Daily Sunshine

রাজশাহী টেনিস কমপ্লেক্স থেকে রাজাকারের নাম অপসারণ দাবি

Share

স্টাফ রিপোর্টার : রাজশাহীর জাফর ইমাম আন্তর্জাতিক টেনিস কমপ্লেক্স থেকে জাফর ইমামের নাম বাদ দেওয়ার দাবিতে সংবাদ সম্মেলন করেছে রাজশাহী জেলা ও মহানগর মুক্তিযোদ্ধারা। মঙ্গলবার দুপুরে জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্স ভবনে এ সংবাদ সম্মলনের আয়োজন করা হয়। সংবাদ সম্মেলনে রাজশাহী জেলা ও মহানগরের মুক্তিযোদ্ধারা উপস্থিত ছিলেন।
সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পড়ে শোনার মুক্তিযোদ্ধা রুহুল আমিন প্রামানিক। লিখিত বক্তব্যে বলা হয়, জাফর ইমাম মুক্তিযুদ্ধের সময় রাজশাহীতে বুদ্ধিজীবীসহ স্বাধীনতার স্বপক্ষের মানুষদের তালিকা তৈরিতে ভূমিকা রেখেছিলেন। তৎকালীন মুসলিম লীগ নেতা এ্যাডভোকেট আয়েন উদ্দিনের সঙ্গে পাকিস্তানি হানাদার বাহিনীর সঙ্গে জীপে করে প্রকাশ্যে রাজশাহী শহর দাঁপিয়ে বেড়াতেন। এছাড়া রাজশাহী সার্কিট হাউজ ও রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের জোহাহলে পাকিস্তানি আর্মির কনসেন্ট্রেশন ক্যাম্পে যাতায়াত করতেন।
জাফর ইমাম ও তার গংদের তালিকা ধরেই হানাদার পাকিস্তানি বাহিনী রাজশাহীতে দীর্ঘ নয় মাস রাজশাহীর মানুষদের হত্যা করেছে। এছাড়া জাফর ইমাম রাজশাহীতে এনএসএফ এর মূল সংগঠক হিসেবে জাতীয় মুক্তি আন্দোলনের অনেক নেতাকর্মীদের উপর নানা সময়ে হামলার মূল কুশীলবও ছিলেন।
রুহুল আমিন বলেন, রাজশাহীর মুক্তিযোদ্ধারা দীর্ঘদিন ধরে রাজশাহী আন্তর্জাতিক টেনিস কমপ্লেক্স থেকে কুখ্যাত রাজাকার জাফর ইমামের নাম অপসারণের দাবিতে আন্দোলন করে যাচ্ছেন। আবারও তার নাম টেনিস কমপ্লেক্স থেকে অপসারণের জোর দাবি জানায়। একই সঙ্গে এ দাবিতে বুধবার মানববন্ধন আয়োজন করা হবে বলে জানান তিনি।
স্বাধীনতার অনেক আগে থেকেই রাজশাহী টেনিস কমপ্লেক্সটি প্রতিষ্ঠিত ছিল। ২০০৪ সালে মারা যান ক্রীড়া সংগঠক জাফর ইমাম। এরপর ২০০৫ সালে বিএনপির নেতৃত্বাধীন চারদলীয় জোট সরকারের আমলে তার নামে টেনিস কমপ্লেক্সটির নামকরণ হয়। এরপর তা বাতিল করে একজন শহীদ মুক্তিযোদ্ধা বা বুদ্ধিজীবীর নামে এ কমপ্লেক্সটি নামকরণের দাবিতে বারবার আন্দোলনে নামেন মুক্তিযোদ্ধারা।

জানুয়ারি ১৫
০৪:১৯ ২০২০

আরও খবর

পত্রিকায় যেমন

বিশেষ সংবাদ

শীঘ্রই শেষ হচ্ছে করোনার প্রকোপ!

শীঘ্রই শেষ হচ্ছে করোনার প্রকোপ!

সানশাইন ডেস্ক : গোটা বিশ্বকে ভালোই ভুগিয়েছে ছোট্ট একটি জীবাণু। বিশ্বের নানা দেশ ও অঞ্চলে আধিপত্য বিস্তার করে এই ভাইরাস এখন অনেকটা সহনীয় হয়ে এসেছে বলে জানিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। তাদের দাবি, এখন ৪০ শতাংশ মানুষ করোনা আক্রান্ত হলেও তাদের কোনো উপসর্গ প্রকাশ পাচ্ছে না। আর এতেই আশার কথা শোনাচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা। এদিকে,

বিস্তারিত




এক নজরে

আমাদের সাথেই থাকুন

চাকরি

সরকারি চাকরিতে আরও বেড়েছে ফাঁকা পদ

সরকারি চাকরিতে আরও বেড়েছে ফাঁকা পদ

সানশাইন ডেস্ক : করোনাভাইরাস মহামারীর মধ্যে সরকারি চাকরির বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ না হওয়ায় বেড়েছে চাকরিপ্রার্থীর সংখ্যা, সঙ্গে ফাঁকা পদের সংখ্যাও বাড়ছে। সরকারি চাকরিতে এখন তিন লাখ ৮৭ হাজার ৩৩৮টি পদ ফাঁকা পড়ে আছে, যা মোট পদের ২১ দশমিক ২৭ শতাংশ। জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন বলছেন, অগাস্ট মাসে কোভিড-১৯ সংক্রমণ কমে আসবে

বিস্তারিত