Daily Sunshine

পেঁয়াজ রোপনে ব্যস্ত চাষি

স্টাফ রিপোর্টার: মাটির বুক চিরে হাড়ভাঙ্গা শ্রম দিয়ে প্রাকৃতিক দুর্যোগ মাথায় নিয়ে ফসল উৎপাদন করতে হয় চাষিদের। ফসলের দাম বাড়লে কর্তা ব্যক্তিদের রোষানলে পড়তে হয়। রাজশাহী অঞ্চলে বেশ কিছুদিন থেকে নতুন কন্দ পেঁয়াজ বাজারে এসেছে। রাজশাহীতে ফলনও হয়েছে মোটামুটি। পেঁয়াজের দাম মিলছে না। এতে অবশ্য ক্রেতারা খুশি হলেও কৃষকের মুখে হাসি নেই। ক্ষোভ ও হতাশা প্রকাশ করছে চাষিরা। এরপরও আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় চাষীরা জেলার বিভিন্ন মাঠে পেঁয়াজের চারা রোপনে ব্যস্ত সময় পার করছেন।
রাজশাহী জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর থেকে জানা গেছে, এবারে জেলার বিভিন্ন উপজেলায় ১৪ হাজার ৯শ’ ১০ হেক্টর (১ লাখ ১১ হাজার বিঘা) জমিতে পেঁয়াজের আবাদের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে। এরমধ্যে কন্দ পেঁয়াজ ৫ হাজার ৭৩০ হেক্টর এবং চারা (আল্ বা পোইল) পেঁয়াজ ৯ হাজার ১৮০ হেক্টর।
খুচরা বাজারে প্রতিকেজি কাঁচা পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে ১৮-২০ টাকায়। তবে পাইকারি বাজারে সাড়ে ১২ টাকা কেজি। এই দামে লোকসান গুনছে চাষিরা। অথচ গত বছর এ সময়ে পেঁয়াজের দাম ছিল আকাশ ছোঁয়া।
পেঁয়াজ চাষী হাফিজ সরকার জানান, প্রতি বিঘা পেঁয়াজ রোপনে চাষাবাদসহ উঠা পর্যন্ত প্রায় ২০ হাজার টাকা খরচ হয়। প্রাকৃতিক দুর্যোগ না হলে এবং আবাদ ভাল হলে প্রতি বিঘায় উৎপাদন হবে প্রায় ৫০-৫৫ মণ (প্রতি ৪০ কেজি)।
রাজশাহীসহ বিস্তির্ণ বরেন্দ্রাঞ্চলে বাণিজ্যিকভাবে বাড়ছে পেঁয়াজ চাষ। পেঁয়াজ চাষে এ অঞ্চলের আবহাওয়া টেকসই হওয়ায় কৃষি বিভাগ, কৃষক ও এর সঙ্গে সংশ্লিষ্ট অন্যান্য ব্যক্তিরা এ মৌসুমে পেঁয়াজের বাম্পার ফলন আশা করছেন।
মোহনপুর উপজেলার কালিগ্রাম খাজুরা গ্রামের কৃষক হজের আলী জানান, গতবার তিনি ৩ বিঘা জমিতে পেঁয়াজের আবাদ করেছিলেন। কিছু পেঁয়াজ প্রথমে বিক্রি করে ঠকেছিলেন। তবে অবশিষ্ট পেঁয়াজে তিনি ভাল দাম পেয়েছিলেন। এবারে পেঁয়াজের দাম কম থাকায় তিনি ১ বিঘা জমিতে পেঁয়াজের চারা রোপন করবেন বলে জানান।
এবারে জেলার বিভিন্ন উপজেলায় ১৪ হাজার ৯শ’ ১০ হেক্টর (১ লাখ ১১হাজার বিঘা) জমিতে পেঁয়াজের আবাদের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে। যার মধ্যে মতিহারে ২৫ হেক্টর, বোয়ালিয়ায় ৩০ হেক্টর, পবা উপজেলায় ৯২৫ হেক্টর, মোহনপুর উপজেলায় ৫৩৫ হেক্টর, বাগমারায় ৩ হাজার ৮শ’ হেক্টর, চারঘাটে ৪১০ হেক্টর, পুঠিয়ায় ৩ হাজার ৩৫০ হেক্টর, তানোরে ৪১০ হেক্টর, গোদাগাড়িতে ১ হাজার ৮৭৫ হেক্টর, বাঘায় ৫৮০ হেক্টর ও দুর্গাপুর উপজেলায় ২ হাজার ৯শ’ হেক্টর। এরমধ্যে কন্দ পেঁয়াজ লক্ষ্যমাত্রা ছাড়িয়েছে। আর চারা রোপনে ১৩ জানুয়ারী পর্যন্ত চাষীরা পেঁয়াজ রোপন করেছেন প্রায় ৩ হাজার হেক্টর।
এ ব্যাপারে কৃষি সম্পসারণ বিভাগের উপপরিচালক শামসুল হক জানান, উৎপাদনের বিষয়টা কৃষি বিভাগ দেখভাল করে থাকে। আর দাম বাড়বে না কমবে সেটা নির্ভর করে বাজার ব্যবস্থাপনার ওপরে।

জানুয়ারি ১৪
০২:৫৮ ২০১৯

আরও খবর

পত্রিকায় যেমন

বিশেষ সংবাদ

ডিগ্রী থাকলেও মিলছেনা যোগ্য চাকরি

ডিগ্রী থাকলেও মিলছেনা যোগ্য চাকরি

শাহ্জাদা মিলন: বাংলাদেশের অন্যতম বিভাগীয় শহর রাজশাহী। সিল্কসিটি, আমের রাজধানী হিসেবে পরিচিত সারা দেশে রাজশাহী। তবে এসব পরিচয় ছাপিয়ে রাজশাহী ‘শিক্ষা নগরী’ হিসেবে সবচেয়ে বেশি পরিচিত। অসংখ্য নামিদামি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান রয়েছে এখানে। এর সুফলে রাজশাহীতে বছর বছর বাড়তে ডিগ্রিধারী মানুষের সংখ্যা। তবে সেই অনুপাতে বাড়ছে না কর্মসংস্থান। রাজশাহীতে রয়েছে রাজশাহী

বিস্তারিত




এক নজরে

আমাদের সাথেই থাকুন

চাকরি

সরকারি চাকরি প্রার্থীর বয়সে ছাড়

সরকারি চাকরি প্রার্থীর বয়সে ছাড়

সানশাইন ডেস্ক : করোনা মহামারিতে সাধারণ ছুটিতে স্বাভাবিক জীবনযাত্রার সঙ্গে স্থগিত ছিল সরকারি-বেসরকারি চাকরির নিয়োগ প্রক্রিয়া। এ কয়েক মাসে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি পায়নি দেশের শিক্ষিত বেকার জনগোষ্ঠী। অংশ নিতে পারেনি কোনো নিয়োগ পরীক্ষাতেও। অনেকেরই বয়স পেরিয়ে গেছে ৩০ বছর। স্বাভাবিকভাবেই সরকারি চাকরির আবেদনে সুযোগ শেষ হয়ে যায় তাদের। তবে এ দুর্যোগকালীন

বিস্তারিত