Daily Sunshine

পাবনায় আ’লীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষে নিহত ১

স্টাফ রিপোর্টার, পাবনা : পাবনা শহরের পৈলানপুরে সিএনজি বাইক স্ট্যান্ডের আধিপত্য বিস্তার নিয়ে আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষে এক যুবক নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে ৪ জন। নিহত যুবকের নাম অরিন (১৮)। আহতদের পাবনা জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। নিহত যুবক পাবনা শহরের পৈলানপুর মহল্লার ভুট্টু প্রামানিকের ছেলে। সে সিএনজি বাইক স্ট্যান্ডের মাস্টার ছিল বলে জানা গেছে। মঙ্গলবার দুপুর ১২টার দিকে শহরের নতুন ব্রিজের মাথায় পৈলানপুরে এই ঘটনা ঘটে।
সংর্ঘের সময় শহরে আতঙ্ক ছড়িয়ে পরে। আশেপাশের দোকানপাট বন্ধ হয়ে যায়। সংঘর্ষ চলাকালে পৈলানপুরে ইয়াকুব আলী স্মৃতি সংঘ ক্লাব, ক্লাবে রক্ষিত বঙ্গবন্ধু ও শেখ হাসিনার ছবি এবং আসবাবপত্র ভাঙচুর করা হয়।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, শহরের নতুন ব্রিজের মাথায় পৈলানপুর মোড়ে অটোবাইক স্ট্যান্ডের দখল নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে স্থানীয় হাজি শরিফ গ্রুপ ও মামুন গ্রুপের মধ্যে বিরোধ চলে আসছিল। তারা দুইজনই আওয়ামী লীগ রাজনীতির সাথে জড়িত। এই স্ট্যাণ্ড থেকে প্রতিদিন হাজার হাজার টাকা চাঁদা তোলা হতো। এরই জের ধরে মঙ্গলবার দুপুর ১২টার দিকে দু’গ্রুপের সমর্থকরা সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। সংঘর্ষে উভয় পক্ষেই দেশীয় অস্ত্র ব্যাবহার করে। হামলায় কমপক্ষে ৫ জন আহত হয়। তাদের পাবনা জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। গুরুতর আহত হয় সিএনজি বাইক স্ট্যান্ডের মাষ্টার অরিন। তার অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। পথিমধ্যে অরিনের মৃত্যু হয়।
পাবনার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার গৌতম কুমার বিশ^াস জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে পুলিশ। এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। ন্থানীয় বিবাদমান দুই গ্রুপের আধিপত্য বিস্তার নিয়ে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে বলে প্রাথমিকভাবে আমরা জানতে পেরেছি।

জানুয়ারি ২৩
০৪:০৩ ২০১৯

আরও খবর