Daily Sunshine

বিএনপি’র প্রতি প্রধানমন্ত্রীর আহবান প্রসঙ্গ

বিএনপির নির্বাচিত সংসদ সদস্যদের সংসদে যোগ দেবার আহবান রেখেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ইতোমধ্যে বিএনপি আনুষ্ঠানিক ভাবে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের ফলাফল প্রত্যাখ্যান করেছে এবং দলটির নির্বাচিত সংসদ সদস্যরা শপথ গ্রহণ করেননি। এই অবস্থায় প্রধানমন্ত্রী গত শুক্রবার আওয়ামী লীগের এক সভায় বিএনপি’র প্রতি এই আহবান রেখেছেন। কথা হচ্ছে যখন বিএনপি এই ফলাফল বাতিল করে নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচনের দাবি করছে, সেখানে দলটি সংসদে যোগ দেবে কিনা সেটাই বড় প্রশ্ন। কেননা সংসদে থাকা না থাকার চেয়েও তাদের বড় কথা তারা রাজনীতি করে তাদের মত করে এবং তাই প্রধানমন্ত্রীর এই আহবান দলটি সাড়া দেবে বলে মনে হয় না। এখন কথা হচ্ছে তা হলে বিএনপি কী করবে। তারা কি নির্বাচন বাতিলের দাবিতে আন্দোলন করবে নাকি ভিন্ন কোন কর্মসূচি নিয়ে জনমত সংগঠিত করবে?
বিএনপি দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নেয়নি। ওই নির্বাচন হয়েছে অনেকটা একতরফা। এতে ১শ ৫৪টি আসনে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয় সংসদ সদস্যরা। আর এবার একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সব দল অংশ গ্রহণ করে। এতে ২৫৯টি আসনে আওয়ামী লীগ জয় পায়। অন্যদিকে বিএনপি পায় ঐক্যফ্রন্টসহ ৮টি আসনে। এছাড়া বিএনপি সমর্থিত একজন স্বতন্ত্র সদস্য জয়ী হয়েছেন। এই অবস্থায় সামনে সংসদের প্রথম অধিবেশ বসতে যাচ্ছে ৩০শে জানুয়ারি। এই অধিবেশনে বিএনপি সংসদ সদস্যরা যাচ্ছেন না এটা বোঝা যাচ্ছে। কেননা নির্বাচিত সদস্যরা এখনো শপথ নেননি এবং দলটির অবস্থানগত কোন পরিবর্তনের আভাস পাওয়া যায়নি।
বিএনপি’র অবস্থান যায় হোক এবং দলটির যত কম সংখ্যক সদস্যই নির্বাচিত হোক না কেন সরকারি দল আওয়ামী লীগ চায় বিএনপি সংসদে আসুক এবং সংসদের কার্যক্রমের অংশ নিক। সেই দৃষ্টিকোন থেকেই দলীয় সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিএনপি’র প্রতি সংসদে আসার এই আহবান রেখেছেন। এখন দেখবার সরকার প্রধানের এই আহবান কি ভাবে গ্রহণ করে বিএনপি। তবে আমরা মনে করি গণতন্ত্র ও দেশের স্থিতিশীলতার জন্যে সবারই ইতিবাচক রাজনীতি করা উচিৎ। আর এ জন্যে অবশ্যই জাতীয় ঐকমত্য দরকার। এখন চাই সেই ঐকমত্য, যা জাতির যে কোন সংকট দূর করতে পারে।

জানুয়ারি ১৪
০২:৪৮ ২০১৯

আরও খবর

পত্রিকায় যেমন

বিশেষ সংবাদ

ডিগ্রী থাকলেও মিলছেনা যোগ্য চাকরি

ডিগ্রী থাকলেও মিলছেনা যোগ্য চাকরি

শাহ্জাদা মিলন: বাংলাদেশের অন্যতম বিভাগীয় শহর রাজশাহী। সিল্কসিটি, আমের রাজধানী হিসেবে পরিচিত সারা দেশে রাজশাহী। তবে এসব পরিচয় ছাপিয়ে রাজশাহী ‘শিক্ষা নগরী’ হিসেবে সবচেয়ে বেশি পরিচিত। অসংখ্য নামিদামি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান রয়েছে এখানে। এর সুফলে রাজশাহীতে বছর বছর বাড়তে ডিগ্রিধারী মানুষের সংখ্যা। তবে সেই অনুপাতে বাড়ছে না কর্মসংস্থান। রাজশাহীতে রয়েছে রাজশাহী

বিস্তারিত




এক নজরে

আমাদের সাথেই থাকুন

চাকরি

সরকারি চাকরি প্রার্থীর বয়সে ছাড়

সরকারি চাকরি প্রার্থীর বয়সে ছাড়

সানশাইন ডেস্ক : করোনা মহামারিতে সাধারণ ছুটিতে স্বাভাবিক জীবনযাত্রার সঙ্গে স্থগিত ছিল সরকারি-বেসরকারি চাকরির নিয়োগ প্রক্রিয়া। এ কয়েক মাসে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি পায়নি দেশের শিক্ষিত বেকার জনগোষ্ঠী। অংশ নিতে পারেনি কোনো নিয়োগ পরীক্ষাতেও। অনেকেরই বয়স পেরিয়ে গেছে ৩০ বছর। স্বাভাবিকভাবেই সরকারি চাকরির আবেদনে সুযোগ শেষ হয়ে যায় তাদের। তবে এ দুর্যোগকালীন

বিস্তারিত