Daily Sunshine

উপার্জন হারিয়ে ছাড়ছে শহর : করোনার জাঁতাকলে পিষ্ট নিম্ন মধ্যবৃত্ত

Share

স্টাফ রিপোর্টার : করোনাকালিন দুর্যোগের জাঁতাকলে পৃষ্ট হয়ে মধ্যবিত্ত জীবনগুলোর নাভিশ্বাস উঠছে। কেউ চাকুরি হারিয়ে। আবার কেউ কোনভাবে টিকে আছে। ত্রাণের লাইনে দাঁড়াতে পারছে না। আবার, অভাবের কথা মুখ ফুটে বলতেও পারেন না। এই করোনাকালে তাই হাঁসফাঁস করছে মধ্যবিত্ত।
রাজশাহীর পবা বাগধানী এলাকার উজ্জল। পেশায় কসমেটিক ও সাজগোজের দোকান আছে। দীর্ঘ লকডাউন তার ব্যবসার অবস্থা খারাপ। পরে লকডাউন ছুটে গেলেও করোনা ভাইরাসের প্রদুর্ভাবে কমে এসেছে গ্রাহক। এতে তার ব্যবসা বন্ধ হওয়ার পথে।
উজ্জল জানান, তার দোকানে প্রতিদিন ২ থেকে আড়াই হাজার টাকার বেচাকেনা হতো। কিন্তু এখন তা নেমে এসেছে ৫০০ থেকে ৬০০ টাকায়। এ অল্প টাকার বেচাবিক্রি করে কোন লাভই হয় না। সংসারে ৫ জন মানুষ। দীর্ঘ দিনের ব্যবসা মন্দা থাকায় পেটের ভাত জোটানোই এখন দায় হয়ে পড়েছে।
উজ্জল আরো জানান, সামান্য কিছু সঞ্চয় ছিল। তা ভেঙে খাওয়া হয়ে গেছে। এখন যা খাওয়া হচ্ছে তাতে দোকানের পুঁজি শেষ হওয়ার পথে।
এশীয় উন্নয়ন ব্যাংকের তথ্য অনুযায়ি, এক ব্যক্তির ক্রয় ক্ষমতা (পিপিপি) যদি প্রতিদিন দুই মার্কিন ডলার থেকে ২০ মার্কিন ডলারের মধ্যে হয় তবে তাকে মধ্যবিত্ত বলা যায়। তাদের তথ্য অনুযায়ি, বাংলাদেশে মধ্যবিত্ত হলো তিন কোটি সাত লাখ।
বাংলাদেশ উন্নয়ন গবেষণা প্রতিষ্ঠান (বিআইডিএস) এর সাম্প্রতিক জরিপে বলা হচ্ছে, করোনায় এক কোটি ৬৪ লাখ মানুষ নতুন করে গরিব হয়েছে, দারিদ্র্যসীমার নিচে নেমে গেছে। তাই এখন দেশে গরিব মানুষের সংখ্যা পাঁচ কোটির বেশি।
বিআইডিএস-এর অর্থনীতিবিদ ড. নাজনীন আহমেদের মতে, ১৫ থেকে ২০ ভাগ মানুষ দারিদ্র্যরেখার খুব কাছে অবস্থান করে। সেই সংখ্যাটিও তিন কোটির মতো। যেকোনো দুর্যোগ এলে তারা ক্ষতিগ্রস্ত হয়।
রাজশাহী অঞ্চল এ জরিপের বাহিরে নয়। রাজশাহী অঞ্চলেও যারা নিম্ন মধ্যবৃত্ত তারা বেশ হতাশার মধ্যে বসবাস করছেন। এদের বেশিরভাগ বিভিন্ন বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে চাকুরি নির্ভর। দেখা গেছে এদের বেশিরভাগ এ করোনা মহামারিতে চাকুরি হারিয়েছেন। আবার যারা টিকে আছেন তাদের বেতনও হয়ে গেছে অর্ধেক।
রাজশাহী মহানগরীর উপশহর এলাকার তৌফিক হোসেন। তিনি জানান, নিজেকে প্রতিষ্ঠা করার জন্য তিনি লেখাপড়া শেষ করে একটি ক্যাবল কোম্পানিতে চাকুরি নিয়েছিলেন। কিন্তু করোনা পরিস্থিতিতে অবস্থা খারাপ হতে শুরু করে। কোম্পানি থেকে বেতন অর্ধেক করে দেয়া হয়েছে। এমন বেতন নিয়ে পরিবার চালানোই দায় হয়ে পড়েছে।
সারা দেশের মতো রাজশাহী অঞ্চলেও নিম্ন মধ্যবিত্ত আয়ের এরাই এখন সবচেয়ে বেশি সংকটের মুখে। তারাই হয়তো দরিদ্রের কাতারে নেমে গেছেন। এ নিম্ন মধ্যবৃত্ত বা মধ্যবৃত্তের বেশিরভাগ মানুষই নির্ভর করে বেসরকারি চাকুরির উপরে। কিন্তু সেই সুযোগ অনেকেরই বন্ধ হতে চলেছে। সম্প্রতি সময়ে ঢাকাসহ দেশের বড় বড় শহরগুলোতে যেভাবে বাড়ি ফাঁকা হতে শুরু করেছে এটা তার একটি প্রমান। রাজশাহীতেও গত মাসে অসংখ্য বাড়ি ফাঁকা হয়েছে। বাড়িভাড়া টানতে পারছেন বলে অনেকেই ভাড়া ছেড়ে দিয়েছে। ফিরে গেছেন গ্রামে।
বিশেষ করে ঢাকায় স্বল্প বেতনে চাকরি করতেন, বা ছোট-খাট ব্যসা করতেন, এমন নিম্ন-মধ্যবিত্ত শ্রেণির মানুষ পড়েছেন সবচেয়ে বেশি বিপদে।
এই শ্রেণির অনেকে কর্ম হারিয়েছেন, অনেকের ব্যবসায় ধস নেমেছে। আয় না থাকায় শহরে টেকা দায় হয়ে পড়েছে তাদের। সেজন্য অনেকেই নগরীর বাসা ছেড়ে দিয়ে চলে যাচ্ছেন গ্রামে। আবার কেউ কেউ বড় বাসা ছেড়ে দিয়ে উঠছেন ছোট বাসায়। এজন্য এখন রাজশাহী মহানগরীতে বের হলেই চোখে পড়ছে প্রতিটি বাড়িতে ফ্ল্যাট ভাড়ার বিজ্ঞাপন ‘টু-লেট’।
বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন, অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ডে গতি আনার পাশাপাশি নিম্নবিত্ত চাকরিজীবীসহ নিম্ন আয়ের জনগোষ্ঠীকে রক্ষায় সরকার বিশেষ পদক্ষেপ না নিলে এই পরিস্থিতি থেকে বেশিরভাগ মানুষেরই বেরিয়ে আসা কঠিন হয়ে পড়বে।

