Daily Sunshine

বিদ্যুৎ খাতে বাংলাদেশ বিস্ময়কর সাফল্য অর্জন করছে : লিটন

Share

স্টাফ রিপোর্টার: নর্দান ইলেকট্রিসিটি সাপ্লাই কোম্পানি লিমিটেডের (নেসকো) প্রকল্পের আওতায় স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটার স্থাপন বিষয়ক এক সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে। বুধবার দুপুরে নগর ভবন সিটি হল সভাকক্ষে আয়োজিত সেমিনারে প্রধান অতিথি ছিলেন রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এ.এইচ.এম খায়রুজ্জামান লিটন।
প্রধান অতিথি মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন সরকার বিদ্যুৎ খাতে সক্ষমতা অর্জন করেছে। বিদ্যুৎ খাতে বাংলাদেশ বিস্ময়কর সাফল্য অর্জন করেছে। শুধু শহর নয়, প্রত্যন্ত গ্রামগুলোও বিদ্যুতের আলোয় আলোকিত হয়েছে। আগামীতে দেশের শতভাগ মানুষ বিদ্যুতের সুবিধা ভোগ করতে পারবে।
মেয়র বলেন, রাজশাহীতে বিদ্যুৎ প্রবাহ স্বাভাবিক রাখতে ঝড় মৌসুমের শুরুতেই ব্যাপকভাবে গাছ কাটা হয়। প্রয়োজনে গাছ কাটতে হবে, তবে সেই কাজ করতে হবে সতর্কভাবে। সৌন্দর্যহীনভাবে গাছ কাটা যাবে না। গাছের ডাল ভেঙে পড়ে বিদ্যুতের সঞ্চালনে যাতে বিঘ্ন না ঘটে সেটি খেয়াল রাখার পাশাপাশি গাছের সৌন্দর্য্যও যাতে ঠিক থাকে, সেটা লক্ষ্য রাখতে হবে। প্রয়োজনে রাসিকের পরিবেশ উন্নয়ন শাখা আপনাদের সাহায্য করবে।
সিটি কর্পোরেশন এলাকায় বিদ্যুতের হেলে পড়া পোল ঠিক করতে নেসকো‘র দৃষ্টি আকর্ষণ করেন মেয়র। স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটার স্থাপনের যুগোপযোগী উদ্যোগ গ্রহণ করায় নেসকো‘কে সাধুবাদ জানান মেয়র।
সেমিনারে মূখ্য আলোচক ছিলেন নেসকো লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক জাকিউল ইসলাম। সেমিনারে তিনি বলেন, নেসকো লিঃ উত্তরাঞ্চলের রাজশাহী ও রংপুর বিভাগের ১৬টি জেলার আওতাধীন ৩৯টি উপজেলা শহর ও শহরাঞ্চলের প্রায় ১৬ লক্ষ গ্রাহকগণকে ৫১টি বিক্রয় ও বিতরণ বিভাগ/বিদ্যুৎ সরবরাহ ইউনিট এর মাধ্যমে নির্ভরযোগ্য ও সাশ্রয়ী বিদ্যুৎ সরবরাহ, অধিকতর গ্রাহক সেবা প্রদান এবং গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের রূপকল্প-২০২১ বাস্তবায়নের জন্য নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে। মুজিববর্ষেই শতভাগ বিদ্যুতায়নের নিমিত্ত বর্তমানে রাজশাহী ও রংপুর এলাকায় বিদ্যুৎ বিতরণ লাইন ও উপকেন্দ্র সম্প্রসারণ ও পুনর্বাসন প্রকল্প নামে দুটি প্রকল্প চলমান রয়েছে। এছাড়াও রাজশাহী ও রংপুর অঞ্চলের অফগ্রীড চরাঞ্চলসমূহে নিজস্ব অর্থায়নে সোলার হোম সিস্টেম স্থাপনের মাধ্যমে শতভাগ বিদ্যুতায়ন কার্যক্রম সম্পাদন করার জন্য দুইটি প্রকল্প হাতে নেওয়া হয়েছে।
তিনি আরো জানান, নর্দান ইলেকট্রিসিটি সাপ্লাই কোম্পানী লিমিটেড এলাকায় পাঁচ লক্ষ স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটার স্থাপন প্রকল্প ২০১৮ সালের ২৯ জুলাই একনেক সভায় অনুমোদন লাভ করে। প্রকল্প এলাকা তথা রাজশাহী, নাটোর, চাঁপাইনবাবগঞ্জ, বগুড়া, পাবনা, দিনাজপুর, সিরাজগঞ্জ, নীলফামারী জেলার আওতাধীন ১৬টি বিক্রয় ও বিতরণ বিভাগে পাঁচ লক্ষ স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটার স্থাপন করা হবে।
প্রকল্পের উদ্দেশ্য ও লক্ষ্যমাত্রা হচ্ছে উন্নত গ্রাহক সেবা প্রদান, অগ্রিম রাজস্ব আদায়, নন-টেকনিক্যাল লস শূন্যের কোঠায় নামিয়ে আনা, ডিমান্ড সাইড লোড নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থাপনা সহজীকরণ, বিদ্যুতের অপচায় রোধকরণ। প্রকল্পের আওতায় ৩টি প্যাকেজের মাধ্যমে পাঁচ লক্ষ স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটার স্থাপন করা হবে।
স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটার ব্যবহারে গ্রাহক যে সুবিধা পাবেন, তা হচ্ছে, গ্রাহকের বিল সংক্রান্ত জটিলতার নিরসন হবে। গ্রাহকগণ ১% হারে রেয়াত (জবনধঃব) সুবিধা পাবেন। বিদ্যুৎ বিলের কপি প্রাপ্তি ও সংরক্ষণ করার প্রয়োজন হবে না। যে কোন স্থান থেকে যে কোন সময় অনলাইন এর মাধ্যমে মিটারে টাকা রির্চাজ করতে পারবেন। যে কোন সময় মিটারের রিডিং ও ব্যালেন্সসহ যাবতীয় তথ্য অনলাইনে দেখতে পারবেন। অনলাইন কানেক্টিভিটি কারনে ওভার বিলিং অথবা আন্ডার বিলিং হবে না। মিটারে ব্যালেন্স শেষ হবার পূর্বে ব্যালেন্স সম্পর্কে অবগত হতে পারবেন। মিটারে ব্যালেন্স শেষ হলেও ক্রেডিটে বিদ্যুৎ সরবরাহ সচল থাকবে। নিরবিচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ সরবরাহ নিশ্চিত করা সম্ভবপর হবে। নতুন সংযোগ প্রদান এবং লোড বৃদ্ধির ক্ষেত্রে নিরাপত্তা জামানত গ্রহণ করা হবে না।
নেসকো‘র ব্যবস্থাপনা পরিচালক জাকিউল ইসলাম আরো বলেন, প্রকল্প বাস্তবায়তি হলে তৃতীয় পক্ষের মাধ্যমে মিটার রিডিং সংগ্রহ, বিতরণ, বিল প্রিন্ট সংক্রান্ত ব্যয় সাশ্রয় হবে। স্মার্ট প্রি-পেমেন্ট মিটার ব্যবহার বিল সমমাস শূণ্যের কোটায় চলে আসবে। অগ্রিম রাজস্ব আদায় হবে। নন-টেকনিক্যাল লস শূণ্যের কোঠায় নিয়ে আসা যাবে। ডিমান্ড সাইড লোড নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থাপনা সহজতরকরণ ও বিদ্যুতের অপচয় রোধ হবে।
সেমিনারে মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন রাসিকে প্যানেল মেয়র-১ ও ১২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর সরিফুল ইসলাম বাবু, প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ড. এবিএম শরীফ উদ্দিন ও সচিব আবু হায়াত মো. রহমতুল্লাহ। সঞ্চালনা করেন নেসকো‘র তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী (পরিচালন ও সংরক্ষণ, সার্কেল-১, রাজশাহী) শিরিন ইয়াসমিন। সেমিনারে রাসিকের কাউন্সিলর-কর্মকর্তাবৃন্দ, নেসকো‘র কর্মকর্তাবৃন্দ ও প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

