Daily Sunshine

তানোরে ‘বঙ্গবন্ধু ভক্ত’ সেই শফিকুল পরিবারের দুর্দশা

Share

টিপু সুলতান, তানোর: রাজশাহীর তানোর উপজেলার কামারগাঁ ইউনিয়নের হরিপুর গ্রামের শফিকুল ইসলাম ছিলেন বঙ্গবন্ধুভক্ত আওয়ামী লীগের একনিষ্ঠ কর্মী। তিনি কামারগাঁ ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ডের আওয়ামী লীগের সভাপতি ছিলেন। বঙ্গবন্ধু শেখ মজিবুর রহমান ও তার কন্যা (প্রধানমন্ত্রী) শেখ হাসিনাকে নিয়ে কটুক্তি করে কথা বললে তিনি তার সঙ্গে মারামারি লেগে যেতেন।
বিএনপি সরকারের আমলেও ওই এলাকার বিএনপির নেতা-কর্মীরা বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে কটুক্তি করলে তিনি প্রতিবাদ করতেন। এ নিয়ে বিভিন্ন ভাবে হয়রানির শিকার হতে হয়েছে তাকে। শফিকুল ইসলাম গরীব হলেও তিনি কাউকে ভয় পেতেন না।
তিনি আওয়ামী লীগ ভক্ত ছিলেন। বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে সম্মান করতেন। ৫২ বছর বয়সে বিভিন্ন রোগে বিনা চিকিৎসায় ২০১৯ সালে জুলাই মাসে তিনি মারা যান। কিন্তু আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় থাকার পরও আওয়ামী ভক্ত সেই ব্যক্তি বা তার পরিবারকে সহায়তার হাত বাড়িয়ে দেওয়া হয়নি। তিনি মারা যাওয়ার এক বছর পার হলেও তার স্ত্রী ও সন্তানদের খবর রাখেননি তার দলের লোকজন।
বঙ্গবন্ধুভক্ত দেশ প্রেমিক শফিকুল ইসলামের স্ত্রী ও সন্তানরা আজ অন্যের বাড়িতে কাজ করেন। শফিকুলের তিন ছেলে। বড় ছেলে মাফিজুর রহমান ও ফারুক তাদের আলাদা সংসার। শুধু শফিকুলের স্ত্রী মাকসুদা বেওয়া তার ছোট ছেলে মাসুদকে নিয়ে হরিপুর গ্রামে একটি মাটির বাড়িতে থাকেন। কিন্তু সেই মাটির বাড়িটিও অতিবৃষ্টির কারণে ভেঙ্গে পড়েছে।
খাবার জোগাবে, নাকি ভেঙ্গে পড়া বাড়ি ঠিক করবে। তা নিয়ে তাদের মা ছেলের চিন্তার শেষ নেই। এ নিয়ে ওই এলাকার আওয়ামী লীগের নেতাদের বলেও কোন কাজ হয়নি। বাড়ি ভেঙ্গে পড়ার কারণে শফিকুলের স্ত্রী মাকসুদা অন্যের বাড়িতে থাকেন। ছোট ছেলে টিনের ছোট একটি চালা তুলে কোন রকম জীবনযাপন করছেন।
শফিকুলের স্ত্রী মাকসুদা বলেন, আমার স্বামী ছিলেন বঙ্গবন্ধু পাগোল মানুষ। বঙ্গবন্ধু ও তার কন্যাকে নিয়ে কেও খারাপ ভাষায় কথা বললে তিনি উন্মাদের মতো প্রতিবাদ করতেন। তিনি মারা গেছেন। আওয়ামী লীগের কোন ব্যক্তি আমাদের খোঁজ খবর নেয় না। আমি বিধবা মানুষ। আমার কোন বিধবা ভাতার কার্ড করে দেয়নি। অন্যের বাড়িতে কাজ করে খেয়ে না খেয়ে জীবন যাপন করছি। তার উপর বসবাসের স্থান মাটির বাড়িটিও ভেঙ্গে পড়েছে। পেটের খাবার জোগাবো নাকি বাড়ি ঠিক করবো।
কামারগাঁ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ফজলে রাব্বি ফরহাদ বলেন, মৃত শফিকুলের পরিবার সম্পর্কে আমি জানি। দলীয় ভাবে কোন বরাদ্দ এলে তাদের সাহায্য করা হবে।
তানোর উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা যুবলীগের সভাপতি লুৎফর হায়দার রশিদ ময়না বলেন, শফিকুল আওয়ামী লীগের একনিষ্ঠ কর্মী ছিলেন। তাদের পরিবারের এ দূর অবস্থার কথা আমাকে কেউ জানায়নি। তবে তাদের বিষয়টি আমি দেখবো।

অক্টোবর ১৭
০৫:২৩ ২০২০

আরও খবর

পত্রিকায় যেমন

বিশেষ সংবাদ

নগরীর পুরাতন বইয়ের বাজার, কেমন আছেন দোকানীরা?

নগরীর পুরাতন বইয়ের বাজার, কেমন আছেন দোকানীরা?

আবু সাঈদ রনি: সোনাদীঘি মসজিদের কোল ঘেষে গড়ে উঠেছে রাজশাহীর ঐতিহ্যবাহী পুরাতন বইয়ের দোকান। নিম্নবিত্ত ও অস্বচ্ছল শিক্ষার্থীদের একমাত্র আশ্রয়স্থল এই পুরাতন লাইব্রেরী। মধ্যবিত্তরা যে যায় না ঠিক তেমনটিও না। কি নেই এই লাইব্রেরীতে? একাডেমিক, এডমিশন, জব প্রিপারেশনসহ সব ধরনের বই রাখা আছে সারি সারি সাজানো। নতুন বইয়ের দোকানের সন্নিকটে

বিস্তারিত




এক নজরে

আমাদের সাথেই থাকুন

চাকরি

চাকুরির নিয়োগ দিচ্ছে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়

চাকুরির নিয়োগ দিচ্ছে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়

সানশাইন ডেস্ক : রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে বিভিন্ন পদে জনবল নিয়োগ দেয়া হবে। রাবির নিজস্ব ওয়েবসাইটে এই নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে। পদের নাম: কম্পিউটার অপারেটর পদ সংখ্যা: ০১ টি। বেতন: ১২৫০০-৩০২৩০ টাকা। পদের নাম: মেডিক্যাল টেকনােলজিস্ট (ফিজিওখেরাপি) পদ সংখ্যা: ০২ টি। বেতন: ১২৫০০-৩০২৩০ টাকা। পদের নাম: মেডিক্যাল টেকনােলজিস্ট (ডেন্টাল) পদ সংখ্যা:

বিস্তারিত