Daily Sunshine

বাগমারায় ধর্ষনের অভিযোগে যুবক গ্রেফতার

Share

স্টাফ রিপোর্টার, বাগমারা : রাজশাহীর বাগমারা উপজেলার মাড়িয়া ইউনিয়নের কামারবাড়ি গ্রামের জহুরুল ইসলাম (২৪) নামের এক যুবক কে ধর্ষনের অভিযোগে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার (৬আগষ্ট) ভোরে অভিযান চালিয়ে হামিরকুৎসা ইউনিয়নের রাঁয়াপুর গ্রামের জনৈক ব্যাক্তির বাড়ি থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। ভিকটিম কে শারীরিক পরিক্ষার জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে (ওসিসি) পাঠানো হয়েছে বলে পুলিশ জানায়।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার মাড়িয়া ইউনিয়নের কামারবাড়ি গ্রামের খোয়াজ উদ্দিনের ছেলে জহুরুল ইসলাম যোগীপাড়া ইউনিয়নের এক নারীকে বিয়ের প্রলোভন দিয়ে প্রায় চার বছর থেকে স্বামী-স্ত্রী পরিচয় দিয়ে ঢাকার সাভার এলাকায় বাসা ভাড়া নিয়ে বসবাস করতো। তারা দুজনেই পোষাক কারখানায় চাকরী করতো। ওই নারী জহুরুল ইসলাম কে বিয়ের কথা বললে নানা অযুহাতে সে সময় ক্ষেপন করতো। এক পর্যায়ে গত বুধবার ভিকটিম রাঁয়াপুর গ্রামে তার আত্বীয়ের বাড়িতে বেড়াতে আসে। খবর পেয়ে জহুরুল ইসলাম সেখানে এসে তাকে ধর্ষন করে। এরপর তাকে বিয়ের কথা বললে আবারো কৌশলে সে এড়িয়ে গিয়ে পালিয়ে যাবার চেষ্টা করে। কৌশলে তাকে আটকিয়ে রেখে রাতেই ভিকটিম ধর্ষনের অভিযোগ এনে একটি মামলা দায়ের করেন। যোগিপাড়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ ইন্সপেক্টর তৌহিদুর রহমান সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে অভিযুক্ত জহুরুল ইসলাম কে গ্রেফতার করেন।

যোগাযোগ করা হলে যোগিপাড়া পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ ইন্সপেক্টর তৌহিদুর রহমান জানান, ধর্ষনের অভিযোগ জহুরুল ইসলাম নামের যুবক কে গ্রেফতার করা হয়েছে। অপরদিকে ভিকটিম কে শারীরিক পরীক্ষার জন্য ওসিসি তে পাঠানো হয়েছে।

সানশাইন/০৬ আগস্ট/এমওআর

আগস্ট ০৬
২০:২১ ২০২০

আরও খবর

পত্রিকায় যেমন

বিশেষ সংবাদ

আঁকাআঁকি থেকেই তন্বীর ‘রংরাজত্ব’

আঁকাআঁকি থেকেই তন্বীর ‘রংরাজত্ব’

আসাদুজ্জামান নূর : ছোটবেলা থেকেই আঁকাআঁকির প্রতি নেশা ছিল জুবাইদা খাতুন তন্বীর। ক্লাসের ফাঁকে, মন খারাপ থাকলে বা বোরিং লাগলে ছবি আঁকতেন তিনি। কারও ঘরের ওয়ালমেট, পরনের বাহারি পোশাক ইত্যাদি দেখেই এঁকে ফেলতেন হুবহু। এই আঁকাআঁকির প্রতিভাকে কাজে লাগিয়েই হয়েছেন ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা। তুলির খোঁচায় পরিধেয় পোশাকে বাহারি নকশা, ছবি, ফুল

বিস্তারিত




এক নজরে

আমাদের সাথেই থাকুন

চাকরি

জোরালো হচ্ছে সরকারি চাকরিতে ‘বয়সসীমা’ বাড়ানোর দাবি

জোরালো হচ্ছে সরকারি চাকরিতে ‘বয়সসীমা’ বাড়ানোর দাবি

সানশাইন ডেস্ক : সর্বশেষ ১৯৯১ সালে সরকারি চাকরিতে প্রবেশের বয়সসীমা বাড়ানো হয়। এরপর অবসরের বয়স বাড়ানো হলেও প্রবেশের বয়স আর বাড়েনি। বেকারত্ব বেড়ে যাওয়া, সেশনজট, নিয়োগের ক্ষেত্রে দীর্ঘসূত্রতা, অন্যান্য দেশের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে চাকরিতে প্রবেশের সর্বোচ্চ বয়স বাড়ানোর দাবিতে আন্দোলন করে আসছেন শিক্ষার্থী ও চাকরিপ্রার্থীরা। তবে এ বিষয়ে উদ্যোগ নেয়নি

বিস্তারিত