সর্বশেষ সংবাদ :

মাসসেরা বাংলাদেশের ‘প্রথম’ নারী ক্রিকেটার নাহিদা

স্পোর্টস ডেস্ক: ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিলের (আইসিসি) মাসসেরা নারী ক্রিকেটারের তালিকায় মনোনয়ন পেয়েছিলেন বাংলাদেশের দুইজন। পাকিস্তানের বিপক্ষে দারুণ পারফরম্যান্স করে নাহিদা আক্তার ও ফারজানা হক পিংকি নভেম্বরের সেরার দৌড়ে ছিলেন। তৃতীয়জন ছিলেন পাকিস্তানের সাদিয়া ইকবাল। দুজনকে পেছনে ফেলে নভেম্বর মাসের সেরা ক্রিকেটার হয়েছেন বামহাতি স্পিনার নাহিদা আক্তার।
সেরা হয়ে ইতিহাস গড়েছেন নাহিদা। বাংলাদেশের প্রথম নারী ক্রিকেটার হিসেবে তিনি অ্যাওয়ার্ডটি পেয়েছেন। স্বদেশী ফারজানা হক ও পাকিস্তানি স্পিনার সাদিয়া ইকবালকে হারিয়ে অ্যাওয়ার্ডটি জেতায় রোমাঞ্চ বোধ করছেন নাহিদা।
অক্টোবর-নভেম্বরে বাংলাদেশ সফরে এসেছিল পাকিস্তান। তিনটি করে টি-টোয়েন্টি ও ওয়ানডের সিরিজ খেলেছিল দুই দল। দুটোতেই ২-১ ব্যবধানে সিরিজ জেতে বাংলাদেশ। ওয়ানডে সিরিজে জয়ের পেছনে বড় অবদান দুই ক্রিকেটার নাহিদা ও ফারজানার। সিরিজ নির্ধারণী তৃতীয় ওয়ানডেতে বাংলাদেশের ৭ উইকেটের জয়ে ম্যাচসেরা হন ফারজানা। করেন ১১৩ বলে ৬২ রান। নভেম্বরে তিন ওয়ানডে খেলে ৩৬.৬৭ গড় ও ৪৬.৬৩ স্ট্রাইক রেটে তিনি করেন ১১০ রান, যা নভেম্বরে ওয়ানডেতে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ রান। নাহিদা সর্বোচ্চ ৭ উইকেট নিয়ে ওয়ানডের সিরিজ সেরা হয়েছিলেন। নভেম্বরে ওয়ানডেতে সর্বোচ্চ উইকেট তার। শেষ ওয়ানডেতে ২৬ রানে ৩ উইকেট নিয়েছিলেন এই স্পিনার।
এদিকে, ছেলেদের বিভাগে নভেম্বর মাসের সেরা বিবেচিত হয়েছেন অস্ট্রেলিয়ার বিশ্বকাপ জয়ী তারকা ট্রাভিস হেড। পুরো মাস জুড়েই আলো ছড়িয়েছেন তিনি। মাসসেরা হতে তিনি পেছনে ফেলেছেন স্বদেশি গ্লেন ম্যাক্সওয়েল ও ভারতের পেসার মোহাম্মদ শামিকে। হেড নভেম্বর মাসে ব্যাট হাতে ২২০ রান করেছেন। তাতে একটি সেঞ্চুরির পাশাপাশি ছিল একটি হাফসেঞ্চুরি। হেডও প্রথমবারের মতো এই অ্যাওয়ার্ডটি জিতেছেন।
আইসিসির ভোটিং একাডেমি ও ক্রিকেট সমর্থকদের যৌথ ভোটে নির্বাচন করা হয় মাসের সেরা। আইসিসির বিশেষজ্ঞ প্যানেলের ৯০ শতাংশ এবং সমর্থকদের ভোটের ১০ শতাংশ বিবেচনায় এনে ঘোষণা করা হয় চূড়ান্ত ফলাফল।


প্রকাশিত: ডিসেম্বর ১২, ২০২৩ | সময়: ৫:৪০ পূর্বাহ্ণ | সুমন শেখ