Daily Sunshine

বগুড়া শেরপুরে দুর্নীতির অভিযোগে মির্জাপুর ইউনিয়ন সহকারী ভূমি কর্মকর্তাকে বদলির আদেশ

Share

মিন্টু ইসলাম (শেরপুর বগুড়া) প্রতিনিধি: বগুড়ার শেরপুর উপজেলার মির্জাপুর‌ ইউনিয়ন ভূমি অফিসের সহকারি তহশীলদারের বিরুদ্ধে ২৪ মে ২০২১ তারিখে বিভিন্ন পত্রপত্রিকায় ” ঘুষ দূর্নীতির রসের হাঁড়ি মির্জাপুর ইউনিয়ন ভূমি অফিস” শীর্ষক দুর্নীতির অভিযোগ বিষয়ক সংবাদ প্রকাশের পর অবশেষে বদলি করা হয়েছে সেই কর্মকর্তাকে। জানা যায়, জমি খারিজ সহ প্রয়োজনীয় কাগজ পত্র নিয়ে দিনের পর দিন হয়রানীর সাথে গুনতে হতো ঘুষের টাকা।

 

অভিযুক্ত উপ সহকারী ভুমি কর্মকর্তা মোঃ রাজিবুর রহমান(আপেল)যোগদানের পর থেকেই রাম রাজত্ব চলে আসছিল এ অফিসে। জমি খারিজ ও প্রয়োজনীয় কাগজ নিতে দিনের পর দিন হয়রানীর সাথে রয়েছে এখানে নানা ভোগান্তি। ভুক্তভুগীদের অভিযোগ ৪৫ থেকে ৫০ দিনের মধ্যে জমি খারিজ পাওয়ার বিধান থাকলেও এখানে ৫ থেকে ৬ মাস ধরে নানা অজুহাতে আটকে রাখা হচ্ছে । ফলে রাজস্ব থেকে বঞ্চিত হচ্ছে সরকার অথচ পদেপদে বাড়তি টাকা না দিলে কোন সেবাই মেলেনি মির্জাপুর ইউনিয়ন ভুমি অফিসে। অনুসন্ধানে জানা যায়, গত প্রায় ২ বছর ধরে ইউনিয়নের বাসিন্দাদের কাছ থেকে এভাবেই অবৈধভাবে টাকা নিয়ে জমির খাজনা খারিজ করছেন মির্জাপুর ইউনিয়ন উপ সহকারী ভূমি কর্মকর্তা রাজিবুর রহমান। কেউ টাকা না দিতে চাইলে তাকে শেরপুর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি)’র নাম ভাঙিয়ে টাকা আদায়ের অভিযোগও ছিল এই কর্মকর্তার বিরুদ্ধে। শুধু তাই নয় সহকারী নিয়োগপ্রাপ্ত নয় এমন তিনজন বহিরাগত দিয়েও অফিসের কাজকর্ম এবং অর্থনৈতিক লেনদেন করতেন তিনি।

 

ভুক্তভোগী মাকরকোলা গ্রামের মৃত তছির উদ্দিনের ছেলে গোলাম রব্বানী। তালতা গ্রামের আব্দুল মান্নান মাকেজ, বীর গ্রামের আব্দুর রহিম মাস্টারের ছেলে বকুল, মির্জাপুর দক্ষিনপাড়া গ্রামের মোজাহার আলী শেখের ছেলে আব্দুর রহিম এবং তার ছোট ভাই সুকুমুদ্দিন, মৃত মনসব প্রামানিকের ছেলে খাজেল উদ্দিন প্রামানিক, ঘোলাগাড়ি গ্রামের আলহাজ্ব সিদ্দিক মন্ডলের মেয়ে ছবিলা খাতুন, তালতা গ্রামের ফজলুল হক, জুরান শেখ সহ অসংখ্য সাধারণ খেটে খাওয়া মানুষ এই প্রতিবেদকের কাছে অভিযোগের কথা তুলে ধরলে তা পত্রিকায় প্রকাশ পাওয়ার পর শেরপুর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) সাবরিনা শারমিন, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ময়নুল ইসলাম বিষয়টি খতিয়ে দেখেন এবং পরবর্তী পর্যায়ে সংশ্লিষ্ট দপ্তরের মাধ্যমে তার বদলির আদেশ হয়। এ ব্যাপারে বগুড়া শেরপুর উপজেলার মির্জাপুর ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি গোলাম নবী বাদশা প্রজাতন্ত্রের দূর্নীতিগ্রস্থ কর্মচারী কে অপসারণ করার জন্য সহকারী কমিশনার ভূমি এবং উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ময়নুল ইসলাম কে অভিনন্দন জানিয়েছেন।

আগস্ট ০২
২০:৩৩ ২০২১

আরও খবর

[TheChamp-FB-Comments]