Daily Sunshine

বাগমারায় বদলেছে ভূমি অফিসের চিত্র, হয়রানী ছাড়াই মিলছে সেবা

Share

মাহফুজুর রহমান প্রিন্স, বাগামারা: একদা যে অফিসের নাম শুনলে সেবা প্রত্যাশিরা আঁতকে উঠতো হয়রানীর ভয়ে। না জানি কতইবা হয়রানী হতে হবে। আর কতই বা অর্থ ব্যয় এবং স্যানডেলের তলা ক্ষয় করতে হবে এ ভেবে সেবা প্রত্যাশিরা সর্বদাই ছিল শংকিত। তারপরও উপায়হীন হয়ে নানাবিধ কাজ নিয়ে ওই অফিসটিতে নিরুপায় হয়ে তাদের যেতে হত। হালে এ অবস্থার পরিবর্তন ঘটেছে। বাগমারা এসিল্যান্ড অফিস এখন নবরুপে সজ্জিত হয়ে সম্পূর্ণ ঘুষ-দুর্নীতি মুক্তভাবে উপজেলা ব্যাপি সকল সেবা প্রত্যাশিদের সেবা দিয়ে যাচ্ছেন অফিসের সকল কর্মকর্তা কর্মচারীরা।
বিভিন্ন সেবা প্রত্যাশি ও অফিসে কর্মরতদের সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার এ অফিসটিতে আগে সেবার নামে গ্রাহক হয়রানী ছিল নিত্যনৈমিত্তিক ব্যাপার। তবে এখন এ চিত্র সম্পূর্ণই পাল্টে গেছে। নবাগত সহকারি কমিশনার ভূমি (এসিল্যান্ড) মাহমুদুল হাসানের যোগদানের পর থেকেই অফিসটি গ্রাহক সেবা কেন্দ্রীক হয়ে ওঠতে শুরু করেছে। প্রতিদিন এ অফিসে উপজেলার ১৬ টি ইউনিয়নের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে সেবা প্রত্যাশিদের আসতে হয় এই অফিসটিতে। এখানে সেবা জন্য দুটি হেল্প ডেস্ক খোলা হয়েছে। কী শিক্ষিত কী অশিক্ষিত সকল সেবা প্রত্যাশিরা ওই ডেস্ক এ গিয়ে তাদের সমস্যার কথা জানাতে পারেন। পরে তাদের সমস্যার বিষয়গুলো লিখিত বা আবেদন আকারে তৈরি করে পাঠানো হয় সংশ্লিষ্ট বিভাগে। এর পর তাদেরকে একটি ডেট দেওয়া হয় এবং নেওয়া হয় তাদের মোবাইল নম্বার। এ প্রক্রিয়ায় গ্রাহকের কাজের অগ্রগতি সম্পর্কে তাদের অবহিত করা হয়।
জমি সংক্রান্ত যাবতীয় সেবা ও তথ্য এ অফিসে থেকে প্রদান করা হয়। নামজারি বা খরিজ, মিসকেসের বিবিধ মামলা পরিচালনার মাধ্যমে বিভিন্ন বিষয়ে প্রতিকার প্রদান, কৃষি খাস জমি বন্দোবস্ত, অকৃষি খাস জমি বন্দোবস্ত, হাটবাজারের একসনা লাইসেন্স নবায়ন, জলমহাল ইজারা, আশ্রায়ন, আবাসন, আদর্শ গ্রাম ও গুচ্ছগ্রাম প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে ভুমিহীনদের পূর্নবাসন, অর্পিত সম্পত্তি লীজ নবায়ন, পুরাতন নামজারি কেসের অনুমোদিত খতিয়ান প্রদান ও মিসকেসের আদেশের জাবেদা নকল প্রদানসহ বিবিধ বিষয়ে সেব প্রদান করে থাকে অফিসটি। এর আগে করোনাকালে এ অফিসের সকল কর্মকর্তাকর্মচারী মিলে দিনরাত অক্লান্ত পরিশ্রম করে উপজেলা ব্যাপি সরকারি তথ্য ও সেবা প্রদান করেছেন।
মাড়িয়ার কৃষক লুৎফর রহমান জানান, বাগমারা এসিল্যান্ড অফিস আর আগের মত নেই। এখানে এখন সব ধরনের সেবা পেতে কোন হয়রানী বা ঝামেলায় পড়তে হয়না। কর্মকর্তাসহ সকল কর্মচারীর ব্যবহারও সন্তোষজনক বলে তিনি মন্তব্য করেন। একই অভিমত ব্যক্ত করেছেন হামিরকুৎসার এক ইউপি সদস্য মঞ্জুরুল ইসলাম মন্টু।
তিনি জানান, সরকার নির্দারিত ফি দিয়ে তিনি কিছু জমি খারিজ করেছেন। আটাশ দিনের মধ্যেই তিনি ওই কাজ গুলো বুঝে পেয়েছেন। অফিসের এ গতিশীল ও হয়রানীমুক্ত পরিবেশ পেয়ে তিনি সন্তোষ প্রকাশ করেছেন।
তিনি দাবী করেছেন যেন এ পরিবেশ সবসময় বজায় থাকে। এসব বিষয়ে জানতে চাইলে সহকারি কমিশনায় (ভূমি) মাহমুদুল হাসান জানান, অফিসকে আরো গতিশীল ও পরিচ্ছন্ন করার কাজ এখনও বাকি আছে। তিনি আরো বলেন শুধু এ অফিস নয় উপজেলার আরো ৭টি ইউনিয়ন ভুমি অফিসকে আমরা জনগনের সেবার প্রানকেন্দ্র রুপে তৈরি করতে চাই। তিনি এসব কাজে বর্তমান ইউএনও শরিফ আহম্মেদ ও পূর্বের ইউএনও (বর্তমানে চাঁপাইনবাগঞ্জের এডিসি) জাকিউল ইসলামের ঐকান্তিক প্রচেষ্ঠা ও সহযোগিতার কথা কৃতজ্ঞতাচিত্তে স্মরণ করে তাদের ধন্যবাদ জানান।

