Daily Sunshine

মোড়ে মোড়ে যানজট

স্টাফ রিপোর্টার : যানজট রাজশাহী নগরবাসীর এখন নিত্য দিনের সঙ্গী। আর এই যানজটের জন্য প্রধানত ব্যাটারি চালিত অটোরিকশাই দায়ী। সেই সাথে রয়েছে নগরীর প্রধান সড়কগুলোতে যত্রতত্র বড় বাসের স্টপেজ ও তা দাড়া করিয়ে যাত্রী ওঠানামা করানোর দুর্ভোগ। নগরবাসীর দাবি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ দ্রুত সময়ের মধ্যে এই অযাচিত যানজট দুরিকণের বাস্তব পদক্ষেপ গ্রহণ করবে।
সরেজমিনে নগরীর দড়িখরবোনার মোড়, লক্ষিপুর মোড়, বাস টার্মিনাল মোড়, ভদ্রা মোড়, কোট চত্ত্বর, ভেড়ি পাড়ার মোড়, তালাইমারী মোড়, বিনোদপুর মোড়, কাজলা মোড়, কাটাখালি মোড়, আচত্ত্বর মোড়, আলু পট্টি মোড়, সাহেব বাজার মোড়সহ নগরীর গুরুত্বপূর্ণ মোড়গুলোতে বিক্ষিপ্ত ভাবে অটোরিকশা দাড়া করিয়ে রাখা হচ্ছে। আর এভাবে যাত্রীদের অপেক্ষায় দীর্ঘখন দাড়া করিয়ে রাখা হচ্ছে। মোড়গুলোতে ট্রাফিক পুলিশ থাকলেও এ নিয়ে তাদের কোন ভ্রুক্ষেপ নেই। ফলে দিনের প্রায় প্রতিটি সময়ই এই গুরুত্বপূর্ণ মোড়গুলোতে যানজট লেগেই থাকছে।
এদিকে রাজশাহী থেকে বিভিন্ন জেলার উদ্দেশ্যে ছেড়ে যাওয়া বাসগুলোও নগরীর গুরুত্বপূর্ণ সড়কগুলোর মোড়ে দাড়া করিয়ে যাত্রী ওঠান-নামান করাচ্ছে। ফলে এই সড়কগুলোতে অটোরিকশার পাশাপাশি বাসের কারণেও যানজট লেগেই থাকছে। এদিকে নগরীর গ্রেটার রোড সংলগ্ন রেল ভবনের প্রবেশ মুখের কাছে সবুজ সিএনজিগুলো দিনরাত সড়ক দখল করে রাখা হচ্ছে। এই যানগুলোর কারণে এই সড়কটিতে প্রতিদিন, প্রতিটি মুহুর্ত যানজট থাকে। অথচ এখনেই রয়েছে ট্রাফিক সার্জেন্টদের মনিটরিং কক্ষ।
দড়িখরবোনা এলাকার বাসিন্দা নাজনীন আকতার বলেন, রাজশাহী প্রতিনিয়ত বসবাসের অযোগ্য হয়ে পড়ছে। আর এর কারণ এই ব্যাটারি চালিত অটোরিকশা। কিছুদিন আগে শুনেছিলাম এই অটোগুলো লাল ও সবুজ রং করে পৃথক সড়কে ও দিনে চলাচলের ব্যবস্থা করা হবে। এই খবর আমাদের মাঝে আশার সঞ্চার জাগিয়েছিল। তবে এখন পর্যন্ত এমন কোন কার্যকর পদক্ষেপ চোখে পড়েনি। নগরবাসীর দাবি দ্রুত সময়ের মধ্যে নগরীর যানজট নিয়ন্ত্রনে ব্যবস্থা গহণ করা হোক।

জানুয়ারি ১৫
০৩:২৪ ২০১৯

আরও খবর

পত্রিকায় যেমন

বিশেষ সংবাদ

আলোকিত সিটি পেয়েছেন মহানগরবাসী

আলোকিত সিটি পেয়েছেন মহানগরবাসী

স্টাফ রিপোর্টার : রাজশাহী মহানগরীর শহীদ এ.এইচ.এম কামারুজ্জামান চত্বরে দাঁড়িয়ে আছে মাস্তুল আকৃতির মজবুত দুইটি পোল। প্রতিটি পোলের উপর রিং বসিয়ে তার চতুরদিকে বসানো হয়েছে উচ্চমানের এলইডি লাইট। আর সেই লাইটের আলোয় আলোকিত বিস্তৃত এলাকা। শুধু শহীদ এ.এইচ.এম কামারুজ্জামান চত্বর নয়, এভাবে মহানগরীর আরো গুরুত্বপূর্ণ ১৪টি চত্বর আলোকিত হয় প্রতি

বিস্তারিত




এক নজরে

আমাদের সাথেই থাকুন

চাকরি

সরকারি চাকরি প্রার্থীর বয়সে ছাড়

সরকারি চাকরি প্রার্থীর বয়সে ছাড়

সানশাইন ডেস্ক : করোনা মহামারিতে সাধারণ ছুটিতে স্বাভাবিক জীবনযাত্রার সঙ্গে স্থগিত ছিল সরকারি-বেসরকারি চাকরির নিয়োগ প্রক্রিয়া। এ কয়েক মাসে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি পায়নি দেশের শিক্ষিত বেকার জনগোষ্ঠী। অংশ নিতে পারেনি কোনো নিয়োগ পরীক্ষাতেও। অনেকেরই বয়স পেরিয়ে গেছে ৩০ বছর। স্বাভাবিকভাবেই সরকারি চাকরির আবেদনে সুযোগ শেষ হয়ে যায় তাদের। তবে এ দুর্যোগকালীন

বিস্তারিত