সর্বশেষ সংবাদ :

সরকারি নিয়োগ ও পদোন্নতি সংশ্লিষ্ট কাজে সম্মানি বেড়েছে ৫০%

ঢাকা অফিস: সরকারি নিয়োগ ও পদোন্নতি সংক্রান্ত বিভিন্ন কাজে সংশ্লিষ্টদের সম্মানি প্রায় ৫০% বাড়িয়েছে অর্থ মন্ত্রণালয়। মঙ্গলবার (১৫ ফেব্রুয়ারি) মন্ত্রণালয় থেকে জারি করা এক প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, নিয়োগ ও পদোন্নতির পরীক্ষায় প্রশ্নপত্র প্রণয়ন, পরীক্ষা নেওয়া ও খাতা মূল্যায়ন ও মৌখিক পরীক্ষা বোর্ডের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা-কর্মচারী ও কমিটির সদস্যদের সম্মানি ও পারিতোষিক সুবিধা জনপ্রতি ২ হাজার টাকা বাড়িয়ে ৫ হাজার টাকা করা হয়েছে। এতে বলা হয়, প্রতিটি লিখিত উত্তরপত্র মূল্যায়নে ৭৫ টাকা থেকে বাড়িয়ে ১২০ টাকা এবং প্রতিটি পূর্ণ অবজেকটিভ উত্তরপত্রের ক্ষেত্রে ২০ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৩০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। এছাড়া, প্রশ্নপত্র প্রণয়ন, পরীক্ষা নেওয়া এবং উত্তরপত্র মূল্যায়নের জন্য খাবারের বরাদ্দকৃত মূল্য ২০০ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৪৫০ টাকা এবং নাস্তার জন্য কোনো অর্থ বরাদ্দ না থাকলেও এখন জনপ্রতি সর্বোচ্চ ২০০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। অন্যদিকে, লিখিত, ব্যবহারিক ও মৌখিক পরীক্ষা পরিচালনার সঙ্গে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা-কর্মচারীরা দৈনিক ৫০০ টাকা করে পেলেও নতুন প্রজ্ঞাপন অনুযায়ী, নবম গ্রেড বা তদূর্ধ্ব কর্মকর্তাদের জন্য দৈনিক ১০০০ টাকা, দশম গ্রেড থেকে ১৬তম গ্রেড পর্যন্ত দৈনিক ৮০০ টাকা এবং ১৭তম গ্রেড থেকে ২০তম গ্রেড পর্যন্ত দৈনিক ৬০০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। এছাড়া, যে ভেন্যুতে পরীক্ষা হবে সেই প্রতিষ্ঠান প্রধান বা তার মনোনীত সমন্বয়কারী এতোদিন কোনো সম্মানি না পেলেও এখন থেকে ৩ হাজার টাকা এবং লিখিত পরীক্ষা কেন্দ্রের পরিদর্শকের দৈনিক সম্মানি ৩০০ টাকা বাড়িয়ে দেড় হাজার টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। এছাড়া, যে কেন্দ্রে লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে সেখানের প্রধানকে এতোদিন কোনো টাকা দিতে না হলেও নতুন প্রজ্ঞাপন অনুযায়ী, প্রতি পরীক্ষার্থীর আসন বিন্যাসের জন্য সরকার ২ টাকা এবং লিখিত পরীক্ষার উত্তরপত্র তৈরির জন্য পরীক্ষার্থী প্রতি ৫ টাকা করে দেবে সংবাদমাধ্যম দ্য বিজনেস স্ট্যান্ডার্সের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সরকারি স্কুল-কলেজ পরীক্ষা কেন্দ্র হিসেবে ব্যবহৃত হলে কোনো কেন্দ্র ফি বা চার্জ আরোপ করা যাবে না বলে প্রজ্ঞাপনে উল্লেখ করা হয়েছে।


প্রকাশিত: ফেব্রুয়ারি ১৬, ২০২২ | সময়: ১:০৯ অপরাহ্ণ | সুমন শেখ