Daily Sunshine

ওষুধ ব্যবহারের আগে চিকিৎসকের পরামর্শ জরুরি

Share

যুক্তরাজ্যের একদল বিশেষজ্ঞ দাবি করেছেন, করোনাভাইরাসের চিকিৎসায় জীবন রক্ষাকারী একটি ওষুধের খোঁজ পেয়েছেন তারা। তাদের দাবি, ডেক্সামিথাসোন নামে এ ওষুধ স্বল্প মাত্রায় প্রয়োগের ফলে তা করোনাভাইরাস চিকিৎসায় দারুণ কাজ করছে। এই খবরে ওষুধটি চাহিদি হঠাৎ বৃদ্ধি পেয়েছে। আক্রান্ত নয় এমন মানুষও এই ওষুধ সেবনে ঝুঁকছে। আবার কেউ ইচ্ছা করলেই ওষুধটি ব্যবহার করবেন আর করোনা ভালো হয়ে যাবে, ব্যাপারটা মোটেই এমন নয়। বরং চিকিৎসক কর্তৃক প্রয়োগ ছাড়া কেউ নিজে থেকে তা প্রয়োগ করলে তার হিতে বিপরীত হতে পারে বলে জানিয়েছে চিকিৎসকরা।

ডেক্সামিথাসোন একটি স্টেরয়েড ধরনের ওষুধ। স্টেরয়েড দেহের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বা ইমিউনিটি কমায়। স্টেরয়েড আবার ইমিউনিটির অস্বাভাবিক বৃদ্ধির কারণে সৃষ্ট ক্ষতিকর অবস্থাও কমায়, যেটা আইসিউতে অনেক রোগীর ক্ষেত্রে সাইটোকাইনস স্টর্মে হচ্ছে কোভিড-১৯-এ। এজন্য ডেক্সামিথাসোন শুধু হাসপাতালে ভর্তি হওয়া শ্বাসকষ্টের বা আইসিউতে থাকা রোগীর ক্ষেত্রেই ব্যবহারের কথা বিবেচনা করা যেতে পারে, মৃদু উপসর্গ নিয়ে বাসায় অবস্থান করা রোগীর ক্ষেত্রে নয়। প্রতিষেধক হিসেবে তো প্রশ্নই ওঠে না। কোভিড-১৯ রোগীর যেহেতু ইমিউনিটি বাড়ানো প্রয়োজন, সেহেতু ডেক্সামিথাসোন খেয়ে করোনায় আক্রান্ত রোগীর রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কমিয়ে আরও দুর্বল করে দেহে করোনাভাইরাসের বংশ বিস্তার করার উপযোগী পরিবেশ তৈরি করে দেয়ার পক্ষে কোনো যুক্তি থাকতে পারে না।

দীর্ঘদিন স্টেরয়েড সেবনে দেহে অনেক পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা দেয়। স্টেরয়েড দেহে লবণ ও পানি জমা করে দেহকোষগুলোর ফাঁকে ফাঁকে। ফলে দীর্ঘদিন কেউ এটা খেলে সে মোটা হয়ে যায়। তার মুখটা হয়ে যায় অনেকটা বেলের মতো গোল ও মসৃণ, ঘাড়টা ষাঁড়ের ঘাড়ের মতো ফোলা ও উঁচু, পেটটা শারদ পূর্ণিমার পূর্ণচন্দ্রের মতো বিকশিত! অতীতে তো বটেই, এখনও অনেক হ্যাংলা পাতলা স্বাস্থ্যের, তালপাতার সেপাই ধরনের মানুষ এটা কয়েক মাস টানা খেয়ে মোটা হওয়ার চেষ্টা করে, ঠিক যেন ওষুধ খাইয়ে গরু মোটাতাজাকরণের মতো! এটার নাম কুসিংস সিন্ড্রোম। বাত, হাঁপানিসহ কিছু রোগ ইমিউনিটির অস্বাভাবিক বৃদ্ধির দ্বারা ঘটে বলে অনেকেই সেসব রোগের উপসর্গ থেকে মুক্ত হয়ে আরাম পায়। এ কারণে তারা চিকিৎসকের পরামর্শ ছাড়াই বছরের পর বছর স্টেরয়েড খেয়ে অবশেষে এর পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া হিসেবে ডায়াবেটিস, উচ্চ রক্তচাপ, চোখে ছানিপড়া, হাড়ক্ষয় ইত্যাদি রোগে আক্রান্ত হয়ে এবং পটকা মাছের মতো মোটা হয়ে চিকিৎসকের কাছে হাজির হয়।

জুন ২২
০৬:০৯ ২০২০

আরও খবর

পত্রিকায় যেমন

বিশেষ সংবাদ

দুই নেতার শীতল যুদ্ধে বিএনপিতে বিভক্তি!

দুই নেতার শীতল যুদ্ধে বিএনপিতে বিভক্তি!

সানশাইন ডেস্ক : দলে প্রভাব বিস্তার, সিদ্ধান্ত গ্রহণে দ্বিমুখিতা, প্রাত্যহিক কার্যক্রমে সমন্বয়হীনতাসহ সাংগঠনিক দ্বন্দ্বে বিএনপিতে বিভক্তি সৃষ্টি হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে। নেতারা পরস্পরের সঙ্গে জড়িয়ে পড়ছেন শীতল যুদ্ধে। দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের নির্দেশ পাশ কাটিয়ে বিশেষ ক্ষমতাবলে সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ নিজের মতো করে দলের

বিস্তারিত




এক নজরে

আমাদের সাথেই থাকুন

চাকরি

বিশেষ বিসিএসে আরও দুই হাজার চিকিৎসক নিয়োগ

বিশেষ বিসিএসে আরও দুই হাজার চিকিৎসক নিয়োগ

সানশাইন ডেস্ক : সংকট মোকাবিলায় নতুন করে বিশেষ বিসিএসের মাধ্যমে আরও দুই হাজার চিকিৎসক নিয়োগ দিচ্ছে সরকার। এজন্য বিসিএস নিয়োগবিধি সংশোধন করে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ে পাঠাচ্ছে সরকারি কর্ম কমিশন (পিএসসি)। পিএসসির পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক (ক্যাডার) আ ই ম নেছার উদ্দিন সোমবার (২৭ জুলাই) বাংলানিউজকে এ তথ্য জানান। তিনি বলেন, নতুন করে বিশেষ

বিস্তারিত