বাঘায় ব্যালট পেপারসহ আটক তিন, চারঘাটে সংঘর্ষ

স্টাফ রিপোর্টার,বাঘা : আজ (বুধবার) চতুর্থ ধাপে রাজশাহীর দু’টি উপজেলা চারঘাট-বাঘায় অনুষ্ঠিত হচ্ছে উপজেলা পরিষদ নির্বাচন। নির্বাচনে ভোট গ্রহন চলা অবস্থায় বাঘা উপজেলার ফাজিল মাদ্রাসা কেন্দ্রে ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী আব্দুল মোকাদ্দেস এর ছেলে ও তার বন্ধুকে ব্যালেট পেপারসহ আটক করেছে পুলিশ। পরে তাদের স্বীকারুক্তিতে আরো একজনকে কেন্দ্রের বাইরে থেকে আটক করা হয়। অপর দিকে চারঘাটের দু’টি কেন্দ্রে চেয়ারম্যান প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে হাতা-হাতির ঘটনা ঘটেছে।

দুপুরে বাঘা উপজেলা সদরে অবস্থিত বাঘা ফাজিল মাদ্রাসা কেন্দ্রে ভোট দিয়ে ব্যালট পেপার বাইরে নিয়ে আসায় ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী আব্দুল মোকাদ্দেস (টিয়া) প্রতিক এর ছেলে চয়ন ও তার বন্ধু রাসেলকে বাঘা ফাজিল মাদ্রাসা কেন্দ্রে থেকে আটক করেছে করেছে পুলিশ।

স্থানীয় লোকজন জানান, এই কেন্দ্রে ভোট কেনা-বেচা হয়েছে। এ কারনে প্রমান স্বরুপ নির্ধারিত প্রতিকে ভোট দেওয়ার পর প্রার্থীর ছেলে ও তার বন্ধুর কাছে প্রমান হিসাবে ব্যালেট জমা দেয় দু’জন ভোটার। খবর পেয়ে পুলিশ ব্যালেটসহ তাদের আটক করে। এরপর আটককৃত দু’জনের স্বীকারুক্তি পেয়ে পরে হাসান নামে অপর একজনকেও আটক করে পুলিশ।

এদিকে, বিচ্ছিন্ন কিছু ঘটনার মধ্য দিয়ে ভোট গ্রহণ শেষ হয়েছে। সকাল থেকে কেন্দ্র গুলোতে ভোটার উপস্থিতি কম লক্ষ করা গেলেও শেষ বেলায় ভোটার উপস্থিতি অনেকটায় বাড়তে থাকে। এরমধ্যে চারঘাট উপজেলার মোক্তারপুর ও চারঘাট পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় ভোট কেন্দ্রে চেয়ারম্যান প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সকাল সাড়ে ১০টার দিকে আনারস প্রতীকের প্রার্থী ফকরুল ইসলাম এবং ঘোড়া প্রতীকের প্রার্থী গোলাম কিবরিয়া বিপ্লবের সমর্থকদের মধ্যে হাতাহাতি ঘটনা ঘটে। পরে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা লাঠিচার্জ করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। তবে চারঘাট পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রের প্রিজাইডিং অফিসার আনোয়ারুল হক জানান, ভোট কেন্দ্রের ভিতরে কোন বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হয়নি। যা কিছু ঘটেছে সবই কেন্দ্রের বাইরে ।

বাঘা থানা অফিসার ইনচার্জ(ওসি) আমিনুল ইসলাম জানান, আটককৃত তিনজনের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

 

সান


প্রকাশিত: জুন ৫, ২০২৪ | সময়: ৫:১০ অপরাহ্ণ | Daily Sunshine