Daily Sunshine

হারের বৃত্তেই বাংলাদেশ

Share

স্পোর্টস ডেস্ক: ওয়ানডে সিরিজে হারের ক্ষত এখনও শুকোয়নি। সে হারের বিস্বাদ ঝুলিতে নিয়ে দেশে ফিরে এসেছেন ওয়ানডে ক্যাপ্টেন তামিম ইকবাল। এবার টি-টোয়েন্টি সিরিজটাও হাতছাড়া হলো। অর্থাৎ তাজা ক্ষতটা আরও দগদগে হলো। ওয়ানডের মতোই টি-টোয়েন্টিতেও এক ম্যাচ হাতে রেখেই হারের তিক্ততা হজম করলো মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের দল।
নেপিয়ারে টসে জিতে স্বাগতিক নিউজিল্যান্ডকে ব্যাট করার আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন কাপ্তান মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। অধিনায়কের সিদ্ধান্ত যে সঠিক ছিল, সেটি প্রমাণ করতে বেশি সময় নেননি মোস্তাফিজের জায়গায় দলে ডাক পাওয়া তাসকিন আহমেদ। শুরুতেই দলীয় ৩৬ রানে ব্যক্তিগত ১০ বলে ১৭ রান করা ফিন অ্যালেনকে সাজঘরে ফেরান এই পেসার।
এরপর জোড়া আঘাত হানেন সাইফুদ্দিন ও শরিফুল। ষষ্ঠ ওভারের শেষ বলে তাসকিনের চোখ ধাঁধানো এক ক্যাচে ১৮ বলে ২১ রান করা গাপটিলকে তুলে নেন সাইফুদ্দিন। মাত্র এক বলের ব্যবধানে সপ্তম ওভারের শুরুতেই প্রথম ম্যাচে ৯২ রানের ইনিংস খেলা ডেভন কনওয়েকে এদিন ১৫ রানের বেশি করতে দেননি শরিফুল। মিঠুনের তালুবন্দি হয়ে ফিরেন এই উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান।
৫৫ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে ধুকতে থাকা কিউই শিবিরে বিষ ঢেলে দেয় মেহেদি হাসানের স্পিন। আগের ম্যাচের হাফসেঞ্চুরিয়ান উইল ইয়ংকে লিটন দাসের হাতে কট বিহাইন্ড করে সাজঘরে ফেরত পাঠান মেহেদি। দলীয় ৯৪ রানে মাত্র ১৪ রানে থামে ইয়ংয়ের ইনিংস। এরপর ১১১ রানের মাথায় মার্ক চ্যাপম্যানকে নিজের দ্বিতীয় শিকারে পরিণত করেন এই স্পিনার।
তখন ম্যাচের ১৩.৪ ওভার গড়িয়ে গেছে। ১১১ রানে প্রতিপক্ষের ৫ উইকেট তুলে নিয়েছে বোলাররা। কিন্তু এরপরই খেই হারালো বাংলাদেশ। ষষ্ঠ উইকেট ঝুটিতে ব্যাট হাতে ঝড় তোলেন গ্লেন ফিলিপস ও ড্যারেল মিচেল। ফিলিপস ৩১ বলে ৫৮ ও মিচেল ১৬ বলে ৩৪ রান করেন। ২৫ বলে অবিচ্ছিন্ন থেকে ৬২ রানের জুটি গড়েন এ দুই কিউই ব্যাটসম্যান। বৃষ্টিবাধায় কিউইদের ইনিংসের শেষ ১৩ বলে মাঠে গড়ায়নি। ফলে ১৭.৫ ওভারে স্বাগতিকদের সংগ্রহ দাঁড়ায় ৫ উইকেটে ১৭৩ রান।
এরপর বৃষ্টি আইনে শুরুতেই বাংলাদেশ ১৬ ওভারে ১৪৮ রানের লক্ষ্য জেনে ব্যাট করতে নামলেও ১.৩ ওভার পরে জানতে পারে ওভার ঠিক থাকলেও জয়ের জন্য লক্ষ্যটা বেঁধে দেয়া হয়েছে ১৭০ রানের। ওভারপ্রতি তুলতে হবে ১০ রানেরও বেশি। এমন চ্যালেঞ্জ নিতে গিয়ে ৫ বলে ৬ রান করে শুরুতেই ফিরে যান টানা চার ম্যাচে ফ্লপ লিটন দাস।
এরপর আরেক অপেনার নাঈমকে নিয়ে ৮১ রানের জুটি গড়েন সৌম্য। ১৫ বলে ৪০, ফিফটি করলেন ২৫ বলে। ৫২টি টি-টোয়েন্টি খেলা সৌম্য সরকারের এই সংস্করণে ক্যারিয়ারে এটি তৃতীয় ফিফটি। ৫টি বাউন্ডারি ও ৩টি ছক্কায় ২৭ বলে ৫১ রান করেন তিনি। টিম সাউদির বলে ক্যাচ তুলে সৌম্য সাজঘরে ফেরার পর বাংলাদেশও পথ হারায়।
৩৫ বলে ৩৮ রান করা সেট ব্যাটসম্যান নাঈম শেখ বিদায় নেন ফিলিপসের বলে। ১৪তম ওভারে মাহমুদউল্লাহ (১২ বলে ২১ রান) ও আফিফ হোসেনকে (৪ বলে ২ রান) জোড়া শিকারে পরিণত করেন অ্যাডাম মিলনে। পরের ওভারেই মোহাম্মদ মিঠুনকে তুলে নেন টিম সাউদি। ৬ বলে ৩ রান করে বেনেটের শিকার হন সাইফুদ্দিন। মেহেদি ৬ বলে ১২ রান নিয়ে অপরাজিত থাকেন। ব্যাটে বলে দুর্দান্ত পারফর্ম করে ম্যাচসেরা হন গ্লেন ফিলিপস। আগামী ১ এপ্রিল অকল্যান্ডে সিরিজের তৃতীয় তথা শেষ ম্যাচ দিয়ে নিউজিল্যান্ড সফর শেষ করবে বাংলাদেশ। ম্যাচটি শুরু হবে বাংলাদেশ সময় দুপুর ১২টায়।

