Daily Sunshine

৩ হাজার ৫৫৫ হেক্টরে মুড়িকাটা পেঁয়াজ ২ সপ্তাহের মধ্যে আমদানি, কমবে দাম

Share

আবু সাঈদ রনি : ছোট পেঁয়াজ বীজ হিসেবে জমিতে রোপণ করা হয় বলে স্থানীয়ভাবে এটাকে মুড়িকাটা পেঁয়াজ বলা হয়। মুড়িকাটা পেঁয়াজ পাতাসহ বিক্রি করা হয়। একে কালি বা পাতাপেঁয়াজ বলা হয়। কালিকাটার পরে বা পাতা খাওয়ার উপযোগী না থাকলে পাতা কেটে শুধু পেঁয়াজ বিক্রি করা হয়। রাজশাহীতে এবছর ব্যাপক মুড়িকাটা পেঁয়াজের চাষ হয়েছে। আগামী ২ সপ্তাহের মধ্যেই বাজারে আসবে এই পেঁয়াজ। ফলে আমদানি হলে পেঁয়াজের দাম কমবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন সংশ্লিষ্টরা।
মুড়িকাটা পেঁয়াজ চাষ লাভজনক হওয়ায় কৃষকরা এটি চাষের প্রতি ঝুঁকছেন। অন্যান্য বছর পাতাসহ পেঁয়াজ বিক্রি হয়েছে ৮০ থেকে ১০০ টাকা কেজিতে। কিন্তু এবছর অনেকটা কম দামে বিক্রি করতে হতে পারে বলে ধারণা করছেন কৃষকরা।
চলতি বছর দফায় দফায় বন্যায় রাজশাহী অঞ্চলে আবাদ মৌসুম কিছুটা পিছিয়েছে। বছরের সেপ্টেম্বর থেকে চলতি নভেম্বর পর্যন্ত এ পেঁয়াজ রোপণ করা হচ্ছে। সেপ্টেম্বরের শুরুতে রোপণ করা পেঁয়াজ এ মাসের শেষের দিকে বাজারে আসবে। এরই সাথে রাজশাহীর পেঁয়াজ উৎপাদন লক্ষ্যমাত্রা পূরণ হবে বলে জানিয়েছে রাজশাহী কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর।
রাজশাহী কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের তথ্যানুযায়ী, চলতি ২০২০-২১ অর্থবছরে ১৭ হাজার ৯৯৩ হেক্টর জমিতে ৩ লাখ ৩০ হাজার মেট্রিক টন পেঁয়াজ উৎপাদন লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে। এর মধ্যে মুড়িকাটা পেঁয়াজ ৩ হাজার ৫৫৫ হেক্টর জমিতে চাষ করা হয়েছে। জেলার মোহনপুর, তানোর, চারঘাট, বাগমারাসহ সবকটি উপজেলার বেশিরভাগেই এ পেঁয়াজ চাষ হয়েছে। জেলায় পেঁয়াজের চাহিদা মাত্র ৬০ থেকে ৬৫ হাজার মেট্রিক টন। প্রায় ২ লাখ ৬৫ হাজার টন পেঁয়াজ উদ্বৃত্ত থাকবে বলেও জানায় কৃষি বিভাগ।
কৃষকরা জানান, ২০ দিনের মধ্যে এই পেঁয়াজ বাজারে আসবে। মুড়িকাটা পেঁয়াজ বাজারে আসলে পেঁয়াজের দাম কমবে। যেহেতু পুরাতন পেঁয়াজ ৮০-৮৫ টাকা কেজি, সেহেতু এই কাঁচা পেঁয়াজ বেশি দামে কেউ কিনবে না।
জেলার অনেক কৃষক মুড়িকাটা পেঁয়াজ চাষ করে স্বাবলম্বী হয়েছে। অন্যান্য বছরের তুলনায় বেশি দামে বীজ কিনতে হয়েছে। তারপরেও ভালো দামের আশা করছেন তাঁরা। কৃষি বিভাগ থেকে পেঁয়াজ বীজ চাষিদের প্রয়োজনীয় পরামর্শ দিয়ে সহযোগিতা করা হচ্ছে। এ বছর মুড়িকাটা পেঁয়াজের ফলন ভাল আশা করছেন সংশ্লিষ্টরা।
রাজশাহী জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক শামছুল হক জানান, ২০২০-২১ অর্থবছরে পেঁয়াজ চাষের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে ১৭ হাজার ৯৯৩ হেক্টর জমিতে। এরমধ্যে মুড়ি কাটা পেঁয়াজ ৩ হাজার ৫৫৫ হেক্টর জমিতে চাষ করা হয়েছে। পেঁয়াজের ভালো দাম পাওয়ায় এ বছর পেঁয়াজ চাষে আগ্রহ দেখাচ্ছেন চাষিরা।
তিনি বলেন, মুড়িকাটা পেঁয়াজ কৃষকরা আবাদ করছে। মুড়িকাটা পেঁয়াজ বাজারে উঠলে পেঁয়াজের দাম কমে যাবে। ১৫ দিনের মধ্যে মুড়িকাটা পেঁয়াজ বাজারে উঠবে। নতুন পেঁয়াজ বাজারে আসলে ৪০-৪৫ টাকা কেজি দরে বিক্রি হবে পেঁয়াজ। কৃষি বিভাগ থেকে কৃষকদের প্রয়োজনীয় সহযোগিতা করা হচ্ছে। এরপরে হবে দানা পেঁয়াজের চাষ।

