Daily Sunshine

দায়িত্বে অবহেলা রোধে ব্যবস্থা নিতে হবে

Share

মানব সভ্যতা আজকের পর্যায়ে উন্নীত হওয়ার পেছনে যে ক’টি আবিষ্কারের অবদান রয়েছে, বিদ্যুৎ তার অন্যতম। বর্তমানে বিদ্যুৎ ছাড়া কোন কিছু ভাবাই যায় না। তবে দেশে যেভাবে বিদ্যুৎজনিত দুর্ঘটনা বাড়ছে, তাতে আজ এটি আর উন্নয়ন ও সম্ভাবনার দূত নয়; বরং উদ্বেগ-উৎকণ্ঠার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে।
আশঙ্কার বিষয় হল, বিদ্যুতের পাশাপাশি গ্যাসজনিত দুর্ঘটনাও বেড়েছে। এতে আর্থিক ক্ষয়ক্ষতিসহ অনেক প্রাণহানিও ঘটছে। তারপরও এ ধরনের ঘটনার পুনরাবৃত্তি কেন রোধ করা যাচ্ছে না, এ প্রশ্ন এড়িয়ে যাওয়ার সুযোগ নেই।
সচেতনতা, সাবধানতা ও দায়িত্বশীলতার মাধ্যমে এ ধরনের দুর্ঘটনা রোধ করা সম্ভব হলেও হতাশার বিষয় হল, ব্যবহারকারী হিসেবে আমরা যেমন সচেতন নই; তেমনি নজরদারির ক্ষেত্রেও সেবাপ্রদানকারী প্রতিষ্ঠানগুলোর চরম উদাসীনতা ও দায়িত্বে অবহেলা পরিলক্ষিত হচ্ছে। বস্তুত নিরবচ্ছিন্ন সেবা প্রদানের পাশাপাশি গ্রাহকদের সুরক্ষা নিশ্চিত করা সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠানগুলোর কর্তব্য হলেও গ্রাহক-সুরক্ষার ক্ষেত্রে তারা কোনোরকম ভূমিকাই রাখছে না।
অথচ গ্রাহকসেবা প্রদানের নামে ঠিকই ভাগে ভাগে টাকা আদায় করা হচ্ছে। তাছাড়া বিদ্যুৎ-গ্যাস ব্যবহারকারীদের মধ্যে যারা অবৈধভাবে সুযোগ-সুবিধা নিচ্ছে, তারা সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠানের কিছু অসাধু ব্যক্তির সঙ্গে যোগসাজশ করে বিভিন্ন অনিয়ম ও দুর্নীতিতে লিপ্ত রয়েছে। এ কারণেও বাড়ছে দুর্ঘটনা।
জানা গেছে, প্রতি বছর দেশে গ্যাস ও বিদ্যুৎ সংশ্লিষ্ট দুর্ঘটনা ঘটছে ৯ লাখের ওপর। উদ্বেগের বিষয় হল, এরপরও সুরক্ষা নিশ্চিতে যত্নবান হচ্ছে না সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠানগুলো; সচেতন হচ্ছেন না ব্যবহারকারীরাও।
যে কোন দুর্ঘটনা একইসঙ্গে জীবন ও সম্পদবিনাশী। দেশে প্রায়ই গ্যাস-বিদ্যুৎসহ নানা দুর্ঘটনা ঘটলেও এ ব্যাপারে করণীয় নির্ধারণ ও কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ, উদ্ধার প্রক্রিয়া এবং জনসচেতনতা যতটুকু থাকা দরকার, তার প্রায় কিছুই নেই। গ্যাস-বিদ্যুৎজনিত এবং সম্ভাব্য অন্যান্য দুর্ঘটনা ও ক্ষতি ন্যূনতম পর্যায়ে রাখতে হলে দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনা ও প্রস্তুতি থাকা প্রয়োজন।
বিশ্বের অনেক দেশে বিভিন্ন দুর্ঘটনা ও বিপর্যয়ের ক্ষয়ক্ষতি এড়াতে উন্নত প্রযুক্তির ব্যবহার চালু হয়েছে। আমাদের না আছে প্রযুক্তিগত দক্ষতা, না আছে প্রশিক্ষিত জনবল ও অর্থের জোর। কাজেই এ ক্ষেত্রে আমাদের সচেতন ও কর্তব্যনিষ্ঠ হওয়ার কোনো বিকল্প নেই।
বিদ্যুৎ ও গ্যাসজনিত দুর্ঘটনাসহ সব ধরনের দুর্ঘটনা রোধে সরকার জনসচেতনতা বৃদ্ধির উদ্যোগের পাশাপাশি সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠানের জবাবদিহিতা নিশ্চিত করবে, এটাই প্রত্যাশা।

জুন ১৯
০৫:০২ ২০২০

আরও খবর

পত্রিকায় যেমন

বিশেষ সংবাদ

দুই নেতার শীতল যুদ্ধে বিএনপিতে বিভক্তি!

দুই নেতার শীতল যুদ্ধে বিএনপিতে বিভক্তি!

সানশাইন ডেস্ক : দলে প্রভাব বিস্তার, সিদ্ধান্ত গ্রহণে দ্বিমুখিতা, প্রাত্যহিক কার্যক্রমে সমন্বয়হীনতাসহ সাংগঠনিক দ্বন্দ্বে বিএনপিতে বিভক্তি সৃষ্টি হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে। নেতারা পরস্পরের সঙ্গে জড়িয়ে পড়ছেন শীতল যুদ্ধে। দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের নির্দেশ পাশ কাটিয়ে বিশেষ ক্ষমতাবলে সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ নিজের মতো করে দলের

বিস্তারিত




এক নজরে

আমাদের সাথেই থাকুন

চাকরি

বিশেষ বিসিএসে আরও দুই হাজার চিকিৎসক নিয়োগ

বিশেষ বিসিএসে আরও দুই হাজার চিকিৎসক নিয়োগ

সানশাইন ডেস্ক : সংকট মোকাবিলায় নতুন করে বিশেষ বিসিএসের মাধ্যমে আরও দুই হাজার চিকিৎসক নিয়োগ দিচ্ছে সরকার। এজন্য বিসিএস নিয়োগবিধি সংশোধন করে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ে পাঠাচ্ছে সরকারি কর্ম কমিশন (পিএসসি)। পিএসসির পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক (ক্যাডার) আ ই ম নেছার উদ্দিন সোমবার (২৭ জুলাই) বাংলানিউজকে এ তথ্য জানান। তিনি বলেন, নতুন করে বিশেষ

বিস্তারিত