Daily Sunshine

বাঘায় গলায় ফাঁস দিয়ে স্কুল ছাত্রীর আত্নহত্যা

Share

স্টাফ রিপোর্টার,বাঘা : রাজশাহীর বাঘায় সেতু খাতুন নামে অষ্টম শ্রেনী পড়া এক স্কুল ছাত্রী ঘরের তীরের সাথে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্নহত্যা করে জীবনের জ্বালা মিটিয়েছে। শনিবার(২৪-জুলাই)রাতে উপজেলার বলোরামপুর গ্রামে এই মৃত্যুর ঘটনা ঘটে। তবে রবিবার সকালে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত মৃত্যুর কারণ জানা যায়নি।

শনিবার রাত ৯ টায় খবর পেয়ে বাঘা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে গিয়ে দেখা যায়, সেতু খাতুনের নিথর দেহ পড়ে রয়েছে স্বাস্থ্য কেন্দ্রের জরুরী বিভাগে রাখা একটি শয্যায়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা: নিবেদিতা চ্যাটার্জি জানান, সেতুকে স্বাস্থ্য কেন্দ্রে আনার পূর্বে সে মারা গেছে।

এ সময় তার খালা জলিবেগম(২৮) এবং মামি পিংকী বেগম(৩০) এ প্রতিবেদককে জানান, সেতুর মৃত্যুর কারণ সম্পর্কে তারা কিছু জানেন না। তবে তার নানা নুর ইসলাম (৫৫) ঘটনার পর থেকে অসুস্থ হয়ে পড়েছেন। সে পাশ্ববর্তী কেশবপুর স্কুলে অষ্টম শ্রেনীতে পড়া লেখা করতো বলেও উল্লেখ করেন তারা।

এদিকে স্থানীয় লোকজন জানান, খুব ছোটবেলায় সেতুর মাকে ছেড়ে তার বাবা মোফাজ্জল হোসেন অন্যত্র বিয়ে করেন । সে বাবার এক মাত্র কন্যা ছিলো। এরপর থেকে সেতু তার মাকে সাথে করে নানার বাড়িতে বড় হচ্ছিল। গত তিন বছর আগে তার মা’ নুরজাহার বেগম পাবনা এলাকার এক ব্যক্তিকে বিয়ে করে বর্তমানে ঢাকায় অবস্থান করছেন। নানা কারনে সে মানসিক ভাবে বিপর্যস্ত ছিল।

বাঘা থানা অফিসার ইনচার্জ(ওসি) নজরুল ইসলাম জানান,এ ঘটনায় রাতে একটি ইউডি মামলা নিয়ে রবিবার সকালে লাশ পোস্ট মর্টামের জন্য রামেক হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

জুলাই ২৫
১০:১১ ২০২১

আরও খবর

[TheChamp-FB-Comments]

সর্বশেষ