Daily Sunshine

স্বামীর নির্যাতনের প্রতিকার দাবি স্ত্রীর

Share

স্টাফ রিপোর্টার: চাঁপাইনবাবগঞ্জের জেলা পরিষদের চেয়ারম্যানের গাড়ির চালক ইকবালের মাদক ব্যবসা ও অনিয়মের অভিযোগ এনে সংবাদ সম্মেলন করেছেন ইকবালের বড় স্ত্রী লাইলা বেগম। রবিবার রাজশাহীর মতিহার থানাধীন কাজলায় এই সংবাদ সম্মেলন করেন ইকবালের স্ত্রী লাইলা বেগম।
তিনি লিখিত বক্তব্যে বলেন, ১৭ বছর পূর্বে রাজশাহীর কাশিয়াডাংগা থানার বিদ্দির পাঠান মহল্লার আফজালের ছেলে ইকবালের সাথে তার পারিবারিক ভাবে বিয়ে হয়। আর বিয়ের পর লাইলা বেগম জানতে পারেন ইকবাল মাদকাসক্ত। লাইলা বেগম মাদক থেকে ফিরে আসার জন্য ইকবালকে একাধিক বার অনুরোধ করলেও ইকবাল তার স্ত্রীর কথার কোন কর্ণপাত করেন না।
লাইলা বেগম কান্না জড়িত কন্ঠে বলেন চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মঈনুদ্দিন মন্ডল এর ছত্র ছায়াতেই ইকবাল মাদকসহ বিভিন্ন অনিয়মের সাথে জড়িয়ে পড়েছে। এরই মাঝে ইকবাল অন্ধকার জগতে পা রেখে তিনটি বিলাস বহুল গাড়ি ও কোটি টাকার জমি ক্রয় করেছেন। এই নিয়ে লাইলা বেগম পুনরায় প্রতিবাদ করলে ইকবাল লায়লা বেগমকে বাড়াবাড়ি না করার জন্য আবারো শাসিয়ে দেন। লায়লা বেগম জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মঈন উদ্দিন মন্ডলকে লিখিত ভাবে ইকবালের বিষয় নিয়ে অভিযোগ করেন। তার পরেও চেয়ারম্যান ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা এনামুল হক ইকবালের বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা গ্রহণ করেন নাই।
লাইলা বেগম ইকবালের অনিয়মের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা সহ নিজের উপর নির্যাতনের প্রতিকার চেয়ে প্রধানমন্ত্রীর নিকট একটি লিখিত অভিযোগ করেন। এর পরেও ইকবাল চালিয়ে যায় তার সকল অপরাধ জগতের কার্যক্রম। পরে চলতি বছরের ৩০ জানুয়ারী রাজশাহীর কাশিয়াডাংগা থানায় ইকবালের নামে একটি জিডি করেন লাইলা বেগম। তিনি বলেন জিডি করার পর থেকে জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মঈনুদ্দিন মন্ডল তার পরিষদের সকল কে নির্দেশনাদেন যেন ইকবালের বিষয়ে কেউ কোন অভিযোগ না করেন। চেয়ারম্যানের নির্দেশনা পেয়ে ইকবাল আরো বেশী বেপরোয়া হয়ে উঠেছে।
এদিকে ইকবাল চাঁপাইনবাবগঞ্জের এক হিন্দু ধর্মীয় মেয়েকে গোপনে বিয়ে করে সেটি ও প্রকাশ্যে নিয়ে আসেননি। লাইলা বেগম বলেন চাঁপাই নবাবগঞ্জে জেলা পরিষদের ডাকবাংলাতে থাকা কালিন সময়ে চেয়ারম্যান মঈনুদ্দিন মন্ডল ইকবালের সাথে একই রুমে বসে মদ সেবন করত। সেখানে রান্নার কাজ করতেন লাইলা বেগম। ইকবাল এখন মাদক সম্রাট হয়ে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে নিজের গাড়িতে মাদক বহন করে কোটিপতি বনে যাওয়ার যে ঘটনার জন্ম দিয়েছে সেটির তদন্ত পূর্বক ব্যবস্থা গ্রহনের দাবি জানান তিনি। ইকবালের ভয়ংকর সব পরিকল্পনা থেকে রেহাই পেতে কিছুদিন ধরে দুইটি সন্তান নিয়ে অন্যজায়গায় থাকেন লাইলা বেগম। ইকবালের যে কোন অনিয়ম প্রকাশ্যে সাপোর্ট করার বিষয় নিয়ে চেয়ারম্যান কেই দায়ি করেন লাইলা বেগম। একজন গাড়ির চালক রাতারাতি কোটিপতি বনে যাওয়ার গল্প যেন অনেক কাহিনীকেই থামিয়ে দেয়। সেই জেলাপরিষদে চাকরি দেওয়ার নামকরে টাকা পয়সা উৎকোচ নেওয়ার অভিযোগ উঠে এই ইকবালের নামে। সেটি নিয়ে বিচার শালিসও হয়। অজ্ঞাত কারণে চেয়ারম্যান কোন পদক্ষেপ গ্রহণ করেন নাই। এই ইকবালসহ তার পেছনে থাকা অপশক্তির বিরুদ্ধে দ্রুত আইনগত ব্যবস্থা গ্রহনের দাবি করেন লাইলা বেগম।

এপ্রিল ০৫
০৬:৪৯ ২০২১

আরও খবর

Subcribe Youtube Channel

বিশেষ সংবাদ

চিকিৎসক-পুলিশের পাল্টা বিবৃতি, হাইকোর্টের ক্ষোভ

সানশাইনডক্সে: চলমান লকডাউনে রাস্তার ‘মুভমেন্ট পাস’ নিয়ে চিকিৎসক, ম্যাজিস্ট্রেট ও পুলিশের বাগবিতণ্ডার ঘটনায় দুই পেশাজীবী সংগঠনের পাল্টাপাল্টি বিবৃতিতে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন হাইকোর্ট। আদালত বলেছেন, ওই ঘটনায় সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের পাল্টাপাল্টি বিবৃতি দেয়া সমীচীন হয়নি। তাদের এমন আচরণ অনাকাঙ্ক্ষিত। সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের কাছে এমন আচরণ কাম্য নয়। মঙ্গলবার (২০ এপ্রিল) হাইকোর্টের বিচারপতি এম.

বিস্তারিত




এক নজরে

আমাদের সাথেই থাকুন

চাকরি

টিকা কার্ড নিয়ে যাতায়াত করা যাবে

টিকা কার্ড নিয়ে যাতায়াত করা যাবে

করোনাভাইরাস পরিস্থিতির অবনতির কারণে ১৪ এপ্রিল সকাল ৬টা থেকে ২১ এপ্রিল মধ্যরাত পর্যন্ত বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। তবে এ সময়ে টিকা কার্ড নিয়ে টিকা গ্রহণের জন্য যাতায়াত করা যাবে বলে জানানো হয়েছে। সোমবার (১২ এপ্রিল) মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে। এতে বলা হয়েছে, অতি জরুরি প্রয়োজন

বিস্তারিত