জুলাই ০৬
০৬:২৫ ২০২০

আরও খবর

পত্রিকায় যেমন

বিশেষ সংবাদ

দুই নেতার শীতল যুদ্ধে বিএনপিতে বিভক্তি!

দুই নেতার শীতল যুদ্ধে বিএনপিতে বিভক্তি!

সানশাইন ডেস্ক : দলে প্রভাব বিস্তার, সিদ্ধান্ত গ্রহণে দ্বিমুখিতা, প্রাত্যহিক কার্যক্রমে সমন্বয়হীনতাসহ সাংগঠনিক দ্বন্দ্বে বিএনপিতে বিভক্তি সৃষ্টি হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে। নেতারা পরস্পরের সঙ্গে জড়িয়ে পড়ছেন শীতল যুদ্ধে। দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের নির্দেশ পাশ কাটিয়ে বিশেষ ক্ষমতাবলে সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ নিজের মতো করে দলের

বিস্তারিত




এক নজরে

আমাদের সাথেই থাকুন

চাকরি

বিশেষ বিসিএসে আরও দুই হাজার চিকিৎসক নিয়োগ

বিশেষ বিসিএসে আরও দুই হাজার চিকিৎসক নিয়োগ

সানশাইন ডেস্ক : সংকট মোকাবিলায় নতুন করে বিশেষ বিসিএসের মাধ্যমে আরও দুই হাজার চিকিৎসক নিয়োগ দিচ্ছে সরকার। এজন্য বিসিএস নিয়োগবিধি সংশোধন করে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ে পাঠাচ্ছে সরকারি কর্ম কমিশন (পিএসসি)। পিএসসির পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক (ক্যাডার) আ ই ম নেছার উদ্দিন সোমবার (২৭ জুলাই) বাংলানিউজকে এ তথ্য জানান। তিনি বলেন, নতুন করে বিশেষ

বিস্তারিত