Daily Sunshine

অধ্যক্ষকে পুকুরে নিক্ষেপে জড়িতদের ছাত্রত্ব বাতিল দাবি ছাত্রমৈত্রীর

Share

স্টাফ রিপোর্টার: রাজশাহী পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের অধ্যক্ষ প্রকৌশলী ফরিদ উদ্দিন আহম্মেদকে টেনেহেঁচড়ে পুকুরে নিক্ষেপের ঘটনায় অভিযুক্তদের ছাত্রত্ব বাতিল ও দৃষ্টান্তমুলক শাস্তির দাবি জানিয়েছে ছাত্রমৈত্রী রাজশাহী মহানগর। বৃহস্পতিবার বেলা ১১টায় নগরীর সাহেব বাজার জিরোপয়েন্টে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশ থেকে এই দাবি জানানো হয়।
ঘন্টাব্যাপি এই মানববন্ধনে বক্তব্য দেন, ছাত্রমৈত্রীর সাবেক নেতা ও বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির রাজশাহী মহানগর সাধারণ সম্পাদক দেবাশিষ প্রামানিক দেবু। তিনি বলেন, রাজশাহীতে ছাত্র নামধারী বখাটেদের উৎপাত বেড়েছে। এরা শিক্ষার্থীদের হয়রানি করে। এরা অনৈতিক সুবিধা না দেওয়ার কারণে পিতৃসমুতুল্য অধ্যক্ষকেও লাঞ্ছিত করেছে যা শুধু গোটা শিক্ষক জাতির সঙ্গে অপরাধ ও অন্যায় করা হয়েছে। এসব লাঞ্ছিতকারীদের অতি দ্রুত বিচারের আওতায় এনে শাস্তির ব্যবস্থা করতে হবে।
ছাত্রমৈত্রীর রাজশাহী মহানগরের সভাপতি এএইচএম জুয়েলের সভাপতিত্বে মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন সাবেক ছাত্রমৈত্রীর নেতা ও মহানগর ওয়ার্কার্স পার্টির সম্পাদকমণ্ডলীর সদস্য মনিরুজ্জামান মনির, সাবেক ছাত্রনেতা ও কাশিয়াডাঙ্গা থানা ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি ইমতিয়াজ আহমেদ সুমন, চন্দ্রিমা থানা ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি শহীদ হোসেন শিশির, ছাত্রমৈত্রীর সাবেক নেতা ও রাসিক ৭নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মতিউর রহমান মতি, সাবেক ছাত্রনেতা আলমগীর হোসেন, ছাত্রমৈত্রীর মহানগর সহ-সভাপতি ফারহান তানভীর হিমেল, ছাত্রমৈত্রীর রাজশাহী কলেজের সাধারণ সম্পাদক সোহেল হোসেন। প্রতিবাদ সমাবেশ পরিচালনা করেন ছাত্রমৈত্রীর মহানগর সাধারণ সম্পাদক সম্রাট রায়হান।

নভেম্বর ০৮
০৪:৫৩ ২০১৯

আরও খবর

পত্রিকায় যেমন

বিশেষ সংবাদ

হেমন্তেই শীতের পদধ্বনি

ফয়সাল আলম: কুয়াশার চাদরে মুড়ে শীত আসছে। এখন যদিও হেমন্তকাল তবুও শীতের আগমনী বার্তা শুরু হয়েছে রাজশাহী অঞ্চলে। কমতে শুরু করেছে তাপমাত্রা, অনুভূত হচ্ছে শীতের পদধ্বনি। সন্ধ্যার পর থেকেই শীত অনুভূত হচ্ছে। রাতে ও মধ্যরাতে অনুভূত হচ্ছে আরও বেশী। জেলা শহর ও সীমান্তবর্তী উপশহরসহ গ্রামাঞ্চলে শীত পড়তে শুরু করেছে। সন্ধ্যালগ্নে

বিস্তারিত




এক নজরে

চাকরি

সরকারি চাকরি আইনের সাতটি ধারা বাতিল চেয়ে উকিল নোটিস

সরকারি চাকরি আইনের সাতটি ধারা বাতিল চেয়ে উকিল নোটিস

সানশাইন ডেস্ক: সদ্য কার্যকর হওয়া সরকারি চাকরি আইনের সংবিধানের সঙ্গে সাংঘর্ষিক সাতটি ধারা বাতিল বা প্রত্যাহার করতে স্পিকার ও ছয় সচিবকে আইনি নোটিস পাঠানো হয়েছে। হিউম্যান রাইটস অ্যান্ড পিস ফর বাংলাদেশের (এইচআরপিবি) পক্ষে সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী মনজিল মোরসেদ রোববার রেজিস্ট্রি ডাকযোগে নোটিসটি পাঠিয়েছেন। স্পিকার, মন্ত্রিপরিষদ সচিব, রাষ্ট্রপতি সচিবালয়ের সচিব, প্রধানমন্ত্রী

বিস্তারিত