মার্চ ৩১
০৬:০৯ ২০২১

আরও খবর

Subcribe Youtube Channel

বিশেষ সংবাদ

কী বন্ধ, কী খোলা জেনে নিন

কী বন্ধ, কী খোলা জেনে নিন

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বৃদ্ধির প্রেক্ষাপটে ১৪ এপ্রিল থেকে ২১ এপ্রিল পর্যন্ত দেশের সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকছে, বন্ধ থাকছে যানবাহনও। বিধি-নিষেধ থাকছে সার্বিক কার্যাবলী ও চলাচলেও। সোমবার মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে। বন্ধ থাকছে: সকল সরকারি, আধা-সরকারি, স্বায়ত্তশাসিত ও বেসরকারি অফিস/আর্থিক প্রতিষ্ঠান। সকল প্রকার পরিবহন (সড়ক, নৌ, রেল, অভ্যন্তরীণ

বিস্তারিত




এক নজরে

আমাদের সাথেই থাকুন

চাকরি

টিকা কার্ড নিয়ে যাতায়াত করা যাবে

টিকা কার্ড নিয়ে যাতায়াত করা যাবে

করোনাভাইরাস পরিস্থিতির অবনতির কারণে ১৪ এপ্রিল সকাল ৬টা থেকে ২১ এপ্রিল মধ্যরাত পর্যন্ত বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। তবে এ সময়ে টিকা কার্ড নিয়ে টিকা গ্রহণের জন্য যাতায়াত করা যাবে বলে জানানো হয়েছে। সোমবার (১২ এপ্রিল) মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে। এতে বলা হয়েছে, অতি জরুরি প্রয়োজন

বিস্তারিত