নগরীতে প্রতিপক্ষের ধারালো অস্ত্রের হামলায় যুবক গুরুতর আহত

স্টাফ রিপোর্টার: নগরীতে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে প্রতিপক্ষের হামলায় সোনারুল ইসলাম (৩০) নামে এক যুবক গুরুতর আহত হয়েছেন। আহত সোনারুল ইসলাম কাশিয়াডাঙা থানার গোলজারবাগ এলাকার মুনসুর আলীর ছেলে। মঙ্গলবার (২৫ অক্টোবর) দিবাগত রাতে উত্তর গুড়িপাড়া বাইতুল মামুর মসজিদের সামনে এ ঘটনা ঘটে। আহতের ছোট ভাই মনিরুল ইসলাম বাদি হয়ে কাশিয়াডাঙ্গা থানায় বুধবার ৮ জনকে আসামী করে মামলা করেছেন।
হামলাকারীরা হলো, উত্তর গুড়িপাড়া এলাকার মাসুদের ছেলে আরিফ (৩৮) ও রমজান (২২)। পূর্ব রায়পাড়া এলাকার আবুল খায়েরের ছেলে আলামিন ইসলাম ওরফে বকুল মিয়া (৩৫), উত্তর গুড়িপাড়া এলাকার আরিফ হোসেনের ছেলে আবির (২০), সিরাজের ছেলে সোহান (১৯), মাসুদের স্ত্রী শিল্পী বেগম (৪০), মৃত আবু তালেবের ছেলে আবুল খায়ের (৬০) ও মাসুদ (৫০)।
মামলার এজাহার থেকে জানা যায়, আহত সোনারুল শালবাগানে একটি ফলের দোকানে কাজ করেন। মঙ্গলবার (২৫ অক্টোবর) রাত ৯টা ১৫ মিনিটের দিকে সোনারুল ইসলাম নগরীর কাশিয়াডাঙা থানার উত্তর গুড়িপাড়া বাইতুল মামুর মসজিদের প্রবেশ গেটের সামনে আসলে হামলাকারিরা পথরোধ করে দাঁড়ায়। এসময় সোনারুল পথরোধ করার কারণ জানতে চাইলে হামলাকারিরা দেশিয় ধারালো অস্ত্র দিয়ে হামলা চালায়। এতে তিনি গুরুতর আহত হয়। এসময় প্রাণ বাঁচাতে সোনারুল ইসলাম চিৎকার করলে হামলাকারীরা পালিয়ে যায়। স্থানীয় লোকজন আহত সোনারুলকে উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে পাঠায়।


প্রকাশিত: অক্টোবর ২৭, ২০২২ | সময়: ৬:২২ পূর্বাহ্ণ | সুমন শেখ

আরও খবর