সর্বশেষ সংবাদ :

রাবির উর্দু বিভাগে ফল বিপর্যয়: শিক্ষার্থীদের আমরণ অনশনের হুশিয়ারী

লাবু হক, রাবি: আগামী দুই সপ্তাহের মধ্যে ফল বিপর্যয়ের সমাধান না করা হলে আমরণ অনশনের হুশিয়ারী দিয়েছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) উর্দু বিভাগের শিক্ষার্থীরা। এছাড়া দাবি পূরণ না হওয়া পর্যন্ত বিভাগে তালা লাগিয়ে আন্দোলন চালিয়ে যাবেন তারা। রোববার দুপুর দেড়টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের সৈয়দ ইসমাইল হোসেন সিরাজী ভবনে অবস্থিত উর্দু বিভাগের সামনে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ সিদ্ধান্তের কথা জানায় তারা।
সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে বায়েজিদ হোসেন নামের এক শিক্ষার্থী বলেন, গত ১৩ এপ্রিল আমাদের প্রথম বর্ষের দ্বিতীয় সেমিস্টার পরীক্ষা শুরু হয়ে ২১ এপ্রিল শেষ হয়। দীর্ঘ ৪ মাস বিভিন্ন অবহেলার পরে গত ২৫ আগস্ট আমাদের ফলাফল প্রকাশ করা হয়। ফলাফলে বিভিন্ন অনিয়ম ও অসঙ্গতি দেখা যায়। উর্দু বিভাগের ইতিহাসে এমন বিপর্যয় আর কখনও দেখা যায় নি। আমরা এই অসঙ্গতিপূর্ন প্রহসনের ফলাফল মানি না।
তিনি বলেন, গত ২৫ আগস্টে আমরা বিভাগে তালা ঝুলিয়ে বিভাগের সকল কার্যক্রম বন্ধ করে দেই। ফলে প্রশাসন থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র উপদেষ্টা এসে আমাদের সমস্যাগুলো শোনেন। ফলাফলের অসঙ্গতি নিয়ে আমাদের সাথে বসার কথা বলেন এবং এর সমাধান করার কথা বলেন। আমরা আমাদের ফলাফল পুনর্মূল্যায়নের দাবি সহ বিভাগের সকল অন্যায়, অনিয়ম, অসঙ্গতি প্রশাসনকে অবগত করি।
সংশ্লিষ্ট শিক্ষকদের বিচারের দাবি জানিয়ে তিনি বলেন, বিভাগের কতিপয় শিক্ষকবৃন্দ আমাদের শিক্ষার্থীদের যেভাবে প্রতিনিয়ত মানসিক হয়রানি করে আসছিল আমরা এর সুষ্ঠ বিচারের দাবি জানাই। আমরা আমাদের এই প্রহসনের ফলাফলের পুনঃমূল্যায়নসহ বিভাগের সকল অন্যায় অসঙ্গতি থেকে মুক্তি চাই। সকল মানসিক হয়রানি থেকে মুক্তিসহ এর পিছনে যে সকল কতিপয় শিক্ষকমন্ডলীর হাত রয়েছে, সুষ্ঠ তদন্তের মাধ্যমে তাদের স্থায়ীভাবে বহিষ্কারসহ শাস্তির দাবি জানাই।
তিনি আরও বলেন, আমরা দুপুরে উপাচার্য স্যারের সাথে কথা বলেছি, তিনি আমাদের সকল সমস্যা শুনে দুই সপ্তাহ সময় নিয়েছেন। আমাদের দাবি পূরন না হওয়া পর্যন্ত বিভাগে তালা লাগিয়ে আমরা আমাদের যৌক্তিক আন্দোলন চালিয়ে যাবো। আমরা বিভাগের সকল বর্ষের শিক্ষার্থীরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি, এর সমাধান না হওয়া পর্যন্ত বিভাগের সকল ক্লাস, পরীক্ষা এবং কার্যক্রম বন্ধ রাখবো। তাই উর্দু বিভাগের সকল ক্লাস, পরীক্ষা এবং সকল কার্যক্রম অনির্দিষ্ট কালের জন্য বন্ধ ঘোষনা করছি। দুই সপ্তাহের মধ্যে প্রশাসন আমাদের বিষয়গুলো সমাধান না করলে আমরা আমরণ অনশনে যাবো।
সার্বিক বিষয়ে উর্দু বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক আতাউর রহমান বলেন, শিক্ষার্থীরা আমাকে এবং আমার মাধ্যমে বিশ্ববিদ্যালয় উপাচার্যকে পাঠানোর জন্য একটা অভিযোগপত্র লিখে দিয়েছে। আমি সেটা উপাচার্যকে পাঠিয়ে দিয়েছি। আমরা এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের নিজস্ব আইন-কানুন অনুযায়ী ব্যবস্থা গ্রহণ করব।
এর আগে, গত বৃহস্পতিবার দুপুরে উর্দু বিভাগের ২০১৯-২০ সেশনের দ্বিতীয় সেমিস্টারের ফল বিপর্যয়ের ঘটনায় ক্ষিপ্ত হয়ে প্রকাশিত ফলাফল পুনর্মূল্যায়নের দাবিতে বিভাগের সভাপতির কক্ষে তালা লাগিয়ে দেয় শিক্ষার্থীরা। পরে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন ২৮ আগস্ট সমস্যাটি সমাধানের আশ্বাস দিলে শিক্ষার্থীরা আন্দোলন স্থগিত করেন।


প্রকাশিত: আগস্ট ২৯, ২০২২ | সময়: ৫:৫৭ পূর্বাহ্ণ | সুমন শেখ