Daily Sunshine

বাদশাকে সঙ্গে নিয়ে উন্নত রাজশাহী গড়ার অঙ্গিকার লিটনের

স্টাফ রিপোর্টার: ১৪ দল রাজশাহীর সমন্বয়ক, মহানগর আওয়ামী লীগ সভাপতি ও সিটি মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন বলেছেন, সারাদেশের মানুষ নৌকার প্রতি আস্থা রেখেছেন, জননেত্রী শেখ হাসিনাকে আবারো প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত করেছেন। একাদশ জাতীয় নির্বাচনে আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে মহাজোটের নিরঙ্কুশ বিজয় হয়েছে। বিপুল ভোটে নৌকার প্রার্থীরা বিজয় হয়েছেন। রাজশাহী সদর আসনে ফজলে হোসেন বাদশা ভাই বিজয়ী হয়েছেন। এখন আমার রাজশাহীর উন্নয়ন কাজ করা সহজ হবে। আমি ও বাদশা ভাই মিলে উন্নত রাজশাহী গড়বো এবং নির্বাচনী প্রতিশ্রুতিগুলো একে একে বাস্তাবায়ন করবো।
সোমবার সন্ধ্যায় মহানগর আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে এক সভায় সভাপতির বক্তব্যে মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন এসব কথা বলেন। এ সময় তিনি ফজলে হোসেন বাদশাকে এমপি নির্বাচিত করায় ১৪ দল ও মহাজোটের নেতাকর্মী এবং রাজশাহীবাসীকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন।
সভায় রাজশাহী-২ সদর আসনের নবনির্বাচিত সংসদ সদস্য ফজলে হোসেন বাদশা বলেন, নির্বাচনের দিন অনেক অপচেষ্টা ও ষড়যন্ত্র করেছিল জামায়াত-বিএনপি। কিন্তু তাদের কোনো অপচেষ্টা সফল হয়নি। মানুষ উন্নয়নের পক্ষে রায় দিয়েছে। আমি ও লিটন ভাই একসাথে আছি, আগামীতেও একইভাবে দুইভাই একসাথে রাজশাহীর উন্নয়ন করে যাব।
সভায় আরো উপস্থিত ছিলেন মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি অধ্যক্ষ শফিকুর রহমান বাদশা, মুক্তিযোদ্ধা মীর ইকবাল, মোহাম্মদ আলী কামাল, নিঘাত পারভীন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক নাইমুল হুদা রানা, মহানগর ওয়ার্কাস পার্টির সাধারণ সম্পাদক লিয়াকত আলী, সাধারণ সম্পাদক দেবাশীষ কুমার দেবুসহ মহানগর আওয়ামী লীগ, ১৪ দল ও মহাজোটের নেতৃবৃন্দ।
সভার শুরুতে নবনির্বাচিত সাংসদ ফজলে হোসেন বাদশাকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান মহানগর স্বেচ্ছাসেবক লীগ, ২ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ ও মহানগর তাঁতীলীগ। শেষে মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন ও সাংসদ ফজলে হোসেন বাদশা একে অপরকে মিষ্টিমুখ করান। পরে সবার মাঝে মিষ্টি বিতরণ করা হয়।

জানুয়ারি ০১
০৩:৪২ ২০১৯

আরও খবর

পত্রিকায় যেমন

বিশেষ সংবাদ

আলোকিত সিটি পেয়েছেন মহানগরবাসী

আলোকিত সিটি পেয়েছেন মহানগরবাসী

স্টাফ রিপোর্টার : রাজশাহী মহানগরীর শহীদ এ.এইচ.এম কামারুজ্জামান চত্বরে দাঁড়িয়ে আছে মাস্তুল আকৃতির মজবুত দুইটি পোল। প্রতিটি পোলের উপর রিং বসিয়ে তার চতুরদিকে বসানো হয়েছে উচ্চমানের এলইডি লাইট। আর সেই লাইটের আলোয় আলোকিত বিস্তৃত এলাকা। শুধু শহীদ এ.এইচ.এম কামারুজ্জামান চত্বর নয়, এভাবে মহানগরীর আরো গুরুত্বপূর্ণ ১৪টি চত্বর আলোকিত হয় প্রতি

বিস্তারিত




এক নজরে

আমাদের সাথেই থাকুন

চাকরি

সরকারি চাকরি প্রার্থীর বয়সে ছাড়

সরকারি চাকরি প্রার্থীর বয়সে ছাড়

সানশাইন ডেস্ক : করোনা মহামারিতে সাধারণ ছুটিতে স্বাভাবিক জীবনযাত্রার সঙ্গে স্থগিত ছিল সরকারি-বেসরকারি চাকরির নিয়োগ প্রক্রিয়া। এ কয়েক মাসে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি পায়নি দেশের শিক্ষিত বেকার জনগোষ্ঠী। অংশ নিতে পারেনি কোনো নিয়োগ পরীক্ষাতেও। অনেকেরই বয়স পেরিয়ে গেছে ৩০ বছর। স্বাভাবিকভাবেই সরকারি চাকরির আবেদনে সুযোগ শেষ হয়ে যায় তাদের। তবে এ দুর্যোগকালীন

বিস্তারিত