আজ থেকে মেট্রোরেলে চড়তে পারবেন সাধারণ যাত্রীরা

সানশাইন ডেস্ক: দীর্ঘ প্রতীক্ষার পর উদ্বোধন করা হলো বহুল আকাঙ্ক্ষিত স্বপ্নের মেট্রোরেল। এর মাধ্যমে নতুন যুগের সূচনা হয়েছে তীব্র যানজটের শহর ঢাকার গণপরিবহণ-ব্যবস্থায়।
বুধবার বেলা ১১টার দিকে উত্তরা ১৫ নম্বর সেক্টরের সি-১ ব্লকের খেলার মাঠে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ফলক উন্মোচন করে মেট্রোরেলের উদ্বোধন করেন। এদিকে আনুষ্ঠানিকভাবে আজ উদ্বোধন হলেও স্বপ্নের মেট্রোরেলে চড়তে যাত্রীদের অপেক্ষা করতে হবে বৃহস্পতিবার (২৯ ডিসেম্বর) সকাল ৮টা পর্যন্ত। কাল থেকে মেট্রোরেলে যাত্রী পরিবহন চলবে সীমিত পরিসরে। আগামী ২৬ মার্চ স্বাধীনতা দিবসের দিন থেকে চলবে পুরোদমে।
প্রাথমিকভাবে উত্তরা থেকে আগারগাঁও পর্যন্ত ছয়টি বগি বিশিষ্ট ১০ সেট ট্রেন চলাচল করবে। আপাতত এই রুটে ধীরগতিতে ট্রেন চলবে। এই পর্যায়ে সকাল ৮টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত ট্রেন চলবে, পরে চলাচলের সময় বাড়ানো হবে এবং চাহিদা অনুযায়ী ট্রেনের সংখ্যা বাড়ানো হবে।
পূর্ণ গতিতে ট্রেন চলাচল শুরু হলে প্রতি সাড়ে তিন মিনিট অন্তর একটি ট্রেন চলবে। প্রতিটি স্টেশনে, যাত্রীদের ওঠা ও নামা সম্পূর্ণ না হওয়া পর্যন্ত ট্রেনটি অপেক্ষা করবে। প্রতিটি ট্রেন ২ হাজার ৩০০ জন যাত্রী নিয়ে ঘণ্টায় ১০০ থেকে ১১০ কিলোমিটার গতিতে চলতে পারে। তবে বাঁকযুক্ত এলাকায় গতি কম হবে।
উত্তরা থেকে মতিঝিল-কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশন পর্যন্ত ২১ দশমিক ২৬ কিলোমিটারের পুরো রুটটি ৪০ মিনিটেরও কম সময়ে ভ্রমণ করে মেট্রোরেল প্রতি ঘণ্টায় ৬০ হাজার যাত্রী বহন করবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।


প্রকাশিত: ডিসেম্বর ২৯, ২০২২ | সময়: ৬:২৮ পূর্বাহ্ণ | সুমন শেখ