Daily Sunshine

রাবিতে সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলনের পতাকা মিছিল

Share

রাবি প্রতিনিধি: অসাম্প্রদায়িকতা,সম্প্রীতি ও মুক্তিযুদ্ধের অঙ্গীকার, শোষণ-বৈষম্য মুক্ত বাংলাদেশ, জঙ্গিবাদ-দুর্নীতি প্রতিরোধ ও সর্বস্তরে জবাবদিহিতা নিশ্চিত করার লক্ষ্যে জাতীয় পতাকা মিছিল করেছে সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় শাখা। মঙ্গলবার দুপুরে সৈয়দ ইসমাইল হোসেন সিরাজী ভবনের সামনে থেকে পতাকা মিছিলটি শুরু হয়ে প্যারিস রোড দিয়ে সৈয়দ নজরুল ইসলাম প্রশাসনিক ভবন ও কাজী নজরুল ইসলাম মিলনায়তনের সামনে দিয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগারের সামনে এসে শেষ হয়।
পতাকা মিছিল শেষে বক্তব্য দেন আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের চেয়ারম্যান ও সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলন রাবি শাখার সভাপতি ড. সৈয়দ আব্দুল্লাহ আল মামুন চৌধুরী। তিনি বলেন, সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলন কোন রাজনৈতিক দল নয় কিন্তু রাজনীতি বিযুক্ত নয়। একটি সামাজিক সংগঠন যা মানুষের সামাজিক সমস্যার কথা তুলে ধরে। সমাজের উচিত-অনুচিত দিকগুলো মানুষের কাছে তুলে ধরার মাধ্যমে জনসচেতনতা বৃদ্ধি করে। জাতীয় পতাকা মিছিলের মাধ্যমে আমরা বিশ্বের কাছে জাতীয় পতাকাকে তুলে ধরি এবং মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বুকে ধারণ করে অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ গড়ে তোলার দৃঢ়প্রতিজ্ঞাবদ্ধ হই।
তিনি আরো জানান, সম্মিলিত সামাজিক আন্দোলন ডিসেম্বর মাসের এক তারিখে সারাদেশে জাতীয় পতাকা মিছিল করেছে, কিন্তু রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের একাদশ সমাবর্তন অনুষ্ঠিত হওয়ার কারণে আমরা এক তারিখের পরিবর্তে পিছিয়ে ৩ তারিখে করেছি। আমরা সমাজের খারাপ দিকগুলো মানুষের মাঝে তুলে ধরার মাধ্যমে সমাজের অপসংস্কৃতিকে পরিবর্তন করতে চাই। এসময় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রায় শতাধিক শিক্ষার্থী সেখানে উপস্থিত ছিলেন।

ডিসেম্বর ০৪
০৪:৫৩ ২০১৯

আরও খবর

পত্রিকায় যেমন

বিশেষ সংবাদ

বাবুর্চি থেকে হোটেল মালিক আফজাল

বাবুর্চি থেকে হোটেল  মালিক আফজাল

মাহফুজুর রহমান প্রিন্স, বাগমারা: ছিলেন বাবুর্চি এখন হোটেল মালিক। ৯০’ এর দশকে হোটেলের বয় হিসাবে যাত্রা শুরু এই যুবকের। আজ তিনি নিজেই একটি হোটেল পরিচালনা করছে। সুদীর্ঘ এই পেশাদার জীবনে অনেক পেয়েছেন। পেয়েছেন অর্থ, খ্যাতি, সম্মান ও সর্বোপরি সবার ভালোবাসা। এ ছাড়া বাগমারার সকল হোটেল কর্মচারিরা তাকে নেতাও বানিয়েছে। তিনি

বিস্তারিত




এক নজরে

চাকরি

সরকারি চাকরি আইনের সাতটি ধারা বাতিল চেয়ে উকিল নোটিস

সরকারি চাকরি আইনের সাতটি ধারা বাতিল চেয়ে উকিল নোটিস

সানশাইন ডেস্ক: সদ্য কার্যকর হওয়া সরকারি চাকরি আইনের সংবিধানের সঙ্গে সাংঘর্ষিক সাতটি ধারা বাতিল বা প্রত্যাহার করতে স্পিকার ও ছয় সচিবকে আইনি নোটিস পাঠানো হয়েছে। হিউম্যান রাইটস অ্যান্ড পিস ফর বাংলাদেশের (এইচআরপিবি) পক্ষে সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী মনজিল মোরসেদ রোববার রেজিস্ট্রি ডাকযোগে নোটিসটি পাঠিয়েছেন। স্পিকার, মন্ত্রিপরিষদ সচিব, রাষ্ট্রপতি সচিবালয়ের সচিব, প্রধানমন্ত্রী

বিস্তারিত