার পরিবহন (সড়ক, নৌ, রেল, অভ্যন্তরীণ

বিস্তারিত




এক নজরে

আমাদের সাথেই থাকুন

চাকরি

টিকা কার্ড নিয়ে যাতায়াত করা যাবে

টিকা কার্ড নিয়ে যাতায়াত করা যাবে

করোনাভাইরাস পরিস্থিতির অবনতির কারণে ১৪ এপ্রিল সকাল ৬টা থেকে ২১ এপ্রিল মধ্যরাত পর্যন্ত বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। তবে এ সময়ে টিকা কার্ড নিয়ে টিকা গ্রহণের জন্য যাতায়াত করা যাবে বলে জানানো হয়েছে। সোমবার (১২ এপ্রিল) মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে। এতে বলা হয়েছে, অতি জরুরি প্রয়োজন

বিস্তারিত