সর্বশেষ সংবাদ :

চাঁপাইনবাবগঞ্জে ৪৭ গীর্জায় বড়দিন উদযাপন

চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রতিনিধিঃ

খ্রিস্টান সম্প্রদায়ের লোকেরা নানা উৎসাহ-উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে ধর্মীয় উৎসব ‘বড়দিন’ উদযাপন করেছেন। খ্রিস্টানদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব বড়দিন প্রতি বছর ২৫ ডিসেম্বর সারা বিশ্বে যীশু খ্রিস্টের জন্মকে স্মরণ করে উদযাপিত হয়।

 

প্রতি বছরের মোতই এবারও চাঁপাইনবাবগঞ্জে ৪৭টি গীর্জায় বড়দিন উদযাপন করছেন খ্রিস্ট ধর্মানুসারীরা। রোববার সকালে চাঁপাইনবাবগঞ্জ সদরে ১১টি, গোমস্তাপুরে ৫টি ও নাচোলে ৩১টি গীর্জায় যথাযথ ভাবে ধর্মীয় আচার, আনন্দ উৎসব ও প্রার্থনার মধ্য দিয়ে বড় দিনের আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়। দেশ ও জাতিরর মঙ্গল কামনা করেন ভক্তরা।

 

এদিকে বড়দিনের উৎসব সামনে রেখে গির্জা ও এর আশেপাশের খ্রিস্টান পল্লীগুলোতে নেয়া হয়েছে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর বিশেষ নিরাপত্তা ব্যবস্থা। বড়দিন উদযাপনের মধ্য দিয়ে ইংরেজি নতুন বর্ষ বরণের প্রস্তুতি ও নিচ্ছেন খ্রীস্ট ধর্মাবলম্বীরা। নতুন বছর সবার জন্য মঙ্গল বয়ে আনবে এমনটাই প্রত্যাশা তাদের। ইশ্বরের মহিমা প্রচার এবং মানব জাতিকে সত্য ও ন্যায়ের পথে আনতে যিশুর এ ধরায় আজকের দিনে তার আগমন ঘটেছিল এমনই বিশ্বাস খ্রিস্টান ধর্মাবলম্বীদের। গোশালা স্থাপন এবং রঙিন কাগজ, ফুল ও আলোর বিন্দু দিয়ে দৃষ্টিনন্দনভাবে সাজানো হয় ক্রিসমাস ট্রি।

 

 

চাঁপাইনবাবগঞ্জ শহরের সিসিডিবি মোড়স্থ গীর্জার ফাদার পালক সুনিল হাজদা জেলাবাসীকে বড়দিনের শুভেচ্ছা জানিয়ে বলেন, ‘ খ্রিস্টান ধর্মের প্রবর্তক মহামতি যিশুখ্রিস্ট ছিলেন মুক্তির দূত, আলোর দিশারী। পৃথিবীতে শান্তির আবাস ভূমিতে পরিণত করতে তিনি খ্রিস্ট ধর্মের সুমহান বাণী প্রচার করেছিলেন। তিনি আরো বলেন, ‘রঙিন বাতি দিয়ে ক্রিসমাস ট্রি সাজানো, বিশেষ প্রার্থনা, শিশুদের মাঝে উপহার বিতরণ এবং স্বজনদের সঙ্গে সাক্ষাৎ এ উৎসবের মূল অনুষঙ্গ। গির্জায় প্রার্থনা ও পর গাওয়া হয় বড়দিনের বিশেষ গান ও বন্দনা সঙ্গীত’।

 

 

 

 

সানশাইন/টিএ

 

 


প্রকাশিত: ডিসেম্বর ২৫, ২০২২ | সময়: ৮:৫২ অপরাহ্ণ | Daily Sunshine

আরও খবর