অক্টোবর ০১
০৬:২৯ ২০২০

আরও খবর

পত্রিকায় যেমন

বিশেষ সংবাদ

নগরীর পুরাতন বইয়ের বাজার, কেমন আছেন দোকানীরা?

নগরীর পুরাতন বইয়ের বাজার, কেমন আছেন দোকানীরা?

আবু সাঈদ রনি: সোনাদীঘি মসজিদের কোল ঘেষে গড়ে উঠেছে রাজশাহীর ঐতিহ্যবাহী পুরাতন বইয়ের দোকান। নিম্নবিত্ত ও অস্বচ্ছল শিক্ষার্থীদের একমাত্র আশ্রয়স্থল এই পুরাতন লাইব্রেরী। মধ্যবিত্তরা যে যায় না ঠিক তেমনটিও না। কি নেই এই লাইব্রেরীতে? একাডেমিক, এডমিশন, জব প্রিপারেশনসহ সব ধরনের বই রাখা আছে সারি সারি সাজানো। নতুন বইয়ের দোকানের সন্নিকটে

বিস্তারিত




এক নজরে

আমাদের সাথেই থাকুন

চাকরি

চাকুরির নিয়োগ দিচ্ছে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়

চাকুরির নিয়োগ দিচ্ছে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়

সানশাইন ডেস্ক : রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে বিভিন্ন পদে জনবল নিয়োগ দেয়া হবে। রাবির নিজস্ব ওয়েবসাইটে এই নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে। পদের নাম: কম্পিউটার অপারেটর পদ সংখ্যা: ০১ টি। বেতন: ১২৫০০-৩০২৩০ টাকা। পদের নাম: মেডিক্যাল টেকনােলজিস্ট (ফিজিওখেরাপি) পদ সংখ্যা: ০২ টি। বেতন: ১২৫০০-৩০২৩০ টাকা। পদের নাম: মেডিক্যাল টেকনােলজিস্ট (ডেন্টাল) পদ সংখ্যা:

বিস্তারিত