নভেম্বর ২০
০৬:৩৩ ২০২০

আরও খবর

পত্রিকায় যেমন

বিশেষ সংবাদ

শীতের আমেজে আহা…ভাপা পিঠা

শীতের আমেজে আহা…ভাপা পিঠা

রোজিনা সুলতানা রোজি : প্রকৃতিতে এখন হালকা শীতের আমেজ। এই নাতিশীতোষ্ণ আবহাওয়ায় ভাপা পিঠার স্বাদ নিচ্ছেন সবাই। আর এই উপলক্ষ্যটা কাজে লাগচ্ছেন অনেক ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী। লোকসমাগম ঘটে এমন মোড়ে ভাপা পিঠার পসরা সাজিয়ে বসে পড়ছেন অনেকেই। ভাসমান এই সকল দোকানে মৃদু কুয়াশাচ্ছন্ন সন্ধ্যায় ভিড় জমাচ্ছেন অনেক পিঠা প্রেমী। রাজশাহীর বিভিন্ন

বিস্তারিত




এক নজরে

আমাদের সাথেই থাকুন

চাকরি

ইউএনডিপিতে চাকরির সুযোগ

ইউএনডিপিতে চাকরির সুযোগ

সানশাইন ডেস্ক: ইউনাইটেড ন্যাশনস ডেভেলপমেন্ট প্রোগ্রাম (ইউএনডিপি) বাংলাদেশে বিভিন্ন প্রোগ্রামে কর্মকর্তা নিয়োগ দেবে। এসব পদে আবেদনের বিস্তারিত পাওয়া যাবে https://www.bd.undp.org/content/bangladesh/en/home/jobs.html লিংকে। পদগুলো হলো- ১. ন্যাশনাল কনসালট্যান্ট-ন্যাশনাল জিআইএস এক্সপার্ট ২. বিজনেস অ্যান্ড হিউম্যান রাইটস স্পেশালিস্ট ৩. কমিউনিকেশনস অ্যান্ড অ্যাডভোকেসি অফিসার ৪. প্রোগ্রাম সাপোর্ট ইন্টার্ন, ইউএনডিপি কান্ট্রি অফিস ৫. ইনক্লুসিভ ডিজিটাল ইকোনমি কনসালট্যান্ট

বিস্তারিত