Daily Sunshine

বয়স্ক ভাতার কার্ড পেলেন সেই শুনীতি

Share

স্টাফ রিপোর্টার : রাজশাহীর বাগমারার ওরাওঁ সম্প্রদায়ের একমাত্র বয়স্কা নারী শুনীতি রাণী (৬৩) অবশেষে বয়স্ক ভাতার বই হাতে পেলেন। বৃদ্ধার বাড়িতে ছুটে এসে বয়স্কভাতার কার্ড তুলে দেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) শরিফ আহম্মেদ।
এর আগে তাঁকে উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে সহযোগিতাও করা হয়। মেহমান হিসাবে ইউএনও-সহ উপজেলা পর্যায়ের বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তাদের পেয়ে আনন্দে কেঁদে ফেলেন শুনীতি রাণী।
গত ৪ নভেম্বর দৈনিক সানশাইনে ‘ভাতা না পেয়ে শুনীতি রাণীর কষ্টের জীবন’ শিরোনামে একটি সংবাদ প্রকাশিত হয়। সংবাদে শুনীতি রাণীর বয়স্ক ও বিধবা ভাতা না পাওয়া এবং দুর্দশার চিত্র ফুটে ওঠে। সংবাদটি প্রকাশের পরেই স্থানীয় লোকজন তাঁদের ফেসবুকে শেয়ার করেন; প্রচারণা চালান। ওই দিনই সংবাদটি বাগমারা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নজরে আসে। পরের দিন তিনি দপ্তরের লোকজন পাঠিয়ে শুনীতি রানীর খোঁজখবর নেন। তাঁর বিষয়ে জানার পর তাঁকে নিজ দপ্তরে ডেকে পাঠান। তৃতীয় লিঙ্গের এক প্রতিবেশির সহযোগিতায় গত ৫ নভেম্বর ইউএনও’র দপ্তরে আসেন শুনীতি রাণী। ইউএনও এক বস্তা বিভিন্ন ধরণের খাদ্য সামগ্রী ছাড়াও নগদ দুই হাজার টাকা তুলে দেন শুনীতি রাণীর হাতে। ভ্যানে করে তাঁকে বাড়িতে পৌঁছে দেওয়ার ব্যবস্থা করে দেন ইউএনও।
ওই দিনই শুনীতি রানীর বয়স্ক ভাতার কার্ডের জন্য জাতীয় পরিচয়পত্রের ফটোকপি, তাঁর ও নমিনির পাসপোর্ট আকারের ছবি সংগ্রহ করা হয়। ব্যাংক হিসাব চালুসহ বিভিন্ন দাপ্তরিক প্রক্রিয়া শেষে সোমবার (৯ নভেম্বর) বিকেলে ভাতার বই হস্তান্তর করা হয়। শুনীতি রাণীকে নিজ দপ্তরে আমন্ত্রণ জানানো হয়। তবে অসুস্থ থাকার কারণে তিনি যেতে পারেননি। বিষয়টি জানার পর ইউএনও তাঁর দপ্তরের কর্মকর্তাদের নিয়ে বৃদ্ধার বাড়িতে ছুটে যান। অতিথি হিসাবে ইউএনওসহ সরকারি কর্মকর্তাদের পেয়ে কেঁদে ফেলেন শুনীতি রাণী। তাঁর বাড়িতেই আনুষ্ঠানিকভাবে উপহার হিসেবে ভাতার বই হাতে তুলে দেওয়া হয়।
এসময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অনিল কুমার সরকার, প্রকৌশলী সানোয়ার হোসেন, প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মাসুদুর রহমান ও সমাজসেবা কর্মকর্তা আবদুল মমিন।
ইউএনও শরিফ আহম্মেদ বলেন, গনমাধ্যমের মাধ্যমে বিষয়টি তাঁর নজরে এসেছে। বয়স্কভাতার তালিকাভুক্ত করা হলো। এছাড়াও বিভিন্ন সমস্যায় শুনীতির পাশে উপজেলা প্রশাসন থাকবে বলে জানান এই কর্মকর্তা।
উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা আবদুল মমিন জানান, গত জুলাই মাস থেকে শুনীতি ভাতার সুবিধা পাবেন। এখন থেকে প্রতিমাসে তিনি ৫০০ টাকা করে ভাতা পাবেন।
জানা যায়, উপজেলা সদর ভবানীগঞ্জে বসবাস ওরাওঁ সম্প্রদায়ের এই নারীর। স্বামী মারা গেছেন এক যুগ আগে। এরপর থেকে তিনি ভবানীগঞ্জ বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের পেছনে একটি খুপরিতে বসবাস করছেন শুনীতি। হাট-বাজার ঝাড়ু দিয়ে ও মাছের আড়তে পরিচ্ছন্নতার কাজ করে কোনোরকম জীবনযাপন করে আসছেন তিনি। সরকার বয়স্ক ও বিধবা ভাতা চালু করলেও এই বৃদ্ধা ছিলেন বঞ্চিত।

নভেম্বর ১০
০৭:১৯ ২০২০

আরও খবর

পত্রিকায় যেমন

বিশেষ সংবাদ

শীতের আমেজে আহা…ভাপা পিঠা

শীতের আমেজে আহা…ভাপা পিঠা

রোজিনা সুলতানা রোজি : প্রকৃতিতে এখন হালকা শীতের আমেজ। এই নাতিশীতোষ্ণ আবহাওয়ায় ভাপা পিঠার স্বাদ নিচ্ছেন সবাই। আর এই উপলক্ষ্যটা কাজে লাগচ্ছেন অনেক ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী। লোকসমাগম ঘটে এমন মোড়ে ভাপা পিঠার পসরা সাজিয়ে বসে পড়ছেন অনেকেই। ভাসমান এই সকল দোকানে মৃদু কুয়াশাচ্ছন্ন সন্ধ্যায় ভিড় জমাচ্ছেন অনেক পিঠা প্রেমী। রাজশাহীর বিভিন্ন

বিস্তারিত




এক নজরে

আমাদের সাথেই থাকুন

চাকরি

৭ ব্যাংকের সমন্বিত নিয়োগ পরীক্ষা স্থগিত

৭ ব্যাংকের সমন্বিত নিয়োগ পরীক্ষা স্থগিত

সানশাইন ডেস্ক: সাত ব্যাংকের সিনিয়র অফিসার পদের সমন্বিত নিয়োগ পরীক্ষা (২০১৮ সালভিত্তিক) স্থগিত করা হয়েছে। আগামী ৫ ডিসেম্বর রাজধানীর ৬৭টি কেন্দ্রে এ পরীক্ষা হওয়ার কথা ছিল। শনিবার (২৮ নভেম্বর) ব্যাংকার্স সিলেকশন কমিটির (বিএসসি) সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে। যে সাতটি ব্যাংকের নিয়োগ পরীক্ষার স্থগিত করা হয়েছে সেগুলো হলো হলো—সোনালী

বিস্তারিত