জানুয়ারি ২৮
০৫:৪৪ ২০২১

আরও খবর

বিশেষ সংবাদ

প্রাণ ফিরে পাচ্ছে রাবির টুকিটাকি চত্বর

প্রাণ ফিরে পাচ্ছে রাবির টুকিটাকি চত্বর

স্টাফ রিপোর্টার ,রাবি: টুকিটাকি চত্বর। রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের চিরপরিচিত একটি চত্বর। প্রায় ৩৫ বছর আগে বিশ্ববিদ্যালয়টির লাইব্রেরি চত্বরে ‘টুকিটাকি’ নামের ছোট্ট একটি দোকান চালু হয়। খুব অল্প সময়ের মধ্যেই বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের মুখে মুখে টুকিটাকি নামটি ছড়িয়ে পড়ে। দোকানটি ভীষণ জনপ্রিয়তা পায়। ফলে সবার অজান্তেই একসময় লাইব্রেরি চত্বরটির নাম হয়ে যায়

বিস্তারিত




এক নজরে

আমাদের সাথেই থাকুন

চাকরি

আসছে ৫৫ হাজার শিক্ষক নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি

আসছে ৫৫ হাজার শিক্ষক নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি

সানশাইন ডেস্ক : মান্থলি পেমেন্ট অর্ডারভুক্ত (এমপিও) শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ৫৫ হাজার শিক্ষক নিয়োগ দেওয়া হবে। শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অনুমতি পেলে চলতি মাসেই গণবিজ্ঞপ্তি জারি করতে পারে বেসরকারি শিক্ষক নিবন্ধন ও প্রত্যয়ন কর্তৃপক্ষ (এনটিআরসিএ)। এনটিআরসিএ সূত্রে জানা গেছে, সারা দেশের এমপিওভুক্ত স্কুল-কলেজ, মাদরাসা ও কারিগরি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের প্রায় ৫৭ হাজার ৩৬০টি শূন্য পদের তালিকা

বিস্তারিত