Daily Sunshine

কোহলির বিরুদ্ধে বিসিসিআইয়ের কাছে অভিযোগ

Share

স্পোর্টস ডেস্ক: অধিনায়ক বিরাট কোহলি বিরুদ্ধে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিসিআই) কাছে স্বার্থের দ্বন্দ্বের (কনফ্লিক্ট অব ইনট্রেস্ট) অভিযোগ এনেছেন দেশটির মধ্যপ্রদেশ ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের আজীবন সদস্য সঞ্জীব গুপ্ত। ভারতের সুপ্রিম কোর্ট কর্তৃক নিয়োগকৃত লোধা কমিশনের সুপারিশ অনুসারে বিসিসিআইয়ের সাথে চুক্তিভুক্ত কেউ অন্য কোনো লাভজনক সংস্থার সাথে জড়িত থাকতে পারবেন না। কিন্তু বিসিসিআইয়ের প্রচলিত নিয়ম ভেঙ্গেছেন কোহলি।
কোহলির বিরুদ্ধে সেই অভিযোগপত্র ইতোমধ্যে বিসিসিআইয়ের নৈতিক কর্মকর্তা অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতি ডি কে জৈনের কাছে কাছে পৌঁছে গেছে। অভিযোগ প্রমাণিত হলে, বড় ধরনের শাস্তির মুখোমুখি হতে পারে কোহলির।
ডি কে জৈন বলেন, ‘হ্যাঁ, আমরা কোহলির বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র পেয়েছি। আমরা এই বিষয়ে খোঁজ নেওয়া শুরু করেছি। আমরা এটা পরীক্ষা করে ভেবে দেখবো কি করা উচিত। যদি আমরা এর সত্যতা খুঁজে পাই, তবে কোহলির কাছে এই বিষয়ে জানতে চাওয়া হবে। আর তাকে উত্তর জানানোর সুযোগ দেওয়া হবে। সবার জন্য যে নিয়ম প্রযোজ্য, তার জন্যও একই নিয়ম থাকবে।’
অভিযোগ পত্রে কোহলির বিরুদ্ধে সঞ্জীব গুপ্ত লিখেছেন, ‘কোহলি একই সাথে দুটি পদ অধিকার করে রেখেছেন। যা বিসিসআইয়ের ধারা ৩৮ (৪) এর সম্পূর্ণ বিপরীত। এই ধারাটি অনুমোদন দিয়েছে ভারতের সুপ্রিম কোর্ট।’
তবে বিসিসিআইয়ের এক কর্মকর্তা বলছেন ভিন্ন কথা। তিনি জানান, ‘কেউ উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ভাবে ভারতীয় বোর্ডকে ভিন্ন পথে নেয়ার চেষ্টা করছে। যারা দেশের সেবা করছেন, তাদের ব্যক্তিগত স্বার্থের জন্য এমনটা করছে। এর পেছনে অন্য কোনো উদ্দেশ্য আছে। আমরা সকল বিষয় খতিয়ে দেখব।’

জুলাই ০৬
০৬:১৪ ২০২০

আরও খবর

পত্রিকায় যেমন

বিশেষ সংবাদ

শীঘ্রই শেষ হচ্ছে করোনার প্রকোপ!

শীঘ্রই শেষ হচ্ছে করোনার প্রকোপ!

সানশাইন ডেস্ক : গোটা বিশ্বকে ভালোই ভুগিয়েছে ছোট্ট একটি জীবাণু। বিশ্বের নানা দেশ ও অঞ্চলে আধিপত্য বিস্তার করে এই ভাইরাস এখন অনেকটা সহনীয় হয়ে এসেছে বলে জানিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। তাদের দাবি, এখন ৪০ শতাংশ মানুষ করোনা আক্রান্ত হলেও তাদের কোনো উপসর্গ প্রকাশ পাচ্ছে না। আর এতেই আশার কথা শোনাচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা। এদিকে,

বিস্তারিত




এক নজরে

আমাদের সাথেই থাকুন

চাকরি

সরকারি চাকরিতে আরও বেড়েছে ফাঁকা পদ

সরকারি চাকরিতে আরও বেড়েছে ফাঁকা পদ

সানশাইন ডেস্ক : করোনাভাইরাস মহামারীর মধ্যে সরকারি চাকরির বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ না হওয়ায় বেড়েছে চাকরিপ্রার্থীর সংখ্যা, সঙ্গে ফাঁকা পদের সংখ্যাও বাড়ছে। সরকারি চাকরিতে এখন তিন লাখ ৮৭ হাজার ৩৩৮টি পদ ফাঁকা পড়ে আছে, যা মোট পদের ২১ দশমিক ২৭ শতাংশ। জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন বলছেন, অগাস্ট মাসে কোভিড-১৯ সংক্রমণ কমে আসবে

বিস্তারিত