সর্বশেষ সংবাদ :

পরীক্ষা কেন্দ্রে প্রবেশে বাধা: দুর্গাপুরে পুলিশ কনস্টেবলকে ছুরিকাঘাত, যুবক আটক

স্টাফ রিপোর্টার, দুর্গাপুর : পরীক্ষা কেন্দ্রে প্রবেশে বাধা দেয়ায় রাজশাহীর দুর্গাপুর থানার সামনে ফিরোজ আহম্মদ (৩৮) নামের এক পুলিশ কনস্টেবলকে ছুরিকাঘাত করে গুরুতর জখম করেছে এক যুবক। ঘটনার পর ওই যুবককে আটক করেছে পুলিশ।
রবিবার বেলা পৌনে ২ টার দিকে এ ঘটনা ঘটেছে। দুর্গাপুর থানার উপপরিদর্শক আব্দুর রাজ্জাক বিষয়টি নিশ্চিত করেন। আহত পুলিশ কনস্টেবল ফিরোজ আহম্মদ দুর্গাপুর থানায় কর্মরত। তার গ্রামের বাড়ি সিরাজগঞ্জ জেলায়।
ঘটনার পর ধাওয়া করে পৌর সদরের সিংগা বাজার থেকে অভিযুক্ত যুবক সেলিম রেজাকে (২৫) আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে স্থানীয়রা। সেলিম রেজা উপজেলার হোজা গ্রামের আনসার আলীর ছেলে।
প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, পুলিশ সদস্য ফিরোজ আহম্মদ মোটরসাইকেল যোগে পুলিশের পোশাক পরিহিত অবস্থায় থানা থেকে বের হয়ে বাসায় যাচ্ছিলেন। থানা মোড়ের সামনে যেতেই ওই যুবক দৌড়ে গিয়ে তার বুকের ডান পাশে ছুরিকাঘাত করে। পুলিশ কনস্টেবল ফিরোজ মোটরসাইকেল নিয়ে দ্রুত গতিতে যাওয়ার চেষ্টা করলেও কিছু দূর যেতেই তিনি পড়েন যান। পরে পথচারী ও থানা পুলিশের সহযোগিতায় তাকে উদ্ধার করে প্রথমে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হয়।
দুর্গাপুর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক ডা. তামান্না খানম বলেন, পুলিশ কনস্টেবল ফিরোজের বুকের ডান পাশে ছুরিকাঘাত করা হয়েছে। অনেকটাই জখম হয়েছেন তিনি। প্রচুর রক্তক্ষরণের কারনে শারিরীক অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।
একটি সূত্র জানায়, দুর্গাপুর মডেল পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের এসএসসি পরীক্ষা চলাকালীন কেন্দ্রে প্রবেশে বাধা দেয়ায় ওই যুবক ক্ষিপ্ত হয়ে ছুরিকাঘাতের ঘটনা ঘটিয়েছে। পরীক্ষা শুরুর আগে আটককৃত যুবক সেলিম রেজা কেন্দ্রে প্রবেশের চেষ্টা করে। এ সময় বাধা দেন দায়িত্বে নিয়োজিত পুলিশ কনস্টেবল ফিরোজ আহম্মদ। এরপর দোকান থেকে নতুন ছুরি কিনে পুলিশ কনস্টেবল ফিরোজকে অনুসরণ করতে থাকেন। ডিউটি শেষ করে থানায় হাজিরা দিয়ে বাসার ফেরার পথে ছুরিকাঘাতের ঘটনা ঘটায় ওই যুবক।


প্রকাশিত: ফেব্রুয়ারি ২৭, ২০২৪ | সময়: ৬:২৪ পূর্বাহ্ণ | সুমন শেখ

আরও খবর