Daily Sunshine

আ’লীগ নেতার কাটা পা উদ্ধার হয়নি, আটক ১

স্টাফ রিপার্টার, নাটোর: নাটোরের সিংড়ার বামিহাল বাজারে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে প্রকাশ্যে দিবালোকে স্থানীয় এক আ’লীগ নেতার পা কেটে নেওয়ার ঘটনায় জড়িত সন্দেহে রফিকুল ইসলাম (৩৫) নামের একজনকে গ্রেফতার করেছে সিংড়া থানা পুলিশ।
বুধবার ভোর রাতে বগুড়ার নন্দীগ্রামের পেংহাজারকী তার নিজ বাড়ি থেকে গ্রেফতার করা হয়। তবে ঘটনার ৪দিন পেরিয়ে গেলেও ওই আ’লীগ নেতার কর্তনকৃত পা উদ্ধার করতে পারিনি পুলিশ।
এদিকে ঘটনার পর থেকে বামিহাল বাজারসহ আশে পাশের এলাকার লোকজনের মধ্যে আতঙ্ক বিরাজ করছে। সিংড়া থানার উপ-পরিদর্শক ও মামলার তদন্তকারী অফিসার ইলিয়াস কবির বলেন, বামিহাল গ্রামের আ’লীগ নেতা মোর্শেদুল ইসলামের পা কেটে নেয়া ঘটনায় জড়িত সন্দেহে সোর্সের দেয়া তথ্য অনুযায়ী রফিকুল ইসলামকে বুধবার ভোর রাতে তার পেংহাজারকী গ্রামের নিজ বাড়ি থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে।
গ্রেফতারকৃত রফিকুল ইসলাম পেংহাজারকী গ্রামের আজাহার আলীর ছেলে। তবে মামলার মূল আসামী প্রতিপক্ষ আফজাল গ্রুপের আফজাল হোসেনসহ অন্যান্য আসামীদেরকে গ্রেফতার করতে সাড়াশি অভিযান পরিচালনা করছে পুলিশ।
গত ৬ জানুয়ারি বাজারে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে সুকাশ ইউনিয়নের বামিহাল বাজারে ১নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মোর্শেদুল ইসলামের বাম পা কেটে নেয় ও অপর পা ভেঙে দেয় প্রতিপক্ষ স্থানীয় আ’লীগ কর্মী আফজাল হোসেন ও তার লোকজন। আহত মোর্শেদুল ইসলামকে প্রথমে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হলে অবস্থার অবনতি হওয়ায় রাতেই তাকে ঢাকার জাতীয় অর্থোপেডিকস ও পূণর্বাসন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

জানুয়ারি ১০
০৩:২৯ ২০১৯

আরও খবর